মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৪ আগস্ট ২০১৭, ৯ ভাদ্র ১৪২৪, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

মুন্সীগঞ্জে যৌতুকের জন্য গৃহবধূকে নিষ্ঠুর নির্যাতন

প্রকাশিত : ৫ ফেব্রুয়ারী ২০১৬

স্টাফ রিপোর্টার, মুন্সীগঞ্জ ॥ মুন্সীগঞ্জে যৌতুকের জন্য এবার এক পাষ- মধ্যযুগীয় স্ত্রীর গোপনাঙ্গ ব্লেড দিয়ে ক্ষতবিক্ষত করেছে। পুলিশ স্বামী সোহেল মোল্লাকে (৩২) গ্রেফতার করেছে। গৃহবধূকে মুমূর্ষু অবস্থায় ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বুধবার রাতে লৌহজং উপজেলার পশ্চিম গাঁওদিয়ায় ঘটে লোমহর্ষক এ ঘটনা।

দুই বছর পূর্বে ছত্রিশ গ্রামের আলী শিকদারের মেয়ে রাশিদাকে (২৭) ভালোবেসে বিয়ে করে পাশের পশ্চিম গাঁওদিয়া গ্রামের হাসেম মোল্লার ছেলে সোহেল মোল্লা। বেশ ভালই চলছিল তাদের সংসার। গত ৭ মাস আগে তাদের কোলজুড়ে আসে ফুটফুটে ছেলে সন্তান। এর পর থেকে রাশিদার সংসারে শুরু হয় অশান্তি।

কথায় কথায় রাশিদার ওপর স্বামী সোহেল আর তার ছোট ভাই রুবেল মারধর করে। সংসাবের ছোটখাটো বিষয় নিয়ে নির্যাতনের মাত্রা বেড়ে যায় রাশিদার ওপর। এ বিষয়ে একাধিকবার এলাকায় বিচার পর্যন্ত হয়েছে। গত এক মাস পূর্বে নির্যাতন সইতে না পেরে রাশিদা তার ৭ মাসের পুত্র সন্তান নিয়ে বাবার বাড়িতে চলে আসে। এর পর উভয় পক্ষের অভিভাবকরা বসে মীমাংসা করে দেন এবং সোহেল ও তার ভাই রুবেল অঙ্গীকার করেন তারা আর রাশিদাকে নির্যাতন করবে না। কিন্তু অঙ্গীকারের কথা ভুলে গিয়ে যৌতুকের জন্য রাশিদার ওপর অব্যাহতভাবে নির্যাতন চালিয়ে আসছিল তারা।

গত বুধবার রাত ১২টায় সোহেল বাইরে থেকে বাড়ি ফিরে গিয়ে দেখে রাশিদা ঘুমাচ্ছে। তাকে ঘুম থেকে ডেকে উঠিয়ে কোমল পানীয় খেতে দেয়। এরপর অচেতন হয়ে পড়ে রাশিদা। এ সুযোগে সোহেল ব্লেড দিয়ে রাশিদার গোপনাঙ্গের বিভিন্ন জায়গায় কেটে ক্ষতবিক্ষত করে। এ সময় রাশিদার গোঙানির শব্দ পেয়ে পাশের ঘরের লোকজন রাশিদাকে ডাকতে থাকে। কোন সারা শব্দ না পেয়ে দরজা খুলে ঘরে ঢুকে দেখে সারা বিছানা রক্ত দিয়ে মাখা। রাশিদার পাশেই শুয়ে আছে সোহেল। বাড়ির লোকজনের সহযোগিতায় প্রথমে রাশিদাকে লৌহজং স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখান থেকে জেলা শহরের জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে পাঠানো হয়। কিন্তু অবস্থা খারাপ দেখে চিকিৎসক তাকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করে। সেখানে অসহনীয় যন্ত্রণায় কাতরাচ্ছে এ গৃহবধূ। এ ঘটনায় লোকজন সোহেলকে আটক করে পুলিশের হাতে তুলে দেয়।

প্রকাশিত : ৫ ফেব্রুয়ারী ২০১৬

০৫/০২/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

দেশের খবর



শীর্ষ সংবাদ: