২৫ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ২ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

ভৈরবে দুই প্রার্থীর লড়াই জমে উঠছে


নিজস্ব সংবাদদাতা, ভৈরব, ১৯ ডিসেম্বর ॥ নির্বাচনী মাঠে জমেছে নৌকা-ধানের শীষের লড়াই। পৌষের শীতল হাওয়া উপেক্ষা করে জমজমাট প্রচার চলছে পৌর এলাকায়। নির্বাচনী উৎসব বিরাজ করছে পৌরসভার হাট-বাজারে। প্রথমবারের মতো পৌরসভার মেয়র পদে দলীয় প্রতীকে নির্বাচন অনেকটা জাতীয় নির্বাচনে রূপ নিয়েছে। প্রার্থীর ব্যক্তি ইমেজের চেয়ে দলীয় প্রতীকই বেশি গুরুত্ব পাচ্ছে। দুই দলের লড়াইয়ে মূল অস্ত্র দলীয় প্রতীক নৌকা-ধানের শীষ।

এ নির্বাচন আওয়ামী লীগের মর্যাদার লড়াই আর বিএনপির জন্য মরণ কামড় হিসেবে দেখছেন বিশেষজ্ঞরা। চায়ের আড্ডা থেকে রাজপথ, সর্বত্র চলছে নির্বাচনী আলাপ-আলোচনা। চুলচেরা নিশ্লেষণ হচ্ছে নির্বাচনের ফল নিয়ে। বিজয় উৎসব করবে কারা- আওয়ামী লীগ নাকি বিএনপি? তবে জয়ের স্বপ্ন নিয়ে নির্বাচনী মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন দুই দলের প্রার্থীই। এদিকে বিজয় ছিনিয়ে আনতে রাত-দিন একাকার করে ভোট প্রার্থনায় মানুষের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন প্রার্থীরা। উন্নয়নের আশ্বাস আর স্বপ্নজাগানিয়া কথার ফুলঝুরি নিয়ে ভোটারদের মুখোমুখি হচ্ছেন আওয়ামী লীগ-বিএনপিসহ স্বতন্ত্র প্রার্থীরা। নির্বাচনী বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন দীর্ঘ সাত বছর পরে প্রধান দুই দল আওয়ামী লীগ-বিএনপির প্রতীক নৌকা-ধানের শীষ নিয়ে নির্বাচনী লড়াইয়ে নেমেছেন পৌরসভার মেয়র প্রার্থীরা। শীতের কুয়াশা উপেক্ষা করে ভৈরবে পৌর নির্বাচনে প্রার্থীরা উঠান বৈঠক, গণসংযোগসহ উন্নয়নের নানা প্রতিশ্রুতি নিয়ে সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত ব্যস্ত সময় পার করছেন। ভোটারদের দ্বারে দ্বারে ভোট প্রার্থনাসহ তাদের মন জয় করতে দিচ্ছেন উন্নয়নের নানা প্রতিশ্রুতি। ভৈরবে নিবাচর্নী উৎসবের আমেজ বইতে শুরু করেছে প্রতিটি পাড়া-মহলা-হোটেল রেস্তরাঁসহ সব জায়গায় ভোটারদের উৎসাহের কমতি নেই। এ নিয়ে যেন ভোটারদের মাঝে উদ্দীপনার ও কমতি নেই । ভৈরবে আওয়ামী লীগ প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ২ বারের বিজয়ী প্রার্থী সাবেক মেয়র ফখরুল আলম আক্কাছ এবং বিএনপি প্রার্থী বর্তমান মেয়র হাজী মোঃ শাহিন।