মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২১ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ৬ আশ্বিন ১৪২৪, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

ষড়যন্ত্র করে বিএনপি জামায়াত আর কোনদিন ক্ষমতায় যেতে পারবে না ॥ মায়া

প্রকাশিত : ৭ সেপ্টেম্বর ২০১৫, ০১:৫৪ এ. এম.

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম বলেছেন, বিএনপি-জামায়াত ষড়যন্ত্র করে আর কখনোই ক্ষমতায় যেতে পারবে না। তাদের ক্ষমতায় আসতে হলে জনগণের মন জয় করতে হবে।

রবিবার রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউর কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের এক বর্ধিত সভায় তিনি এ কথা বলেন। বঙ্গবন্ধুর ৪০তম শাহাদাৎবার্ষিকী উপলক্ষে ৪০ দিনব্যাপী কর্মসূচীর অংশ হিসেবে আগামী বুধবার নগর আওয়ামী লীগের আলোচনা সভা সফল করতেই এ বর্ধিত সভায় আয়োজন করা হয়।

বিএনপির মধ্যবর্তী নির্বাচন ও তত্ত্বাবধায়ক সরকার দাবি নাকচ করে দিয়ে ত্রাণমন্ত্রী বলেন, দেশে কোন মধ্যবর্তী নির্বাচন হবে না। আর তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন হওয়ার কোন সুযোগ নেই। ২০১৯ সালে দেশের সংবিধান অনুযায়ী নির্বাচন হবে। মধ্যবর্তী নির্বাচনের ধোঁয়া তুলে জনগণকে বিভ্রান্ত না করতে বিএনপিকে পরামর্শ দিয়ে তিনি বলেন, সম্প্রতি অনুষ্ঠিত সুপ্রীমকোর্ট বার কাউন্সিল নির্বাচন এবং প্রকৌশলীদের সর্বোচ্চ প্রতিষ্ঠানে আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্যানেলের নিরঙ্কুশ জয়ের মাধ্যমে প্রমাণিত হয়েছে সরকারের জনপ্রিয়তা বৃদ্ধি পেয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক গবেষণা প্রতিষ্ঠান ইন্টারন্যাশনাল রিপাবলিকান ইনস্টিটিউটের (আইআরআই) জরিপের ফলের সত্যতাও প্রমাণ হয়েছে।

খাদ্যমন্ত্রী এ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম বলেন, বিএনপিকে ষড়যন্ত্রের পথ পরিহার করে জনগণের ভাষা উপলব্ধি করে রাজনীতি করা উচিত। কেননা এ সংগঠনটি একটি বিবৃতি সর্বস্ব সংগঠনে পরিণত হয়েছে। তিনি বলেন, বর্তমান সংসদে বিএনপির কোন প্রতিনিধিত্ব না থাকায় নির্বাচনকালীন সরকারে অংশ নেয়ারও কোন সুযোগ নেই। আগামী নির্বাচন দেশের সংবিধান অনুযায়ী অনুষ্ঠিত হবে।

মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এম এ আজিজের সভাপতিত্বে সভায় আরও বক্তব্য রাখেন ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি শেখ বজলুর রহমান, মুকুল চৌধুরী, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক হাজী মোহাম্মদ সেলিম এমপি, আওলাদ হোসেন, প্রচার সম্পাদক আবদুল হক সবুজ প্রমুখ।

প্রকাশিত : ৭ সেপ্টেম্বর ২০১৫, ০১:৫৪ এ. এম.

০৭/০৯/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


শীর্ষ সংবাদ: