মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ৯ আশ্বিন ১৪২৪, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

বরিশালে কলেজ ছাত্রীকে অপহরনের চেষ্ঠা ॥ গণধোলাই

প্রকাশিত : ৭ সেপ্টেম্বর ২০১৫, ০৪:২৫ পি. এম.

স্টাফ রিপোর্টার, বরিশাল ॥ দ্বিতীয় দফায় কলেজ ছাত্রীকে অপহরনের চেষ্ঠাকালে স্থানীয়রা এক বখাটেকে আটক করে গণধোলাই দিয়ে পুলিশের কাছে সোর্পদ করেছে। সোমবার দুপুরে আটককৃতকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়। ঘটনাটি ঘটেছে জেলার আগৈলঝাড়া উপজেলার দত্তেরাবাদ গ্রামে।

জানা গেছে, গৌরনদীর মাহিলাড়া ডিগ্রি কলেজের দ্বাদশ শ্রেনীর ছাত্রী ও দত্তেরাবাদ গ্রামের মনিরুল ইসলামের কন্যা নাসরিন আক্তারকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে ব্যর্থ হয়ে ২০১৩ সালের ২১ আগস্ট কৌশলে অপহরণ করে পাশ্ববর্তী ছয়গ্রাম এলাকার মৃত হোসেন আকনের পুত্র রবিউল আকন। পরবর্তীতে ওই কলেজ ছাত্রীর অশ্লীল ছবি তুলে বখাটে রবিউল সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে পোস্ট করে। পুলিশ কৌশলে অপহৃতাকে উদ্ধার করলেও রবিউল পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়। সেই থেকে বখাটে রবিউল পলাতক ছিলো। ওই ঘটনায় কলেজ ছাত্রী বাদি হয়ে আদালতে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেন। আদালত ওই মামলায় রবিউলের বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা জারি করে। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে রবিবার দুপুরে কলেজ থেকে বাড়ি ফেরার পথিমধ্যে রবিউল তার সহযোগীদের নিয়ে পূর্ণরায় কলেজ ছাত্রীকে অপহরনের চেষ্ঠা করে। এসময় তার (নাসরিন) ডাকচিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে আসলে বখাটেরা পালিয়ে যায়। ওইদিন বিকেলে বখাটেরা নাসরিনের বাড়ি সংলগ্নস্থান থেকে জোড়পূর্বক তুলে নেয়ার চেষ্ঠাকালে স্থানীয়রা ধাওয়া করে বখাটে রবিউলকে আটক করে গণধোলাই দেয়। খবর পেয়ে গৌরনদী থানা পুলিশ আটককৃত বখাটে রবিউলকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। সোমবার সকালে তাকে (রবিউল) আগৈলঝাড়া থানায় সোর্পদ করা হয়।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে আগৈলঝাড়া থানার ওসি মো. মনিরুল ইসলাম বলেন, আদালতের জারিকৃত গ্রেফতারী পরোয়ানায় তাকে (রবিউলকে) গ্রেফতার দেখিয়ে সোমবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়।

প্রকাশিত : ৭ সেপ্টেম্বর ২০১৫, ০৪:২৫ পি. এম.

০৭/০৯/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


শীর্ষ সংবাদ: