মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১০ আশ্বিন ১৪২৪, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

চুয়াডাঙ্গায় চাঁদাবাজির বিরুদ্ধে ইট ভাটা মালিক সমিতির সংবাদ সম্মেলনে

প্রকাশিত : ৯ ফেব্রুয়ারী ২০১৬, ০২:৫৫ পি. এম.

নিজস্ব সংবাদদাতা, চুয়াডাঙ্গা॥ চুয়াডাঙ্গায় ইট ভাটায় চাঁদাবাজি বন্ধ না হলে শহর অচল করে দেওয়ার হুমকি দিয়েছে ইট ভাটা মালিক সমিতি। মঙ্গলবার দুপুরে চুয়াডাঙ্গা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে ভাটা মালিক সমিতির নেতৃবৃন্দ এ কথা বলেন। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে সংগঠনের সাধারন সম্পাদক আবদুল মোতালেব বলেন, জেলার ৮৪টি ইট ভাটা মালিকেরা চরম নিরাপত্তাহীনতায় দিন কাটাচ্ছে। আমরা সরকারের ভ্যাট, ট্যাক্স, লাইসেন্স ফি দিয়ে সরকারি নীতিমালা অনুযায়ী ব্যবসা করে আসছি। কিন্তু স্থানীয় প্রশাসন আমাদের জানমালের নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ হচ্ছে। গত বছর আলমডাঙ্গার একটি ইট ভাটা শ্রমিক মুসা হককে চাঁদার দাবিতে হত্যা করা হয়। পরবর্তিতে তারা প্রত্যেকটি ভাটা মালিককে চাঁদা না দিলে এভাবেই শ্রমিকদের হত্যা করার হুমকি দেয়। তারপর থেকেই আমরা ঢালাওভাবে চাঁদা দিতে বাধ্য হয়। গত কয়েকদিন আগে দামুড়হুদার মুক্তারপুরে এমআর ব্রিক্স ও লাবনী ব্রিক্স সন্ত্রাসীরা বন্ধ করে দিয়েছে। আরো বেশ কিছু বন্ধ হওয়ার পথে।

গুরুদেব, বিজয়, বিকাশ, সাগরসহ একাধিক বাহিনীর নামে সন্ত্র্রাসীরা মোবাইল ফোনে চাঁদা চাচ্ছে। চাঁদা না দিলে রাতে ১৫/২০ জনের গ্যাং গ্রুপ ভাটায় ঢুকে শ্রমিকদের মারধরসহ হত্যার হুমকি দিচ্ছে। পুলিশ প্রশাসনকে জানিয়েও কোন সুরাহা হচ্ছে না। তারা আরো বলেন, আগামী ১০ দিনের মধ্যে চাঁদাবাজি বন্ধ না হলে আমাদের যানবাহন দিয়ে শহর অচল করে দেয়া হবে। পরে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি পেশ করা হয়। স্মারকলিপিতে অবিলম্বে চুয়াডাঙ্গাকে সন্ত্রাসমুক্ত এলাকায় পরিণত করা ও র‌্যাব ক্যাম্প পুন প্রতিষ্ঠার দাবি জানানো হয়। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন জেলা ইট ভাটা মালিক সমিতির সভাপতি বজলুর রহমান, জিকজাক ইট ভাটা মালিক সমিতির সভাপতি আবদুল মান্নান নান্নু, হাবিবুর রহমান লাভলু প্রমুখ।

প্রকাশিত : ৯ ফেব্রুয়ারী ২০১৬, ০২:৫৫ পি. এম.

০৯/০২/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



শীর্ষ সংবাদ: