২০ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

সেরেসের কাছে বিধ্বস্ত শেখ জামাল


স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ এবারই প্রথম এএফসি কাপে খেলছে ফিলিপাইনের সেরেস লা সালে। কিন্তু এই প্রথম অংশগ্রহণেই বাজিমাত করল দলটি। উঠে গেছে শেষ ষোলোয়। মঙ্গলবার শেখ জামাল ধানম-ি ক্লাবকে ৫-০ গোলের বড় ব্যবধানে বিধ্বস্ত করেছে তারা। ফিলিপাইনের প্যানা-এড পার্ক ফুটবল স্টেডিয়ামে স্বাগতিক দলের হয়ে হ্যাটট্রিক করেন আদ্রিয়ান গ্যালার্ডো। এ আসরে এবার মাত্র একটি ম্যাচ জিততে পেরেছে শেখ জামাল। এবার আরও বাজেভাবে হারল দলটি।

খেলা শুরুর পর থেকেই জামালকে কোণঠাসা করে ফেলে সেরেস। অনবরত আক্রমণে ব্যতিব্যস্ত রাখে সফরকারীদের। ম্যাচের ৭ মিনিটের সময়ই গোল আদায় করে নেয় সেরেস। ৭ নম্বর জার্সিধারী স্প্যানিশ ফরোয়ার্ড বিয়েনভেনিডো ম্যারানোন গোল করে এগিয়ে নেন দলকে (১-০)। গোল খেয়ে আরও ছত্রভঙ্গ হয়ে পড়ে জামাল। সে কারণে দুই মিনিট পরই আরেকটি গোল হজম করে তারা। ৯ মিনিটের সময় নিজের প্রথম গোলটি করেন ৯ নম্বর জার্সিধারী গ্যালার্ডো (২-০)। প্রথমার্ধে অবশ্য আর কোন গোল হজম করেনি সফরকারীরা। নিজেরাও গোল পরিশোধের জন্য তেমন ভাল কোন আক্রমণ গড়ে তুলতে পারেনি। ২-০ গোলে পিছিয়ে থেকেই প্রথমার্ধ শেষ করে শেখ জামাল।

দ্বিতীয়ার্ধেও তেমন বড় কোন প্রতিদ্বন্দ্বিতা গড়ে তুলতে পারেনি শেখ জামাল। স্বাগতিক সেরেসের আক্রমণে কোণঠাসা হয়ে পড়ে তারা। নিজেদের সামলাতেই হিমশিম খেতে থাকে শফিকুল ইসলাম মানিকের শিষ্যরা। আর সেই সুযোগে ৫৭ মিনিটের সময় নিজের দ্বিতীয় গোল করে দলকে আরও এগিয়ে দেন গ্যালার্ডো (৩-০)। গ্যালার্ডোকে ঠেকিয়ে রাখা যায়নি এরপরও। শেখ জামালের রক্ষণভাগে মূর্তিমান আতঙ্ক হয়ে ওঠেন তিনি। ৬৪ মিনিটের সময় হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন এ ফরোয়ার্ড। সেরেস এগিয়ে যায় ৪-০ গোলে। আগেভাগেই যেন হেরে বসে শেখ জামাল।

বড় ব্যবধানে পিছিয়ে পড়ার কারণে আর নিজেদের ফিরে পায়নি সফরকারীরা। উল্টো আরেকটি গোল হজম করে ৭০ মিনিটের সময়। এবার গোল করেন মিডফিল্ডার জেফ্রি ক্রিস্টিয়ানেস (৫-০)। বাকিটা সময় নিজেদের গোল হজম থেকে বাঁচিয়ে রাখতে পারলেও কোন গোলই পরিশোধ করার মতো আহামরি কোন আক্রমণ রচনা করতে পারেনি শেখ জামাল। শেষ পর্যন্ত বিশাল পরাজয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে শেখ জামাল।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: