২০ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

বিএমবিএর নির্বাচন ২৩ জানুয়ারি


অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ বাংলাদেশ মার্চেন্ট ব্যাংকার্স এসোসিয়েশনের (বিএমবিএ) নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে আগামী ২৩ জানুয়ারি। ওই দিন সকাল ১১ টা হতে দুপুর ১২ টা ৩০ মিনিট পর্যন্ত ভোট গ্রহণ চলবে। বিএমবিএর নির্বাচন সংক্রান্ত কমিশন এ দিন ঘোষণা করেছে। তবে ওই দিন কোথায় নির্বাচন করা হবে তা এখনো ঠিক করেনি কমিশন। পরবর্তীতে নির্বাচন কেন্দ্র কোথায় জানানো হবে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, তিন সদস্য বিশিষ্ট এ কমিশনের চেয়ারম্যান করা হয়েছে পিএলএফএস ইনভেষ্টমেন্ট লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা নৃপেন্দ্র চন্দ্র পণ্ডিতকে। আর বাকী দুই সদস্য হলেন - বিডি ফিন্যান্স ক্যাপিটাল হোল্ডিংসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ আহসান উল্লাহ ও রয়েল গ্রিন ক্যাপিটাল মার্কেটের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো: শাহ্ আলম।

জানা গেছে, অক্টোবর মাসে বিএমবিএর নির্বাহী পর্ষদের বৈঠকে নির্বাচন পরিচালনা সংক্রান্ত কমিশন গঠন করা হয়। পরবর্তীতে কমিশন ২ নবেম্বর নির্বাচনী তফসিল ঘোষণা করে। তফসিল অনুযায়ী আগামী ২৩ নবেম্বরের মধ্যে বকেয়া চাঁদাসহ অন্যান্য পাওনা পরিশোধের জন্য অনুরোধ করা হয়।

আগামী ৩০ অক্টোবর প্রাথমিক ভোটার তালিকা প্রকাশ, ৩ ডিসেম্বর ভোটার তালিকা সংক্রান্ত আপত্তি গ্রহণ, ৭ ডিসেম্বর শুনানি গ্রহণ, ১০ ডিসেম্বর চূড়ান্ত ভোটার তালিকা প্রকাশ, ১৩ ডিসেম্বর কার্যনির্বাহী সদস্য পদের মনোনয়ন পত্র বিতরণ, ২১ ডিসেম্বর মনোনয়ন পত্র জমা দেওয়ার শেষ দিন, ২২ ডিসেম্বর বৈধ প্রার্থীদের তালিকা প্রকাশ, ২৩ ডিসেম্বর মনোনয়ন পত্র বাতিল সংক্রান্ত আপত্তি গ্রহণের দিন ধার্য করা হয়েছে।

এদিকে আগামী ২৭ ডিসেম্বর এ সংক্রান্ত শুনানি গ্রহণ, ২৮ ডিসেম্বর বৈধ প্রার্থীদের তালিকা প্রকাশ, ৩০ ডিসেম্বর প্রার্থীতা প্রত্যাহারের শেষ দিন এবং ৩০ ডিসেম্বর প্রার্থীদের চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করা হবে। এর পর আগামী ২৩ জানুয়ারী সকাল ১১ টা হতে বিরতিহীনভাবে দুপুর ১২ টা ৩০ মিনিট পর্যন্ত ভোট গ্রহণ করা হবে। ওই দিনই নির্বাচিত সদস্যরা ভোট দিয়ে নির্বাহী পর্ষদের সদস্যদেরকে নির্বাচিত করবেন।

নির্বাচনের বিষয়ে কমিশনের সদস্য মোহাম্মদ আহসান উল্লাহ বলেন, বিএমবিএর নির্বাচন; এটি একটি চলমান প্রক্রিয়া। প্রতি দুই বছর পরপর আমাদের এ নির্বাচন হয়। তিনি আরও বলেন, এ নির্বাচনের মাধমে নতুন নেতৃত্ব বেছে নেন সদস্যরা। পরবর্তী দুই বছর এই কমিটি কাজ করে। নতুন সদস্যরা আসেলে অ্যাসোসিয়েশনরে কাজের গতী পায়। নতুন শক্তি নিয়ে তারা পুঁজিবাজারের স্বার্থে বিভিন্ন স্টেইকহোল্ডারদের সাথে পরামর্শ করে কাজ করে।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: