২২ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

আয়ারল্যান্ড প্রবাসী আওয়ামী লীগের কর্মী সমাবেশ


আয়ারল্যান্ডের রাজধানী ডাবলিনের পারনেল স্কয়ারের টিচার্স ক্লাবে গত ৭ ফেব্রুয়ারি ’১৬ বিকেলে প্রবাসী আওয়ামী লীগের এক কর্মী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে সভাপতিত্ব করেন মুক্তিযোদ্ধা সাইদুর রহমান। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন সর্বইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের সভাপতি অনিল দাস গুপ্ত। বিশেষ অতিথি ছিলেন সর্বইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক, অস্ট্রিয়া প্রবাসী মানবাধিকারকর্মী, লেখক, সাংবাদিক এম. নজরুল ইসলাম, বেলজিয়াম আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আবদুস সালাম ভূইয়া, ফ্রান্স আওয়ামী লীগের আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক মোঃ আতিকুজ্জামান। অতিথিবৃন্দ ছাড়াও অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন আয়ারল্যান্ড আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি কিবরিয়া হায়দার, সাধারণ সম্পাদক বেলাল হোসেন, আয়ারল্যান্ড আওয়ামী লীগ নেতা ইকবাল আহমদ লিটন, জালাল আহমদ ভূঁইয়া, ফিরুজ হোসেন, জসিমউদ্দিন আহমদ, রফিক খান, মিনহাজুল আমিন সাকিল, রাজিবুল হক গালিব, অলক সরকার, মোঃ কামরুজামান, বরুন কুমার, নিমিন চাই দাশ, জসিমউদ্দিন পাটোয়ারি, রফিকুল ইসলাম, রবিউল ইসলাম, ভাসানী খান প্রমুখ। -বিজ্ঞপ্তি

সংসদ ভবনের পাশে পূজার প্রস্তুতি

সংসদ রিপোর্টার ॥ জাতীয় সংসদ পরিবারের পক্ষ থেকে এবারও জ্ঞানের দেবী সরস্বতীর পূজো অনুষ্ঠানের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। ইতোমধ্যে পূজার ব্যাপক প্রস্তুতি চলছে। আগামী ১৩ ফেব্রুয়ারি শনিবার সকালে সংসদ ভবনের পাশে রাজধানী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে এই পূজা অনুষ্ঠিত হবে। আয়োজকরা জানান, ওই দিন সকাল ৮টায় পূজা শুরু হবে। এরপর সকাল সোয়া ১০টায় পুষ্পাঞ্জলি অনুষ্ঠিত হবে। বিকেল ৫টায় আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন থাকবে। অনুষ্ঠানে স্পীকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী ও ডেপুটি স্পীকার এ্যাডভোকেট মোঃ ফজলে রাব্বী মিয়াসহ জাতীয় সংসদের হুইপ, সংসদ সদস্যগণ ও কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত থাকবেন।

তিন বিলে রাষ্ট্রপতির সম্মতি

সংসদ রিপোর্টার ॥ দশম সংসদের নবম অধিবেশনে পাস হওয়া ৩ টি বিলে সম্মতি জ্ঞাপন করেছেন রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ। সংসদ সচিবালয়ের জনসংযোগ শাখার উপপরিচালক মোঃ নূরুল হুদা স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে মঙ্গলবার এ তথ্য জানানো হয়।

নারী সার্জেন্ট

রাজধানীর রাজপথে এখন নারী সার্জেন্টদের দায়িত্ব পালন করতে দেখা যায়। নারীরাও যে চ্যালেঞ্জিং পেশায় নিজেদের দক্ষতার স্বাক্ষর রাখতে পারেন এ দৃশ্য সে কথাই মনে করিয়ে দিচ্ছে। তবে এরই মধ্যে তারা এই গুরুত্বপূর্ণ পেশায় নিজেদের যোগ্যতার প্রমাণ দিয়েছেন। বনানী এলাকা থেকে ছবিটি তুলেছেন জনকণ্ঠের নিজস্ব আলোকচিত্রী।

অন্ধ হলেও স্বাবলম্বী

দুই চোখে আলো না থাকলেও জীবিকা নির্বাহের জন্য তিনি কারও কাছে হাত পাতেন না। বরং রাস্তায় রাস্তায় ফেরি করে সংসারের ব্যয় নির্বাহ করে থাকেন। তার নাম নূর আলম। এক ছেলে ও চার মেয়েকে নিয়ে থাকেন মিরপুরের কালশি এলাকায়। ৩০ বছর ধরে তিনি একজন স্বাবলম্বী মানুষের মতো জীবনযাপন করছেন। ছবিটি তুলেছেন জনকণ্ঠের নিজস্ব আলোকচিত্রী।