১৭ ডিসেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ২ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

আমতলীতে গৃহ পরিচালিকাকে নির্যাতনের অভিযোগে স্কুল শিক্ষিকা গ্রেফতার


আমতলীতে গৃহ পরিচালিকাকে নির্যাতনের অভিযোগে স্কুল শিক্ষিকা গ্রেফতার

নিজস্ব সংবাদদাতা, আমতলী (বরগুনা)॥ শিশু গৃহ পরিচালিকা কারিমাকে (৮) নির্যাতনের অভিযোগে আমতলী উপজেলার আড়পাঙ্গাশিয়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা তানিয়া আখতারকে বুধবার রাতে পুলিশ গ্রেফতার করেছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে জানাগেছে, বরগুনার পাথরঘাটা উপজেলার পদ্ধা গ্রামের মৃত ওয়াজেদ আলীর শিশু কন্যা কারিমা একমাস পুর্বে স্কুল শিক্ষিকা তানিয়া আখতারের বাড়ীতে ঝি এর কাজ নেয়। কাজ নেয়ার পর থেকে শিশুর উপর কারনে-অকারনে নির্যাতন শুরু করে। গত ১ ফ্রেরুয়ারী সকালে তানিয়ার শিশুকন্যা কান্না শুরু করলে সে ক্ষিপ্ত হয়ে হাতের বেলন (রুটি তৈরীতে ব্যবহার বেলন) দিয়ে বেধরক মারধর করে মুখমন্ডল থেতলে দেয়। কারিমার শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহৃ রয়েছে। কারিমা এ নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে বাসা থেকে পালিয়ে গ্রামের বাড়ী যাওয়ার উদ্দেশ্য আমতলী ফেড়ীঘাট অপেক্ষা করতে থাকে। ওইদিন সন্ধ্যায় ফেড়ীঘাটে আমতলী পৌর শহরের ৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোয়াজ্জেম হোসেন ফরহাদের মা হাফেজা বেগম শিশুটিকে কান্না করতে দেখে তার বাড়ীতে নিয়ে আসে। পরে মেয়েটির কাছ থেকে বিস্তারিত ঘটনা শুনে আমতলী থানায় সোপর্দ করে। কারিমার মামা পনু মিয়া আমতলী থানায় বাদী হয়ে শিশু নির্যাতন আইনের ৭০ ধারায় মামলা দায়ের করে। ওই রাতেই পুলিশ তানিয়াকে পৌরসভার সবুজবাগের ভাড়া বাসা থেকে গ্রেফতার করেছে। বৃহস্পতিবার পুলিশ শিক্ষিকা তানিয়াকে আমতলী সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে প্রেরন করেছে। আদালতের বিচারক বৈজয়ন্ত বিশ্বাস তানিয়াকে জেল হাজতে পাঠিয়েছেন।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: