২৩ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

নিউ হ্যাম্পশায়ার ॥ জেব বুশের জন্য শেষ সুযোগ


মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান পার্টির অন্যতম মনোনয়ন প্রত্যাশী জেব বুশের দৃশ্যত ভাগ্য নির্ধারিত হবে মঙ্গলবার অনুষ্ঠেয় দলীয় প্রাইমারি ভোটে। সেদিনই তিনি প্রতিযোগিতায় টিকে থাকার সম্ভবত সর্বশেষ সুযোগ পাবেন। ফ্লোরিডার সাবেক গবর্নর বুশ রসিকতা করে বলেন, আমি আসলে প-িতদের কথায় চলি না, কারণ সেটি আমার স্বাস্থ্যের জন্য ভাল নয়। খবর এএফপির।

তিনি শুক্রবার কনকর্ডের এক স্কুল ক্যাফেটারিয়াতে ভোটারদের সঙ্গে প্রশ্নোত্তর পর্বে মিলিত হচ্ছিলেন। বুশ বলেন, আমি জানি আমার নাম খারিজ হয়ে গেছে। তার অবশ্যই আগামী সপ্তাহে তার প্রতিষ্ঠিত প্রতিদ্বন্দ্বীদের হারাতে হবে, নয়তো প্রতিযোগিতার পথ ছেড়ে দেয়ার কথা ভাবতে হবে। তিনি তুমুল হর্ষধ্বনির মধ্যে বলেন, আপনারা জানেন আমি কোথা থেকে আস্থা পাই? নিউহ্যাম্পশায়ার। বুশের প্রচার শিবির তার মনোনয়ন লাভের পথে অঙ্গরাজ্যকে খুবই গুরুত্বপূর্ণ মনে করছেন। আইওয়া ককাস ভোটের পর তার জন্য এখন প্রবল সাফল্য প্রদর্শন অপরিহার্য। তিনি আইওয়াতে শতকরা ২ দশমিক ৮ ভাগ ভোট পেয়ে হতাশাব্যঞ্জক ষষ্ঠ স্থানে থাকেন। তিনি বিতর্ক অনুষ্ঠানে সবার চেয়ে ভাল নাও করতে পারেন বলে স্বীকার করেন। কিন্তু তিনি বলেন যে, দেশের কমান্ডার-ইন-চিফ হওয়ার মতো সর্বোত্তম স্বভাব, অভিজ্ঞতা ও জ্ঞান তার রয়েছে।

৪০৪ স্টেলথ জঙ্গী বিমান কিনছে পেন্টাগন

যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় (পেন্টাগন) আগামী পাঁচ বছরে লকহিড মার্টিন কর্পোরেশনের তৈরি ৪০৪টি এফ-থার্টিফাইভ স্টেলথ জঙ্গী বিমান কেনার পরিকল্পনা করেছে। পেন্টাগনের ক্রয় পরিকল্পনার সঙ্গে ঘনিষ্ঠ একটি সূত্র শুক্রবার এ খবর জানিয়েছে। খবর ওয়েবসাইটের।

গত বছর পেন্টাগন যে পরিকল্পনা করেছিল তাতে আরও বেশি বিমান ক্রয়ের ঘোষণা ছিল। এবারের পরিকল্পনায় বিমানের সংখ্যা আগের সংখ্যা থেকে পাঁচ থেকে সাত শতাংশ হ্রাস করা হয়েছে। সংশোধিত এই ক্রয়াদেশের বিষয়টি মঙ্গলবার পেন্টাগনের ২০১৭ সালের বাজেট পরিকল্পনায় এবং নতুন পঞ্চবার্ষিক পরিকল্পনায় প্রকাশ করা হতে পারে বলে সূত্রটি জানিয়েছে। বাজেট প্রকাশ হওয়ার আগে গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলার অনুমতি না থাকায় নিজের নাম প্রকাশ না করার শর্তে এসব কথা জানিয়েছে ওই সূত্র। পেন্টাগনের ৩৯১ বিলিয়ন ডলারের অস্ত্র কেনার কর্মসূচিতে বিমানবাহিনীর জন্য বরাদ্দ ৪৫টি এফ-৩৫ স্টিলথ কেনার পরিকল্পনা স্থগিত করা হয়েছে, অপরদিকে নৌবাহিনী এবং মেরিন ক্রপসের জন্য বরাদ্দ বিমানগুলোর জন্য ক্রয়াদেশে গতি আনা হয়েছে। তবে আসছে বছরগুলোতে সামরিক বাহিনীর তিনটি বিভাগ, বিমানবাহিনী, নৌবাহিনী ও মেরিন ক্রপসের জন্য মোট দুই হাজার ৪৫৭টি স্টিলথ জেট কেনার পরিকল্পনায় এখনও অটল আছে পেন্টাগন। ‘স্টিলথ’ যুদ্ধবিমান শত্রুর রাডার-ফাঁকি দিতে সক্ষম। উচ্চমূল্য সত্ত্বে¡ও বিশ্বের সব বিমানবাহিনী স্টিলথ যুদ্ধবিমান পেতে চায়। শনাক্তকরণ এড়ানোর ক্ষমতার কারণে বিমান যুদ্ধে এবং বোমাবর্ষণের সময় এগুলোর মাধ্যমে বড় ধরনের সুবিধা পাওয়ার কথা। আসছে বছরগুলোতে স্টিলথ প্রযুক্তিতে সজ্জিত জঙ্গীবিমান দিয়েই নিজেদের বিমানবহর সাজাতে চায় যুক্তরাষ্ট্র।