মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২১ আগস্ট ২০১৭, ৬ ভাদ্র ১৪২৪, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

সিয়াচেন হিমবাহে ১০ ভারতীয় সেনা নিখোঁজ, মৃত্যুর আশঙ্কা

প্রকাশিত : ৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৬, ০১:১৫ পি. এম.
সিয়াচেন হিমবাহে ১০ ভারতীয় সেনা নিখোঁজ, মৃত্যুর আশঙ্কা

অনলাইন ডেস্ক॥ ভারতনিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরের সিয়াচেন হিমবাহে তুষারধসের পর ১০ ভারতীয় সেনা নিখোঁজ হয়েছেন।

বিবিসি বলছে, তাদের জীবিত উদ্ধার করার সম্ভাবনা খুব কম বলে জানিয়েছে ভারতীয় সেনাবাহিনী।

ভারতীয় সেনাবাহিনীর এক মুখপাত্র জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় দিনের মতো তুষারধসের এলাকাটিতে তল্লাশি চালিয়েছে উদ্ধারকারীরা।

বুধবার সকালে পর্বতমালার অতি উচুঁতে হিমাবাহটির উত্তর পাশের সামরিক চৌকি তুষারধসে চাপা পড়ে।

ভারত-পাকিস্তান উভয়দেশের সেনারাই সিয়াচেন হিমবাহে টহল দেয়, উভয় দেশই হিমবাহটির উপর নিজেদেরে সার্বভৌম কর্তৃত্বের দাবিদার।

হিমবাহটি বিশ্বের সর্বোচ্চ যুদ্ধক্ষেত্র হিসেবে পরিচিত। গেল মাসেও একই এলাকায় তুষারধসে চার ভারতীয় সেনা নিহত হয়েছিলেন।

এক বিবৃতিতে ভারতীয় সেনাবাহিনীর উত্তরাঞ্চলীয় কমান্ডের প্রধান লে. জেনারেল ডিএস হোডা বলেছেন, ‘বর্তমানে ওই এলাকায় রাতে তাপমাত্রা মাইনাস ৪২ সেলসিয়াস পর্যন্ত নেমে যায় আর দিনে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা মাইনাস ২৯ সেলসিয়াস পর্যন্ত ওঠে।’

ডিএস হোডা আরও বলেন, ‘এ ধরনের বিরূপ আবহাওয়ায় ও স্বল্প অক্সিজেনের বায়ুমণ্ডলে জীবিতদের খুঁজে বের করার মতো সামর্থ্য আছে উদ্ধারকারী দলগুলোর। কিন্তু খুব দুঃখের সঙ্গে জানাতে হচ্ছে, জীবিত কাউকে খুঁজে পাওয়ার সম্ভাবনা এখন খুব ক্ষীণ হয়ে গেছে।’

তিনি বলেন, ‘এটি একটি শোচনীয় ঘটনা। আমরা সেই সব সেনাদের স্যালুট করি যারা আমাদের সীমান্ত পাহারা দেওয়ার দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে নিজেদের প্রাণ উৎসর্গ করতে বাধ্য হয়েছেন।

১৯৮৪ সালে হিমবাহটি ভারতীয় সেনাবাহিনীর নিয়ন্ত্রণে আসার পর থেকে যুদ্ধের চেয়ে বিরূপ আবহাওয়ার কারণেই বেশিরভাগ সেনার মৃত্যু হয়েছে। এখানে সমুদ্রসীমা থেকে ২২ হাজার ফুট উচ্চতা পর্যন্ত সেনা মোতায়েন করা আছে।

প্রকাশিত : ৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৬, ০১:১৫ পি. এম.

০৬/০২/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

বিদেশের খবর



শীর্ষ সংবাদ: