মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২১ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ৬ আশ্বিন ১৪২৪, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

এখনও ক্ষুধা মরেনি মিসবাহর

প্রকাশিত : ২৩ ডিসেম্বর ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বয়স তেতাল্লিশের কোঠায় (মঙ্গলবার পর্যন্ত ৪২ বছর ২০৮ দিন)। অথচ এখনও ক্রিকেটের প্রতি ক্ষুধা কমেনি মিসবাহ-উল হকের। নিজেকে ফিট রাখতে যথাসম্ভব খেলার মধ্যে থাকতে চান পাকিস্তান টেস্ট অধিনায়ক। ঘরোয়া ম্যাচে এবং সম্ভব হলে ঐতিহ্যের ইংলিশ কাউন্টিতে (ইংল্যান্ড) খেলার মাধ্যমে সাদা পোশাকের আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ার আরও দীর্ঘায়িত করার আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন দেশটির জনপ্রিয় এই ক্রিকেটার। এজন্য নির্বাচকদেরও দৃষ্টি আকর্ষণ করেন তিনি। চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের বিপক্ষে বহু প্রতিক্ষীত দ্বিপক্ষীয় সিরিজটি কার্যত বাতিল। মিসবাহ তাই করাচী সুই নর্দান গ্যাস দলের হয়ে প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটে খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

আন্তর্জাতিক টি২০ ছেড়েছেন সেই ২০১২ সালে। গত বিশ্বকাপ খেলে তুলে রেখেছেন ওয়ানডের রঙিন পোশাক। এখন অধিনায়ক হিসেবে চালিয়ে যাচ্ছেন কেবল টেস্টে। দীর্ঘ পরিসরে দীর্ঘ বিরতির পর একেকটি সিরিজ। বয়সও অনুকূলে নয় তাই নিজেকে ফিট রাখতে খেলার মধ্যে থাকতে চান মিসবাহ। একই কারণে খেলে গেলেন ক’দিন আগে শেষ হওয়া বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগে (বিপিএল)। আপাতত এই ম্যাচগুলোর মধ্য দিয়েই নিজেকে নির্বাচকদের সামনে প্রমাণের সুযোগ রয়েছে বলে বিশ্বাস তার। পাকিস্তানের অভিজাত ঘারনার অধিনায়ক যেমন বলেন, ‘আমি টেস্ট ক্যারিয়ারের দিকে তাকিয়ে আছি। যদি মাঠে থাকি তবে অবশ্যই প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেটের মধ্যে থাকতে পারব। আর সে কারণেই মানসিকভাবেও আমি নিজেকে প্রস্তুত করে তুলতে পারব। বিশেষ করে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজে খেলার আশা করছি।’

আগামী বছর জুলাইয়ে চার ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে ইংল্যান্ড সফরে যাবে পাকিস্তান। কিন্তু এখনও সেই সফরের আগে যেহেতু বেশ কিছু সময় বাকি রয়েছে তাই মিসবাহ মনে করেন এই সময়ের মধ্যে নিজেকে মানসিক ও শারীরিকভাবে প্রস্তুত করে তোলাটা জরুরী। তারই ধারাবাহিকতায় ঘরোয়া ক্রিকেটের পাশপাশি ইংলিশ কাউন্টিতেও খেলার চেষ্টা করছেন বলে মিসবাহ ইঙ্গিত দিয়েছেন। ‘কাউন্টিতে খেলতে পারলে সেটা আসন্ন সিরিজে কাজে আসবে। কারণ এখন পর্যন্ত ইংল্যান্ডে টেস্ট খেলা হয়নি মিসবাহর, সে কারণেই ওখানকার কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নেয়ার জন্য কাউন্টি একটা ভাল উপায় হতে পারে।’

প্রকাশিত : ২৩ ডিসেম্বর ২০১৫

২৩/১২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


শীর্ষ সংবাদ: