২২ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

লক্ষ্মীপুর কমলনগরে ৪ ইউপি সদস্য প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ


নিজস্ব সংবাদদাতা, লক্ষ্মীপুর ॥ লক্ষ্মীপুর কমলনগর উপজেলার তোরাবগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ৪ ইউপি সদস্য প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে পৃথক দু’টি সংঘর্ষের ঘটনায় ৮জন নারীসহ ১৩ জন আহত হয়েছে। রবিবার দুপুরে তোরাবগঞ্জ ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডে ও শনিবার সন্ধ্যায় একই ইউনিয়নের ৩ নং ওয়ার্ডে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। আহতদের কমলনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এ বিষয়ে এখনো কোন পক্ষ থেকে মামলা হয়নি বলে জানিয়েছেন, কমলনগর থানার পুলিশের উপ-পরিদর্শক মানিক চন্দ্র বড়ুয়া। এলাকায় পুলিশী টহল জোরদার করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, রবিবার বেলা দেড়টার দিকে ইতোপূর্বে অনুষ্ঠিত তোরাগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ৫ নং ওয়ার্ডের বিজয়ী ইউপি সদস্য আবদুর রহিম ওরফে দুলাল মেম্বারের ৫/৬ জন সমর্থক পরাজিত প্রার্থী মোঃ বাহার উদ্দিন ভূঁঞার সমর্থক রাশেদ কে মোবাইল ফোনে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে অর্তকিত হামলা করে। এতে রাশেদ গুরুত্ব আহত হয়। এ খবর ছড়িয়ে পড়লে উভয় পক্ষের লোক জন এসে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এ সময় ৪ নারীসহ উভয় পক্ষের ৭ জন আহত হন।

এর আগে শনিবার সন্ধ্যায় একই ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের বিজয়ী প্রার্থী শাহ আলম মোল্লার একটি বিজয় মিছিল পরাজিত প্রার্থী কবিরের বাড়ির সামনে দিয়ে যাওয়ার সময় কবির কে উদ্দেশ্য করে অশালীন শ্লোগান দিচ্ছিলো। এ শ্লোগান শুনে কবিরের মা বাড়ি থেকে আপত্তি জানালে মিছিলকারীরা কবিরের মাকে উদ্দেশ্য করে তাদের বাড়িতে হামলা করে। এ সময় হামলাকারীরা কুপিয়ে ও পিটিয়ে ৪ নারীসহ ৬ জনকে মারাত্মকভাবে জখম করে বলে অভিযোগ করেন আহত কবিরের পরিবারের লোকজন। এ সময় শাহআলম মেম্বারের এক ছেলেও আহত হয়। সাধারণ মানুষের মধ্যে এ নিয়ে আতংক বিরাজ করছে। তবে এ নিয়ে কেউ গ্রেপ্তার হওয়ার খবর পাওয়া যায়নি। এতে যে কোনো মুহুর্তে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশঙ্কা করছে এলাকাবাসী। এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: