১৮ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

হেনস্থার শিকার ।। শুভশ্রীর প্রতিবাদ


হেনস্থার শিকার ।। শুভশ্রীর প্রতিবাদ

সংস্কৃতি ডেস্ক ॥ বিশ্বের অন্যতম বৃহত্তর গণতান্ত্রিক দেশ ভারতে বিভিন্ন রকম হেনস্থা নতুন কিছু নয়। এবার এই হেনস্থার শিকার হলেন সর্বদা হাশিখুশি থাকা কলকাতার জনপ্রিয় চলচ্চিত্র অভিনেত্রী শুভশ্রী গঙ্গোপাধ্যায়। এমন খবর জানিয়েছে কলকাতার জনপ্রিয় একটি গণমাধ্যম। গণমাধ্যমটি জানায় পশ্বিম বঙ্গের আলিপুরদুয়ার জেলার স্থানীয় ফালাকাটা কলেজের বার্ষিক অনুষ্ঠানে এসে হেনস্থার মুখে পড়েন এই অভিনেত্রী। শনিবার সন্ধ্যায় এ ঘটনার পর মঞ্চেই বিষয়টি নিয়ে প্রতিবাদ জানিয়ে সাহসিকতা পরিচয় দেন তিনি। এর আগে একাধীক এ ধরণের ঘটনা ঘটলেও সম্মান রক্ষার্থে প্রতিবারই তা অস্বীকার করেছে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি। কিন্ত সাহসী শুভশ্রী মঞ্চে উঠে তাৎক্ষণিকভাবে এই ঘটনার প্রতিবাদ জানান। এ সময় মাইক হাতে উপস্থিত সবাইকে শুভশ্রী বলেন, আমি মেয়েদের বিশেষ করে বলতে চাই, ছেলেরা আমার সঙ্গে ভীষণ বাজে ব্যবহার করেছে। আমার সঙ্গে যে আচরণ করা হয়েছে তা কোনো মেয়ের সঙ্গে হওয়া উচিত নয়। এর জন্য আমার মানসিক অবস্থা ভাল নয়। এরপরই তিনি মঞ্চ থেকে নেমে চলে যান। পুলিশ তাকে গাড়িতে তুলে দেয়। বিষয়টি নিয়ে সাংবাদিকরা শুভশ্রীর সঙ্গে কথা বলতে চাইলে কোনো মন্তব্য করেননি তিনি।

গণমাধ্যমটি আরও জানায় তৃণমূল ছাত্র পরিষদ-পরিচালিত ছাত্র সংসদের বার্ষিক অনুষ্ঠানে এই ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় অস্বস্তিতে পড়ে শাসকদলের ছাত্র সংগঠন। অস্বস্তিতে রয়েছে কলেজ কর্তৃপক্ষও। প্রচুর পুলিশ মোতায়েন থাকা সত্ত্বেও কী করে টালিউডের নায়িকার সঙ্গে এমন হয়রানির ঘটনা ঘটল, তা নিয়ে প্রশ্নের মুখে পড়েছে পুলিশ-প্রশাসন। কলেজের বাৎসরিক অনুষ্ঠানে শুভশ্রী আসছেন বলে প্রচার চালায় তৃণমূল ছাত্র পরিষদ-পরিচালিত ছাত্র সংসদ। ওইদন দুপুর থেকে ভিড় বাড়তে থাকে কলেজ মাঠে। দুপুর থেকে চলছিল সঙ্গীতানুষ্ঠান। সকলে শুভশ্রীর অপেক্ষায় ছিলেন। সে জন্য উল্লেখ্যযোগ্য সংখক পুলিশ মোতায়ন করা হয়। বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে শুভশ্রীর গাড়ি কলেজে পৌঁছাতে একদল যুবক তাকে ঘিরে ধরে। এ সময় কয়েকজন যুবক শুভশ্রীর শরীরে হাত দেয়। তাদের মধ্যে একজন যুবককে থাপ্পর দেন শুভশ্রী। পরে পুলিশ ও কলেজের শিক্ষকরা শুভশ্রীকে সেখান থেকে বের করে নিয়ে যান। শুভশ্রী সরাসরি মঞ্চে গিয়েই বিষয়টি নিয়ে ক্ষোভে ফেটে পড়েন।

এদিকে এ ঘটনার জন্য বহিরাগতদের উপর দায় চাপাচ্ছেন ছাত্র সংসদ। ফালাকাটা কলেজের ছাত্র সংসদের সাধারণ সম্পাদক অনন্ত সরকার বলেন, শুভশ্রীর উপর যা হয়েছে তা অত্যন্ত নিন্দনীয় ঘটনা। এটা মানা যায় না। যারা এই কান্ড ঘটিয়েছে, তারা বহিরাগত। আমরা তাদের চিহ্নিত করছি।

শুভশ্রী চলে যাওয়ার পর ফালাকাটার ব্লক যুব তৃণমূল সভাপতি সঞ্জয় দাস মঞ্চে উঠে ক্ষমা চান। তিনি বলেন, আমি ঘটনার পরে ওনার কাছে ক্ষমা চেয়েছি। আমার অনুরোধেই উনি মঞ্চে উঠেছিলেন। যা হয়েছে এতে আমরা দুঃখিত। বহিরাগতরাই এটা করেছে। এ ঘটনায় পুলিশের কাছে কেউ অভিযোগ করেনি বলে জানিয়েছে, জয়গাঁর এসডিপিও পার্থসারথি মজুমদার। তিনি বলেন, নায়িকাকে কাছ থেকে দেখতে হুড়োহুড়ি পড়ে যায়। এ সময় অনাকাঙ্খিত ঘটনাটি ঘটে। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। কলেজের অধ্যক্ষ হীরেন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য বলেন, যা হয়েছে তা কাম্য নয়। অনেক বহিরাগত কলেজের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিল। যা ঘটেছে তা কলেজের পক্ষে ভালো হয়নি।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: