১৯ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই ঘন্টায়  
Login   Register        
ADS

ফাহমিনা স্বামী হত্যার দায় স্বীকার করে জবানবন্দি দিয়েছে


ফাহমিনা স্বামী হত্যার দায় স্বীকার করে জবানবন্দি দিয়েছে

নিজস্ব সংবাদদাতা,পার্বতীপুর॥ পার্বতীপুরে চাঞ্চল্যকর পরিকল্পিত হত্যাকান্ডের ঘাতক মানিকচন্দ্রকে (৩৫) পার্বতীপুর মডেল থানায় একদিনের রিমান্ডে আনা হয়েছে। থানার ওসি মাহমুদুল আলম জানান, জিঙ্গাসাবাদের জন্য ৭ দিনের রিমান্ড আবেদনের প্রেক্ষিতে আদালত তার একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। আসামীকে সোমবার বিকেলে আনা হয়েছে। জিঙ্গাসাবাদ চলবে মঙ্গলবার পর্যন্ত। অপর দিকে ইতোমধ্যেই ফাহমিনা আদালতে স্বামী হত্যার দায় স্বীকার করেছে। গ্রেফতার হওয়ার পর পার্বতীপুর মডেল থানায় ১৬১ কার্য বিধিতে জবানবন্দী দেওয়ার পর দিনাজপুরের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আমলী আদালত-৫ এ ম্যাজিষ্ট্রেট কৃষœ কমল রায়ের নিকট গত ২৭ অক্টোবর মঙ্গলবার স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দীতে বলেছেন,আমি মানিকচন্দ্র (৩৫) নামে এক যুবকের প্রেমে পড়ি। এতে বাধা হয়ে দাড়ায় স্বামী ও পরিবারের সদস্যরা। এনিয়ে পারিবারিকভাবে বহুবার বিচার-শালিশ হলেও আমি প্রেমিককে ছাড়তে রাজী হইনি। এরপর রোস্তমনগর মহল্যার বাসা-বাড়ী আমার নামে লিখে দিতে স্বামীকে চাপ দিলে লিখে দেওয়ার কথা বলে আমার সাথে প্রতারনা করা হয়। সবমিলে পথের কাটা দূর করতে পরিকল্পনা অনুযায়ী গত রবিবার(২৫ অক্টোবর) রাত ১১ টায় মোবাইল ফোনে ভোর ৪টার দিকে মানিককে বাসায় আসতে বলি । মানিক আসলে ঘন্টাখানেকের মধ্যে সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করে ফজরের নামাজ শেষে স্বামী যখন তসবি জপছিল সেই মূহুর্তে তার শয়নকক্ষে ঢুকে তাকে কোনকিছু বলার সুযোগ না দিয়ে আমি ও মানিক মিলে গলায় রশি দিয়ে শ্বাসরোধ করে তাকে হত্যা করি। লাশ ফাঁসিতে ঝুলার চেষ্টা করা হয়। তবে এসময় মহল্যার লোকজন জেগে উঠায় তা সম্ভব হয়নি। বলেছেন আমি রাগে এ কাজ করেছি। ভূল করেছি।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: