২০ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৩ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

গাজীপুরে পৃথক ঘটনায় বিলের পানিতে ডুকে ৪জন নিহত


নিজস্ব সংবাদদাতা, গাজীপুর ॥ গাজীপুরের কাপাসিয়া ও শ্রীপুরে পৃথক ঘটনায় বিলের পানিতে ডুবে তিন শিশুসহ ৪ জন নিহত হয়েছে।

এলাকাবাসী ও নিহতের স্বজনরা জানায়, সোমবার সকালে গাজীপুরের কাপাসিয়া উপজেলার মহিষাদামনা এলাকার আছমত আলী আকন্দের ছেলে তামীম (সাড়ে তিন) ও একই এলাকার মামুন মিয়া আকন্দের মেয়ে সোহানা (৪) অন্য শিশুদের সঙ্গে বাড়ির পাশে খেলা করছিল। খেলা করার সময় ওই দুই শিশু পার্শ্ববর্তী বিলে পড়ে পানিতে তলিয়ে যায়। এসময় অন্য শিশুদের চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে এসে তাদের উদ্ধার করে গাজীপুরের শহীদ তাজ উদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক ওই দু’শিশুকে মৃত ঘোষণা করেন। নিহত শিশুরা সম্পর্কে চাচা-ভাতিজি। একই বাড়ির দুটি শিশু পানিতে ডুবে নিহতের ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে।

এদিকে একইদিন দুপুরে খেলা করার সময় শ্রীপুর উপজেলার ভাওয়াল রাজাবাড়ী গ্রামের সিরাজুল ইসলামের ছেলে শিপন (৫) বাড়ির পাশের বিলে পড়ে পানিতে তলিয়ে যায়। বাড়ির লোকজন তাকে উদ্ধার করে দুপুর আড়াইটার দিকে গাজীপুরের শহীদ তাজ উদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন বলে ওই হাসপাতালের জরুরী বিভাগের চিকিৎসক ডা. ফারজানা জানিয়েছেন।

এছাড়াও শ্রীপুর উপজেলার প্রহলাদপুর ইউনিয়নের বাসুদেবপুর নানাইয়া গ্রামের সোদী প্রবাসী মাসুম হোসেনের মেয়ে নীলা আক্তার (১৪) রবিবার বিকেলে চাচাতো বোন ইলাসহ অন্যদের সঙ্গে বাড়ির পার্শ্ববর্তী পারুলী নদীর বিলে নৌকায় চড়ে বেড়াতে যায়। নীলা স্থানীয় নানাইয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেণীর ছাত্রী। তারা বিলে ঘুরে বেড়ানোর সময় চার আরোহীসহ হঠাৎ নৌকাটি উল্টে যায়। এসময় অন্যরা সাঁতরে পাড়ে উঠে এলেও নীলা বিলের পানিতে তলিয়ে যায়। তাদের চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে এসে নীলাকে উদ্ধার করে সন্ধ্যায় গাজীপুরের শহীদ তাজ উদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন বলে তার চাচাতো ভাই জহিরুল ইসলাম জানায়।