১৭ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

যুক্তরাষ্ট্রে যৌন সংসর্গে জিকা সংক্রমণ


যুক্তরাষ্ট্রে ‘যৌন সংসর্গের’ মাধ্যমে জিকা ভাইরাস সংক্রমণের বিরল একটি ঘটনার খবর পাওয়া গেছে। সাধারণত এডিস মশার মাধ্যমে এই ভাইরাসটি ছড়ায়। টেক্সাস অঙ্গরাজ্যের ডালাসে জিকা ভাইরাসে সংক্রমিত একজন রোগীর সন্ধান পাওয়া গেছে। সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল (সিডিসি) জানিয়েছে, সম্ভবত যৌন সংসর্গের মাধ্যমে এই ভাইরাস সংক্রমিত হয়েছে। আক্রান্ত ব্যক্তি জিকা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব রয়েছে এমন কোন স্থানে ভ্রমণ করেননি। কিন্তু যার সঙ্গে তার যৌন সংসর্গ হয়েছে তিনি ভেনেজুয়েলা ভ্রমণ করে এসেছেন বলে জানা গেছে। অবশ্য যৌন সম্পর্কের মাধ্যমে জিকা সংক্রমণের ঘটনা এটিই প্রথম নয়। ২০১৩ সালেও এ ধরনের একটি সংক্রমণ ঘটেছিল বলে জানিয়েছে সিডিসি। এর আগে বিদেশ থেকে যারা এসেছেন তাদের মধ্যে জিকা ভাইরাস পাওয়া গেলেও এই প্রথম যুক্তরাষ্ট্রের অভ্যন্তরেই জিকা সংক্রমণের ঘটনা ঘটল। জিকা ভাইরাস মশার মাধ্যমে ছড়ায় এবং অস্বাভাবিক ছোট মাথার শিশু জন্মে এই ভাইরাসটি দায়ী হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এদিকে অস্ট্রেলিয়াতেও জিকা ভাইরাসে আক্রান্ত দুই রোগীর সন্ধান পাওয়া গেছে বলে খবর এসেছে। কর্মকর্তারা বলছেন, সিডনির দুই ব্যক্তির শরীরে এই ভাইরাসের অস্তিত্ব পাওয়া গেছে যারা সম্প্রতি ক্যারিবিয়ান অঞ্চল ভ্রমণ করে এসেছেন। জিকা ভাইরাস যদি যৌন সংসর্গের মাধ্যমে ছড়ানোর সুযোগ থাকে তবে তা বিশ্বের সব দেশের জন্যই হুমকি। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ বলছে, যৌন সংসর্গের মাধ্যমে এই ভাইরাস ছড়ানোর ঘটনা বিরল। অবশ্য গেল বছর তারা জানিয়েছিল, জিকা সংক্রান্ত যে কোন ঘটনাই বিরল। এতে আক্রান্তের সংখ্যা ৪০ লাখ। শুধু ব্রাজিলেই এই ভাইরাসের কারণে ৪০ হাজার শিশু বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী হয়ে জন্ম নিয়েছে। খবর বিবিসির।