২২ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

ডিসেম্বর মাসে বিনামূল্যে স্তন ক্যান্সার পরীক্ষা ॥ স্বাস্থ্যমন্ত্রী


স্টাফ রিপোর্টার ॥ সরকার প্রতিবছর ডিসেম্বর মাসে সারাদেশের সরকারী হাসপাতালে বিনামূল্যে স্তন ক্যান্সার শনাক্তের সেবা দেবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। তিনি বলেন, পশ্চিমাদেশগুলোর তুলনায় বাংলাদেশী নারী কম বয়সে স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত হচ্ছে। তাই আমরা মহান বিজয়ের মাসে সকল সরকারী হাসপাতালে বিনামূল্যে স্তন ক্যান্সার পরীক্ষা ব্যবস্থা করব।

শুক্রবার সকালে রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে বাংলাদেশ ব্রেস্ট ক্যান্সার কনফারেন্স-২০১৫’র উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্বাস্থ্যমন্ত্রী এ কথা বলেন। স্তন ক্যান্সার বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টি এবং চিকিৎসকদের কর্মকৌশল নিয়ে দিব্যাপী এই সম্মেলনের আয়োজন করে ক্যান্সার চিকিৎসক ও সোসাইটি অব সার্জন। বাংলাদেশ ব্রেস্ট ক্যান্সার কনফারেন্সের সভাপতি অধ্যাপক ডাঃ কামরুজ্জামান চৌধুরীর সভাপতিত্বে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডাঃ দীন মোহাম্মদ নুরুল হক, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অনকোলজিস্ট সোসাইটির সহ-সভাপতি রিচার্ড লাভ বক্তব্য রাখেন। মোহাম্মদ নাসিম বলেন, ক্যান্সার আক্রান্ত রোগীর ২৫ শতাংশই স্তন ক্যান্সারে আক্রান্ত। আমরা পোলিওমুক্ত হয়েছি। বাংলাদেশকে স্তন ক্যান্সারও মুক্ত করতে হবে। এক্ষেত্রে সচেতনতার কোন বিকল্প নেই। সঠিক সময়ে সঠিক চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ জীবন পাওয়া সম্ভব। এ জন্য আমাদের সবাইকে জনসচেতনতা সৃষ্টি করতে হবে।

বেসরকারী হাসপাতাল মালিকদের উদ্দেশে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, আপনারা আপনাদের হাসপাতাল থেকে মুনাফা কম করেন। কম পয়সায় সেবা দিলে সরকারী ব্যবস্থাপনা এগিয়ে নেয়া যাবে। ক’জন চিকিৎসক বিনামূল্যে চিকিৎসা দেন? তারা যদি সদয় হন, মমত্ববোধ দেখান; তাহলে অনেক রোগীই উপযুক্ত সেবা পাবেন। কারণ, সরকারের একার পক্ষে সব কিছু করা সম্ভব নয়। তাই সরকারের পাশাপাশি বেসরকারী উদ্যোক্তাদের এগিয়ে আসতে হবে।

স্তন ক্যান্সার রোধে সচেতনতা বাড়াতে দিনব্যাপী এ সম্মেলনে দেশ-বিদেশের সংশ্লিষ্ট চিকিৎসকরা রোগীদের নানাদিক নিয়ে নিজেদের অভিজ্ঞতা বিনিময় করেন। বাংলাদেশ ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ছাড়াও ভারত, সিঙ্গাপুর এবং পিলিপিন্সের স্বনামধন্য চিকিৎসকরা এতে অংশ নেন। স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমের নেতৃত্বে র‌্যালিতে মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সাবেক উপদেষ্টা ড. হোসেন জিল্লুর রহমান প্রমুখ অংশ নেন।