মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২২ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ৭ আশ্বিন ১৪২৪, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

জাল শেয়ার নিয়ে ট্রাইব্যুনালের আদেশ ১৭ সেপ্টেম্বর

প্রকাশিত : ৬ সেপ্টেম্বর ২০১৫, ০৫:৫১ পি. এম.

অর্থনৈতিক রিপোর্র্টার ॥ বিনিয়োগকারীদের কাছে জাল শেয়ার, সার্টিফিকেট ও বরাদ্দপত্র বিক্রির অভিযোগে দায়ের করা মামলার কার্যক্রম পুঁজিবাজার সংক্রান্ত মামলা নিষ্পত্তিতে গঠিত বিশেষ ট্রাইব্যুনালে চালুর বিষয়ে ১৭ সেপ্টেম্বর আদেশ দেওয়া হবে। অন্যদিকে চিটগ্রাং সিমেন্টের শেয়ার কারসাজির মামলার এক সাক্ষীর জেরা শেষ হয়েছে। এছাড়া ২০১০ সালের পিপলস লিজিংয়ের শেয়ার কেলেঙ্কারির মামলার সিরাজউদ্দৌলার পরিবারকে চার্জ গঠনের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতের স্থগিতাদেশ দাখিল করারও নির্দেশ দেন আদালত। রবিবার বিশেষ ট্রাইব্যুনালের দিনভর শুনানী শেষে বিচারক হুমায়ন কবীর রায় পৃথক তিনটি আদেশ ঘোষণা দেন।

জাল শেয়ার মামলার বিষয়ে আদেশ ১৭ সেপ্টেম্বর ॥ জাল শেয়ার, সার্টিফিকেট ও বরাদ্দপত্র বিক্রির অভিযোগে দায়ের করা মামলার কার্যক্রম পুঁজিবাজার সংক্রান্ত মামলা নিষ্পত্তিতে গঠিত বিশেষ ট্রাইব্যুনালে চালুর বিষয়ে ১৭ সেপ্টেম্বর আদেশ দেওয়া হবে। একই দিনে আসামিদের আদালতে থাকারও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

জানা গেছে, জাল শেয়ার বিক্রিতে আসামীদের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ দণ্ডবিধি ৪০৩, ৪০৬, ৪২০, ৪৬৭, ৪৬৮, ৪৭০, ৪৭১ ও ৪৭২ আইনের অধীনে মামলা করা হয়েছে। ওই দণ্ডবিধি অনুযায়ী বিচার কার্যক্রম পুঁজিবাজার বিশেষ ট্রাইব্যুনালে হবে কী না তা নিয়ে সংশয় দেখা দিয়েছে বলে জানিয়েছেন ট্রাইব্যুনাল। আগামী ১৭ সেপ্টেম্বর এ বিষযে ট্রাইব্যুনাল চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাবেন।

এদিকে জাল শেয়ার বিক্রির দায়ে অভিযুক্ত আসামি তানলিন মাশফুকে জামিন দিয়েছেন পুঁজিবাজার বিশেষ ট্রাইব্যুনাল। একই সঙ্গে নির্ধারিত দিনে ট্রাইব্যুনালে হাজিরা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন ট্রাইব্যুনাল।

চিটাগ্রাং শেয়ার কেলেঙ্কারির মামলা ॥ ১৯৯৬ সালের শেয়ার কেলেঙ্কারির ঘটনায় আলোচিত চিটাগাং সিমেন্ট মামলায় সাক্ষ্য দিয়েছেন তদন্ত কমিটির সদস্য অধ্যাপক জহিরুল হক। সাক্ষ্য শেষে আসামি পক্ষের আইনজীবীরা তাকে জেরা করেন।

রবিবার দুপুরে পুঁজিবাজারের মামলা নিষ্পত্তিতে গঠিত বিশেষ ট্রাইব্যুনালে অধ্যাপক জহিরুল সাক্ষ্য দেন। সাক্ষ্য শেষে ট্রাইব্যুনালের বিচারক হুমায়ুন কবীর আগামী ২০ সেপ্টেম্বর মামলার পরবর্তী তারিখ নির্ধারণ করেন। ওই দিন মামলায় সাক্ষ্য দেবেন গঠিত তদন্ত কমিটির সদস্য ও বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) সাবেক চেয়ারম্যান মনিরউদ্দিন আহমেদ ও চিটাগাং সিমেন্টের সাবেক সচিব মোস্তাফিজুর রহমান।

সাক্ষ্য শেষে আসামি পক্ষের আইনজীবী খন্দকার মাহাবুব হোসেন ও মোহাম্মদ মহসিন রশিদ অধ্যাপক জহিরুল হককে জেরা করেন। এ সময় বাদী (বিএসইসি) পক্ষের আইনজীবী মাসুদ রানা খান উপস্থিত ছিলেন।

পিপলস লিজিংয়ের স্থগিতাদেশ উপস্থাপনের নির্দেশ ॥ ২০১০ সালে কৃত্রিমভাবে পিপলস লিজিংয়ের শেয়ারের দর বাড়ানোর অভিযোগে সিরাজউদৌল্লাসহ তিনজনের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলার পরবর্তী শুনানি আগামী ১৩ সেপ্টেম্বর নির্ধারণ করা হয়েছে। ওইদিন অভিযুক্তদের মামলার চার্জ গঠনের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতের স্থগিতাদেশ দাখিলের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এ সময় আসামি মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান মোড়ল আদালতে উপস্থিত ছিলেন। এ আদেশের পরে সিরাজউদ্দৌল্লা আদালতে উপস্থিত হন। তবে উপস্থিত ছিলেন না মামলার অপর আসামি ও সিরাজউদ্দৌল্লার স্ত্রী রাশেদা আক্তার মায়া।

এ সময় বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) আইনজীবী মাসুদ রানা খান ও আসামিপক্ষের আইনজীবী বাকী মো. মর্তুজা উপস্থিত ছিলেন।

জাল শেয়ার নিয়ে ট্রাইব্যুনালের আদেশ ১৭ সেপ্টেম্বর

অর্থনৈতিক রিপোর্র্টার ॥ বিনিয়োগকারীদের কাছে জাল শেয়ার, সার্টিফিকেট ও বরাদ্দপত্র বিক্রির অভিযোগে দায়ের করা মামলার কার্যক্রম পুঁজিবাজার সংক্রান্ত মামলা নিষ্পত্তিতে গঠিত বিশেষ ট্রাইব্যুনালে চালুর বিষয়ে ১৭ সেপ্টেম্বর আদেশ দেওয়া হবে। অন্যদিকে চিটগ্রাং সিমেন্টের শেয়ার কারসাজির মামলার এক সাক্ষীর জেরা শেষ হয়েছে। এছাড়া ২০১০ সালের পিপলস লিজিংয়ের শেয়ার কেলেঙ্কারির মামলার সিরাজউদ্দৌলার পরিবারকে চার্জ গঠনের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতের স্থগিতাদেশ দাখিল করারও নির্দেশ দেন আদালত। রবিবার বিশেষ ট্রাইব্যুনালের দিনভর শুনানী শেষে বিচারক হুমায়ন কবীর রায় পৃথক তিনটি আদেশ ঘোষণা দেন।

জাল শেয়ার মামলার বিষয়ে আদেশ ১৭ সেপ্টেম্বর ॥ জাল শেয়ার, সার্টিফিকেট ও বরাদ্দপত্র বিক্রির অভিযোগে দায়ের করা মামলার কার্যক্রম পুঁজিবাজার সংক্রান্ত মামলা নিষ্পত্তিতে গঠিত বিশেষ ট্রাইব্যুনালে চালুর বিষয়ে ১৭ সেপ্টেম্বর আদেশ দেওয়া হবে। একই দিনে আসামিদের আদালতে থাকারও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

জানা গেছে, জাল শেয়ার বিক্রিতে আসামীদের বিরুদ্ধে বাংলাদেশ দণ্ডবিধি ৪০৩, ৪০৬, ৪২০, ৪৬৭, ৪৬৮, ৪৭০, ৪৭১ ও ৪৭২ আইনের অধীনে মামলা করা হয়েছে। ওই দণ্ডবিধি অনুযায়ী বিচার কার্যক্রম পুঁজিবাজার বিশেষ ট্রাইব্যুনালে হবে কী না তা নিয়ে সংশয় দেখা দিয়েছে বলে জানিয়েছেন ট্রাইব্যুনাল। আগামী ১৭ সেপ্টেম্বর এ বিষযে ট্রাইব্যুনাল চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাবেন।

এদিকে জাল শেয়ার বিক্রির দায়ে অভিযুক্ত আসামি তানলিন মাশফুকে জামিন দিয়েছেন পুঁজিবাজার বিশেষ ট্রাইব্যুনাল। একই সঙ্গে নির্ধারিত দিনে ট্রাইব্যুনালে হাজিরা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন ট্রাইব্যুনাল।

চিটাগ্রাং শেয়ার কেলেঙ্কারির মামলা ॥ ১৯৯৬ সালের শেয়ার কেলেঙ্কারির ঘটনায় আলোচিত চিটাগাং সিমেন্ট মামলায় সাক্ষ্য দিয়েছেন তদন্ত কমিটির সদস্য অধ্যাপক জহিরুল হক। সাক্ষ্য শেষে আসামি পক্ষের আইনজীবীরা তাকে জেরা করেন।

রবিবার দুপুরে পুঁজিবাজারের মামলা নিষ্পত্তিতে গঠিত বিশেষ ট্রাইব্যুনালে অধ্যাপক জহিরুল সাক্ষ্য দেন। সাক্ষ্য শেষে ট্রাইব্যুনালের বিচারক হুমায়ুন কবীর আগামী ২০ সেপ্টেম্বর মামলার পরবর্তী তারিখ নির্ধারণ করেন। ওই দিন মামলায় সাক্ষ্য দেবেন গঠিত তদন্ত কমিটির সদস্য ও বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) সাবেক চেয়ারম্যান মনিরউদ্দিন আহমেদ ও চিটাগাং সিমেন্টের সাবেক সচিব মোস্তাফিজুর রহমান।

সাক্ষ্য শেষে আসামি পক্ষের আইনজীবী খন্দকার মাহাবুব হোসেন ও মোহাম্মদ মহসিন রশিদ অধ্যাপক জহিরুল হককে জেরা করেন। এ সময় বাদী (বিএসইসি) পক্ষের আইনজীবী মাসুদ রানা খান উপস্থিত ছিলেন।

পিপলস লিজিংয়ের স্থগিতাদেশ উপস্থাপনের নির্দেশ ॥ ২০১০ সালে কৃত্রিমভাবে পিপলস লিজিংয়ের শেয়ারের দর বাড়ানোর অভিযোগে সিরাজউদৌল্লাসহ তিনজনের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলার পরবর্তী শুনানি আগামী ১৩ সেপ্টেম্বর নির্ধারণ করা হয়েছে। ওইদিন অভিযুক্তদের মামলার চার্জ গঠনের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতের স্থগিতাদেশ দাখিলের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এ সময় আসামি মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান মোড়ল আদালতে উপস্থিত ছিলেন। এ আদেশের পরে সিরাজউদ্দৌল্লা আদালতে উপস্থিত হন। তবে উপস্থিত ছিলেন না মামলার অপর আসামি ও সিরাজউদ্দৌল্লার স্ত্রী রাশেদা আক্তার মায়া।

এ সময় বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) আইনজীবী মাসুদ রানা খান ও আসামিপক্ষের আইনজীবী বাকী মো. মর্তুজা উপস্থিত ছিলেন।

প্রকাশিত : ৬ সেপ্টেম্বর ২০১৫, ০৫:৫১ পি. এম.

০৬/০৯/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


শীর্ষ সংবাদ: