২৪ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

‘দিনটি নিজেদের করে নিতে হবে’


‘দিনটি নিজেদের করে নিতে হবে’

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বাংলাদেশ যুব দল যেমন চেয়েছিল, তেমনই হয়েছে। ওয়েস্ট ইন্ডিজ অনুর্ধ ১৯ দলকেই সেমিফাইনালে পেয়েছে। যে দলটির বিপক্ষে আজ শেষ চারের লড়াইয়ে খেলতেও নামবে বাংলাদেশ। কিন্তু শেষ মুহূর্তে এসে যেন কিছুটা ভয়ও কাজ করছে। ম্যাচটি সেমিফাইনাল। গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ। আবার পাকিস্তানের বিপক্ষে দুর্দান্ত খেলেই সেমিতে উঠেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। সবমিলিয়ে যেন শেষমুহূর্তে ‘জুজু’ হয়ে উঠেছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ যুব দল। বাংলাদেশ অনুর্ধ ১৯ ক্রিকেট দলের কোচ মিজানুর রহমান বাবুল অবশ্য আজকের দিনটিও নিজেদের করে নিতে চান। বুধবার বলেছেন, ‘দিনটি আমাদের করে নিতে চাইব।’ ম্যাচ নিয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে যুব দলের কা-ারি বাবুলের বলা কথাগুলোর সারসংক্ষেপ তুলে ধরা হলো।

প্রশ্ন ॥ প্রস্তুতি কেমন হলো?

মিজানুর রহমান বাবুল ॥ আমাদের প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। ছেলেরা দারুণ ছন্দে আছে। আপাতত আগামীকালের (আজকের) ম্যাচের অপেক্ষা করছি আমরা।

প্রশ্ন ॥ ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলে ভাল পেসার আছে এবং হার্ডহিটিং ব্যাটসম্যান আছে। তাদের নিয়ে ভাবনা কী?

বাবুল ॥ বিশ্বকাপের আগে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সঙ্গে আমরা তিন ওয়ানডে খেলেছি। (আলজাররি) জোসেফ নামে তাদের একজন পেসার আছে। তাকে আমাদের ছেলেরা ভাল করেই চিনে। তার বোলিং সম্পর্কেও আমাদের ব্যাটসম্যানদের ভাল ধারণা আছে। তার বিপক্ষে এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজের অন্য বোলারদের বিপক্ষে খেলার জন্য আমাদের প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। দলটির হার্ডহিটিং ব্যাটসম্যান (গিডরন পপ) আছে। সে বিশ্বকাপের তিন ম্যাচে বেশি রান করতে পারেনি। আশা করি কালও (আজও) কিছু করতে পারবে না! (হাসি ...)।

প্রশ্ন ॥ এই প্রথম বাংলাদেশ সেমিফাইনাল খেলছে। অনেক অনেক প্রত্যাশার চাপ কি আছে?

বাবুল ॥ আমরা কালকের (আজকের) ম্যাচকে শুধু একটা ম্যাচ হিসেবেই চিন্তা করছি। সেমিফাইনাল হিসেবে ভাবছি না। সেমিফাইনাল বলে জিততেই হবে; এভাবে ভেবে কোন চাপ নিতে চাচ্ছি না। আমরা এটিকে নিয়মিত একটি ম্যাচ হিসেবেই খেলতে চাই। চেষ্টা থাকবে নিজেদের পরিকল্পনা ঠিকঠাক প্রয়োগ করার।

প্রশ্ন ॥ শুরুর দিকে একটু ধীরে খেলার পরিকল্পনা থাকে। যাতে বেশি উইকেট না পড়ে। এবার চিন্তাটা কেমন?

বাবুল ॥ আলাদা আলাদা কন্ডিশনে ভিন্ন ভিন্ন চিন্তা থাকে। প্রতিপক্ষের শক্তি এবং উইকেট দেখেই আমরা খেলার চেষ্টা করি। ইনশাআল্লাহ কালও (আজও) আমরা এভাবেই খেলব।

প্রশ্ন ॥ উইকেট ধরে রাখতে গিয়ে দেখা গেছে উইকেটও গেছে, রানও হয়নি। যা পরে চাপ সৃষ্টি করেছে ...

বাবুল ॥ ওয়েস্ট ইন্ডিজের সঙ্গে বিশ্বকাপের আগে আমরা খেলেছি। সাইফ হাসান ওই সিরিজে সেরার পুরস্কার পেয়েছে। একটা সেঞ্চুরিও করেছিল। আশা করি সাইফ যদি কাল (আজ) থাকে, তবে সে ভাল কিছু করবে বলে আশা করি।

প্রশ্ন ॥ প্ল্যানটা কি আগের মতোই থাকবে?

বাবুল ॥ আমাদের শক্তি অনুযায়ী খেলব। যেভাবে সাধারণত খেলি, সেভাবেই খেলব।

প্রশ্ন ॥ ওপেনাররা ঠিক ভাল কিছু করতে পারছে না ...

বাবুল ॥ আমরা আসলে প্রস্তুত। ভাল করার জন্য। ওদের সঙ্গে আমরা তিন ম্যাচ খেলেছি। প্রতি বোলার ও ব্যাটসম্যান সম্পর্কে আমাদের ধারণা ভাল। ওদের সম্পর্কে ধারণাটাই সেরা প্রস্তুতি। ওপেনাররা রানে ফেরার চেষ্টা করছে। আশা করছি হয়ে যাবে।

প্রশ্ন ॥ ওরাও তো বাংলাদেশ সম্পর্কে ভাল জানে। তো এই জানাজানি শেষ পর্যন্ত কতটা কাজে লাগে ...

বাবুল ॥ ক্রিকেটে নির্দিষ্ট দিনে যারা ভাল খেলে, তারাই কিন্তু জিতে। আমরা চেষ্টা করব কালকের (আজকের) দিনটা আমাদের নিজের করে নেয়ার জন্য। সবাই চেষ্টা করছে।

প্রশ্ন ॥ টপঅর্ডারের পারফর্মকে কতটা গুরুত্ব দিয়ে দেখছেন?

বাবুল ॥ যেহেতু ওদের সেরা শক্তি পেস এ্যাটাক। আমাদের টপঅর্ডার যদি ঠিকঠাক পারফর্ম করে, তবে মিডলঅর্ডার ও লোয়ার অর্ডারের কাজটা সহজ হয়ে যায়। প্রথমে ব্যাটিং করে ২৩০ বা ২৫০ যদি করতে পারি বা এর চেয়ে বেশি যদি হয়, ভাল একটা কিছু আমরা করতে পারব।

সর্বাধিক পঠিত:
পাতা থেকে: