২১ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

ফাইনালে জোকোভিচ নাদালকে হারিয়ে


স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ আরও একবার নিজের শ্রেষ্ঠত্বের প্রমাণ দিলেন নোভাক জোকোভিচ। শনিবার বিশ্ব টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের নাম্বার ওয়ান এই তারকা রাফায়েল নাদালকে হারিয়ে ইন্ডিয়ান ওয়েলসের ফাইনালে জায়গা করে নিলেন। টুর্নামেন্টের সেমিফাইনালে সার্বিয়ার নোভাক জোকোভিচ ৭-৬ (৭/৫) এবং ৬-২ গেমে হারান স্প্যানিশ টেনিস তারকা রাফায়েল নাদালকে। এই জয়ের ফলে দারুণ রোমাঞ্চিত জোকোভিচ।

ইন্ডিয়ান ওয়েলসের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন নোভাক জোকোভিচ। এই মুহূর্তে তার পারফর্মেন্সও দুর্দান্ত। শেষ ২০ ম্যাচে হার মাত্র একটিতে। এই পরিসংখ্যানটাই বলে দেয় তার পারফর্মেন্সের ধারাবাহিকতা। নাদালের বিপক্ষে জয়ের ফলে তা দাঁড়াল ২১-১। তবে ইন্ডিয়ান ওয়েলসের শিরোপা ধরে রাখার ক্ষেত্রে তার বড় বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন এই নাদালই। যে কারণে সার্বিয়ান তারকাও বিষয়টিকে কঠিন চ্যালেঞ্জ হিসেবে মানছেন। এ বিষয়ে ম্যাচ শেষের সংবাদ সম্মেলনে ২৮ বছর বয়সী জোকোভিচ বলেন, ‘এই চ্যালেঞ্জ অতিক্রম করতে পেরে আমি খুবই আনন্দিত। কেননা রাফার বিপক্ষে খেলাটাই আমার মনে হয় ক্রীড়াজগতে সবচেয়ে কঠিন চ্যালেঞ্জ। তার বিপক্ষে আজকের ম্যাচের প্রথম সেটটা নির্ধারিত হয়েছে কেবল ১-২ পয়েন্টের ব্যবধানে। দ্বিতীয় সেটটাও ছিল খুব কাছাকাছি ব্যবধানের। তবে শেষ তিনটা গেম আমি খুব ভাল খেলেছি।’

টেনিস কোর্টে নাদাল-জোকোভিচ এখন পর্যন্ত ৬৮ বার মুখোমুখি হয়েছেন। তবে এরমধ্যে ২৫ বারই জিতেছেন জোকোভিচ। আর বাকি ২৩ ম্যাচে জয় পেয়েছেন নাদাল। তবে শেষ ১১ বারের মুখোমুখি লড়াইয়ে ১০ বার জয়ের মুখ দেখেছেন সার্বিয়ান তারকা জোকোভিচ। ইন্ডিয়ান ওয়েলসে তিনবার শিরোপা জিতেছেন নাদাল। ২০০৭ সালে প্রথম, ২০০৯ সালে দ্বিতীয় এবং ২০১৩ সালে শেষবারের মতো বিএনপি পরিবাস ওপেনের শিরোপা জিতেন নাদাল। আর নাদালের পর থেকেই ইন্ডিয়ান ওয়েলসে গত দুইবার টানা চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন জোকোভিচ। এবার শিরোপা জিতলে টানা তিনবার এবং সবমিলিয়ে রেকর্ড পাঁচবার চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করবেন জোকোভিচ।

গত মৌসুমটা দারুণ কেটেছে সার্বিয়ান তারকার। চার গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্টের তিনটিতেই শিরোপা জয়ের হাসি হেসেছেন তিনি। ফ্রেঞ্চ ওপেনে ব্যর্থ না হলে ক্যালেন্ডার সøাম জয়ের মাইলফলকটাও হয়ে যেত তার। তবে পারফর্মেন্সের ধারাবাহিকতা ঠিকই ধরে রেখেছেন তিনি। চলতি মৌসুমের প্রথম মেজর টুর্নামেন্ট অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের শিরোপাটাও যে ইতোমধ্যেই জিতে নিয়েছেন টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের নাম্বার ওয়ান এই তারকা! তার সামনে এখন গত মৌসুমে ফ্রেঞ্চ ওপেনের ফাইনালে স্টানিসøাস ওয়ারিঙ্কার কাছে হারের প্রতিশোধ নেয়ার হাতছানি। তবে দ্বিতীয় গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্টের আগে এখন ইন্ডিয়ান ওয়েলস জিততেই আত্মবিশ্বাসী জোকোভিচ। সেক্ষেত্রে তার প্রতিপক্ষ এখন কানাডিয়ান তারকা মিলোস রাওনিক। শেষ চারে রাওনিক ৬-৩, ৩-৬ এবং ৬-৩ গেমে পরাজিত করেছেন বেলজিয়ামের ডেভিড গফিনকে। ২৫ বছর বয়সী রাওনিকের ক্যারিয়ারে এটা ১৭তম এটিপি ফাইনাল। এর আগে নোভাক জোকোভিচের বিপক্ষে পাঁচবার মুখোমুখি হয়েছেন তিনি। কিন্তু দুর্ভাগ্য রাওনিকের। সার্বিয়ান তারকার বিপক্ষে খেলা সবকটিতেই পরাজয় দেখেছেন তিনি। এবার কি পারবেন জয়ের মুখ দেখতে? নাকি জোকোভিচই হাসবেন শেষের হাসি? ভক্ত-অনুরাগীদের অপেক্ষা এখন সেটাই দেখার।