২১ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৩ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

রাঙ্গুনিয়ায় চাচা ভাতিজার সলিল সমাধি


নিজস্ব সংবাদদাতা, রাঙ্গুনিয়া, ২৫ অক্টোবর ॥ রাঙ্গুনিয়া উপজেলার চন্দ্রঘোনা ফেরিঘাটে কর্ণফুলী নদীতে সড়ক ও জনপথ (সওজ) বিভাগের পরিত্যক্ত পন্টুনে মাছ ধরতে গিয়ে চাচা মাহবুব আলম (৩৫), ভাতিজা জুয়েল (১২) মৃত্যু হয়েছে। শনিবার সকালে কর্ণফুলী নদীতে চাচা-ভাতিজা মাছ শিকারে যায়। জানা যায়, উপজেলার চন্দ্রঘোনা ফেরিঘাট এলাকার আব্দুর রউফ এর পুত্র মাহবুব আলম ও শাহ আলমের পুত্র ৪র্থ শ্রেণী পড়ুয়া ছাত্র জুয়েল চাচা-ভাতিজা সকালে কর্ণফুলী নদীতে মাছ শিকারে যায়। বিকেলে ফিরে না আসায় পরিবারের সদস্যরা দু’জনকে খোঁজাখুঁজি শুরু করে। পরে স্থানীয় এলাকাবাসীর তথ্যের ভিত্তিতে নদীর পাড়ে ফেরিঘাটে পরিত্যক্ত পন্টুনের ভিতর মানুষের পদচিহৃ দেখতে পাওয়া যায়। পন্টুনের ভেতর বিশেষ কামরায় মাছের খাদ রয়েছে বলে স্থানীয়রা দাবি করেন। স্থানীয়রা প্রায়ই সময় পন্টুনে ভিতর প্রবেশ করে মাছ ধরে। সকালে কর্ণফুলী নদীতে ভাটা থাকায় পন্টুনে পানি কম ছিল। চাচা-ভাতিজা পন্টুনের বিশেষ কামরায় মাছ ধরতে যেতে পারে বলে স্থানীয়রা জানালে সন্ধ্যায় পুলিশ পন্টুনের একটি পাটাতন ভেঙ্গে বিশেষ কামরা থেকে ভাতিজা জুয়েলের লাশ উদ্ধার করে।