২৪ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

মোরেলগঞ্জে স্বতন্ত্র প্রার্থীকে ধাওয়া ॥ আওয়ামী লীগ নেতা আটক


স্টাফ রিপোর্টার, বাগেরহাট ॥ বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে জামায়াতে ইসলামীর নেতা স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী রফিকুল ইসলাম স্বপনকে ধাওয়া করেছে আ. লীগ প্রার্থীর সমর্থকেরা। রবিবার সন্ধ্যায় উপজেলা পরিষদ চত্বরে সংশ্লিষ্ট রিটানিং অফিসারের সামনে এ ঘটনা ঘটে। পরিস্থিতি সামাল দিতে পুলিশ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল জলিল হাওলাদার ও ছাত্রীলগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মেহেদি হাসান জিমিকে আটক করেছে। এদিকে রাতে বলইবুনিয়া ইউপির ৮নং ওয়ার্ডের মেম্বার প্রার্থী জুলফিকার আলী শেখকে কুপিয়েছে দুর্বৃত্তরা। রাত ২টার দিকে গুরুতর জখম অবস্থায় পুলিশ তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠিয়েছে। এ ঘটনায় এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।

থানা পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, জিউধরা ইউনিয়নে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী জামায়াত নেতা স্বপন এর ৩কর্মী, আক্কাস ফরাজী, লাকীর ফকির ও রেজাউল হাওলাদারকে কিছু লিফলেট ও টাকাসহ আটক করে আ. লীগের প্রার্থী বাদশার লোকেরা। পরে ওই ৩জনকে পুলিশে সোপর্দ করা হয়। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে দুই প্রার্থীর মধ্যে বাক বিতন্ডা হয়। পরে আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা এসে স্বপনকে ধাওয়া করে। এ সময় স্বপন পুলিশের সহযোগীতায় মটর সাইকেলে করে পালিয়ে যায়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনরে জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশে পুলিশ আ. লীগ নেতা আব্দুল জলিল ও তার ছেলে ছাত্রলীগ নেতা জিমিকে আটক থানায় নিয়ে যায়। এ সম্পর্কে নির্বাহী কর্মকর্তা মুহাম্মদ ওবায়দুর রহমান বলেন, নির্বাচন শান্তিপূর্ণ করতে প্রশাসন কঠোর অবস্থানে থাকবে। থানার ওসি তারক বিশ্বাস বলেন, আ. লীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকে ইউএনও সাহেবের নির্দেশে থানায় বসিয়ে রাখা হয়েছে। অপর ৩জনকে জ্ঞিাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে। তবে এখন পর্যন্ত কোন মামলা হয়নি।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: