২০ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট পূর্বের ঘন্টায়  
Login   Register        
ADS

দক্ষিণ চীন সাগরে যুক্তরাষ্ট্রকে চ্যালেঞ্জ চীনের


বেজিংয়ের তরফে স্পষ্টই জানিয়ে দেয়া হলো, আমেরিকার বিরুদ্ধে যে কোন সময়ে যে কোন রকম যুদ্ধের জন্য প্রস্তুত রয়েছে চীন। দক্ষিণ চীন সাগরে বেজিংয়ের বানানো কৃত্রিম দ্বীপপুঞ্জে মার্কিন রণতরী ঢুকে পড়লেও তাতে আদৌ ভয় পাচ্ছে না চীন। বেজিংয়ের তরফে বুঝিয়ে দেয়া হলো, আগ বাড়িয়ে যুদ্ধে নামার ইচ্ছা না-থাকলেও, ওয়াশিংটন এভাবে উস্কানি দিতে চাইলে, আমেরিকার বিরুদ্ধে যুদ্ধে নামার জন্য তৈরি রয়েছে চীন।

কোন চীনা কূটনীতিক বা বেজিংয়ে চিনা কমিউনিস্ট পার্টির সদর দফতরের কোন প্রথম সারির নেতা এ কথা না বললেও, বেজিংয়ের সরকার পরিচালিত সংবাদপত্র ‘গ্লোবাল টাইমস’-এর সম্পাদকীয়তে আজ এই কথাই লেখা হয়েছে।

যেন যুদ্ধই লেগে গিয়েছে দক্ষিণ চীন সাগরে!

বেজিংয়ের বানানো কৃত্রিম দ্বীপপুঞ্জে আরও মার্কিন ডেস্ট্রয়ার পাঠানো হচ্ছে বলে বুধবার জানিয়েছিল পেন্টাগন। বলা হয়েছিল, ওই মার্কিন ডেস্ট্রয়ারগুলোতে রাখা হচ্ছে টহলদারী বিমান। যেগুলো ওই ডেস্ট্রয়ারগুলো থেকে উড়ে গিয়ে দক্ষিণ চীন সাগরে বেজিংয়ের বানানো কৃত্রিম দ্বীপপুঞ্জে সুবি ও মিসচিফ রিজের মাঝামাঝি ও লাগোয়া এলাকাগুলোর ওপর নজরদারি চালাবে। যেহেতু চীন ওই এলাকায় মার্কিন রণতরী ‘ইউএসএস-ল্যাসেন’ ঢুকে পড়ার পর আরও নৌবহর পাঠানো শুরু করেছে।