১৯ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

ভ্যাকসিন নেই ॥ খুরারোগে ২৯ গরুর মৃত্যু


নিজস্ব সংবাদদাতা, ঠাকুরগাঁও, ৩০ অক্টোবর ॥ জেলার পীরগঞ্জ উপজেলায় খুরারোগে আক্রান্ত হয়ে গত এক মাসে ২৯টি গরু মারা গেছে এবং আরও সহস্রাধিক গরু আক্রান্ত হয়েছে।

জানা যায়, পীরগঞ্জ পৌরসভার তাজপুর ও মিত্রবাটি, পীরগঞ্জ উপজেলার সদর ইউনিয়নের ভাকুড়া বিলপাড়া, নারায়ণপুর ও ক্ষিদ্রগড়গাঁও, দৌলতপুর ইউনিয়নের মলিকপুর হাজিপাড়া, মলিকপুর ভুষিপাড়া ও বলাইহাট, হাজিপুর ইউনিয়নের সাটিয়া, ভোমরাদহ ইউনিয়নের ভোমরাদহ ও গাজীপাড়া, খনগাঁও ইউনিয়নের খনগাঁও ও বসির মাস্টারপাড়া, জাবহাটের হাটপাড়াসহ ১৫-১৬টি গ্রামে এক মাসে ২৯টি গরু খুরারোগে মারা গেছে। এ ঘটনায় এলাকার মানুষের মাঝে আতঙ্ক দেখা দিয়েছে।

তাজপুর গ্রামের নলিনী মোহন্ত বলেন, হঠাৎ করে তার তিনটি গরুর মুখে ছোট আকারে ঘা দেখা দেয়। ২-১ দিন যেতে না যেতেই সেই ঘা বড় আকার ধারণ করে এবং একটি গরু মারা যায়। বাকি দুটো গরু নিয়ে দুশ্চিন্তায় আছি।

সাটিয়া গ্রামের রফিকুল ইসলাম বলেন, মুখে ঘায়ের কারণে ৮-১০ দিন থেকে আমার তিনটি গরু কিছু খেতে পারছে না। সব সময় গরুর গায়ে জ্বর লেগেই আছে।

মল্লিকপুর গ্রামের জয়নন্দ রায় বলেন, প্রাণিসম্পদ অফিস থেকে খুরারোগের ওষুধ সরবরাহ করা হয় না। আর ওষুধ না পাওয়ায় তাদের গরু মারা যাচ্ছে।

এ ব্যাপারে পীরগঞ্জ উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা আবুল কালাম আজাদ বলেন, উপজেলায় এক লাখ গরু, তিন হাজার মহিষ ও এক লাখ ১৬ হাজার ছাগল রয়েছে। প্রয়োজনের তুলনায় খুরারোগের ভ্যাকসিনের সরবরাহ কম। আর এ কারণে খুরারোগের ভ্যাকসিন সরবরাহ দেয়া সম্ভব হচ্ছে না।