মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১০ আশ্বিন ১৪২৪, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

জিএসপি ফিরিয়ে দিতে মার্কিন সরকারের প্রতি রওশনের আহ্বান

প্রকাশিত : ১৪ ডিসেম্বর ২০১৫, ০৪:৪৬ পি. এম.
জিএসপি ফিরিয়ে দিতে মার্কিন সরকারের প্রতি রওশনের আহ্বান

স্টাফ রিপোর্টার ॥ বিরোধীদলীয় নেতা রওশন এরশাদ এম.পি বলেন, জিএসপি সুবিধা ফিরে পেতে দুই বছর আগে যুক্তরাষ্ট্র যে ১৬ টি শর্ত দিয়েছিল, তার প্রায় সবগুলোই বাংলাদেশ পূরণ করেছে। এই প্রেক্ষাপটে জিএসপি সুবিধা ফিরে পাওয়া বাংলাদেশের এখন ন্যায্য দাবি। তিনি দ্রুত বাংলাদেশে জিএসপি ফিরিয়ে দিতে মার্কিন সরকারের প্রতি আহ্বান জানান।

সোমবার বিরোধীদলীয় নেতার সঙ্গে তাঁর বাসভবনে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের রাজনৈতিক বিষয়ক আন্ডার সেক্রেটারি থমাস এ. শ্যাননের সাক্ষাতকালে রওশন এ আহ্বান জানান।

সাক্ষাতে বিরোধীদলীয় নেতা আরো বলেন, বাংলাদেশ ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র দীর্ঘদিনের পরিক্ষিত বন্ধু। আর এ ক্ষেত্রে বাংলাদেশ ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র একসাথে কাজ করে আরো এগিয়ে যেতে চায়। তিনি বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে যুক্তরাষ্ট্রকে আরও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখার আহ্বান জানান।

জলবায়ু পরিবর্তন ইস্যু প্রসঙ্গে বিরোধীদলীয় নেতা বলেন, বাংলাদেশ প্রতিবছর জলবায়ুর পরির্বতনে ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে আর ক্ষতির হাত থেকে বাংলাদেশসহ ঝুঁকিপূর্ণ দেশগুলোকে রক্ষার জন্য দরকার সম্প্রতি প্যারিসে অনুষ্ঠিত জলবায়ু সম্মেলনের ঐতিহাসিক চুক্তির পরিপূর্ণ বাস্তবায়ন। বাংলাদেশ নিম্ন কার্বন ও জলবায়ু সহনশীল পর্যায়ে রাখতে কাজ করে যাচ্ছে। আর এ ক্ষেত্রে উন্নত দেশগুলোর সহযোগিতা কামনা করেন তিনি।

এক প্রশ্নের উত্তরে থমাস শ্যানন বলেন, যুক্তরাষ্ট্র সরকার বাংলাদেশের সঙ্গে জিএসপি সমস্যা সমাধানের জন্য আন্তরিক। এছাড়া বৈশ্বিক উষ্ণতা বৃদ্ধি রোধে যুক্তরাষ্ট্র কাজ করে যাচ্ছে বলে অভিমত প্রকাশ করেন তিনি। তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশ ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পারস্পরিক সহযোগিতা আরও উত্তরোত্তর বৃদ্ধির জন্য তাঁর সরকার কাজ করে যাচ্ছে।

সাক্ষাৎকালে আরও উপস্থিত ছিলেন ফখরুল ইমাম এমপি, বিরোধীদলীয় হুইপ সেলিম উদ্দীন এমপি, রওশন আরা মান্নান এমপি, দক্ষিণ এশিয়াবিষয়ক উপ-সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী মনপ্রিত সিং আনন্দ, বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত মার্সিয়া স্টিফেন্স ব্লুম বার্নিকাট প্রমুখ।

প্রকাশিত : ১৪ ডিসেম্বর ২০১৫, ০৪:৪৬ পি. এম.

১৪/১২/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

জাতীয়



শীর্ষ সংবাদ: