মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২০ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ৫ আশ্বিন ১৪২৪, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

শেষ ম্যাচে বড় পরাজয় বাংলাদেশের

প্রকাশিত : ২৬ মার্চ ২০১৬, ০৭:০৪ পি. এম.
শেষ ম্যাচে বড় পরাজয় বাংলাদেশের

অনলাইন ডেস্ক ॥ হার দিয়েই বিশ্বকাপ শেষ করল বাংলাদেশ। নিজেদের শেষ ম্যাচে নিউজিল্যান্ডের কাছে ৭৫ রানে হেরেছে মাশরাফি বাহিনী। নিউজিল্যান্ডের ১৪৫ রানের জবাবে বাংলাদেশ অলআউট হয় মাত্র ৭০ রানে। শনিবার কলকাতার ইডেন গার্ডেন্সে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে ৮ উইকেটে ১৪৫ রান করে

নিউজিল্যান্ড। জবাবে ১৫ ওভার ৪ বলে ৭০ রানে অলআউট হয়ে যায় বাংলাদেশ।

দলের হয়ে সর্বোচ্চ ১৬ রান করে অপরাজিত থাকেন শোভাগত হোম। এছাড়ও ১২ রান করেছেন সাব্বির রহমান আর ১১ রান করেছেন মোহাম্মদ মিথুন। এরমধ্যে অার কেউ পারেনি দুই অঙ্কের কোঠায় পৌছাতে। শেষ ম্যাচটি বাংলাদেশের জন্য একটি বর পরাজয় বটে। সেখানে শুধু ওপেনারই নয় সবাই ব্যাটিংয়ে সবাই ব্যার্থ। আর সাফল্য বলতে মুস্তাফিজ কেননা, টি-২০ বিশ্বকাপে একাই নিয়েছেন ৫ উইকেট। কিন্তু এই সাফল্যটা রঙিণ হলো না বর পরাজয়ের কারণে।

এর আগে টস জিতে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত নেন কেন উইলিয়ামসন। ভারতের বিপক্ষে খেলা দলটি অপরিবর্তিত রেখেই আজ নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে খেলছে বাংলাদেশ।

ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুটা দুর্দান্ত হয়েছিল কিউইদের। প্রথম ৩ ওভারেই ২৩ রান তুলে ফেলেছিলেন কেন উইলিয়ামন ও হেনরি নিকোলস। তবে অবস্থা বদলে যায় চতুর্থ ওভারে মুস্তাফিজ বল হাতে এলে। ওভারের ষষ্ঠ বলে নিকোলসকে বোল্ড করেন এই কাটার। ১১ বলে ৭ রান করেন নিকোলস।

কলিন মুনরো ও কেন উইলিয়ামসন জুটি মিলে সংগ্রহ করেন ৩২ রান। মাশরাফি-সাকিবরা তেমন কোনও প্রভাব ফেলতে পারছিলেন না এই দুই ব্যাটসম্যানের উপর। ভয়ঙ্কর হয়ে ওঠা এই জুটি ভাঙেন মুস্তাফিজ। নিকোলসকে কাটারে ফেরালেনও উইলিয়ামসকে স্লোয়ারে বোল্ড করেন ক্রিকেটেরে বিস্ময়বালক মুস্তাফিজ। ৫ চার ও এক ছয়ে ৩২ বলে ৪২ রান করেন কিউই দলপতি।

বেশ কিছুক্ষণ ধৈর্য্য ধরে খেলা কলিন মুনরো খোলস থেকে বেরিয়ে আসার চেষ্টা করেন। মাহমুদউল্লাহর করা আগে ওভারে একটি চার ও ছয় মেরে বিশেষ কিছুর ইঙ্গিত দিচ্ছিলেন এই ব্যাটসম্যান। আল আমিনের পরের ওভারেও লং অনের উপর দিয়ে বিশাল ছয় মেরেছিলেন। তবে পঞ্চম বলে মুনরোকে বোল্ড করে প্যাভিলিয়নে ফেরান আল আমিন। ৩৩ বলে ৩৫ রান করেন মুনরো।

এরপর এসেই ফিরে যান কোরে অ্যান্ডারসন। মাশরাফির বলে বোল্ড হবার আগে রানের খাতাই খুলতে পারেননি এই ব্যাটসম্যান। মুস্তাফিজুরের তৃতীয় শিকার হয়ে কিছুক্ষণ বাদে ফিরে যান গ্রান্ট এলিয়ট।

এই ম্যাচে বেশি কিছু করতে পারেননি রস টেলরও। ২৪ বলে মাত্র ২৮ রান করে অাল আমিনের বলে মোহাম্মদ মিথুনকে ক্যাচ দেন বষীয়ান এই ক্রিকেটার। শেষ ওভারে ২ উইকেট নিয়ে টি২০ ক্যারিয়ারে প্রথমবারের মতো ৫ উইকেট নেন মুস্তাফিজ।

বাংলাদেশ একাদশ: তামিম ইকবাল, সৌম্য সরকার, সাব্বির রহমান, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, শুভাগত হোম, মোহাম্মদ মিঠুন, মাশরাফি বিন মর্তুজা (অধিনায়ক), আল-আমিন হোসেন, মুস্তাফিজুর রহমান।

নিউজিল্যান্ড একাদশ: মার্টিন গাপটিল, হেনরি নিকোলস, কেন উইলিয়ামসন (অধিনায়ক), কলিন মুনরো, কোরি এন্ডারসন, রস টেলর, গ্র্যান্ট এলিয়ট, লুক রঞ্চি, মিশেল সান্টনার, মিশেল ম্যাকক্লেনাঘান, ইশ সোধি।

প্রকাশিত : ২৬ মার্চ ২০১৬, ০৭:০৪ পি. এম.

২৬/০৩/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

জাতীয়



শীর্ষ সংবাদ: