২৪ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

আওয়ামী লীগ কর্মীদের ঐক্যবদ্ধ থাকার আহ্বান


স্টাফ রিপোর্টার ॥ দলীয় নেতাকর্মীদের ভেদাভেদ ভুলে ঐক্যবদ্ধ থাকার আহ্বান জানিয়ে আওয়ামী লীগ নেতারা বলেছেন, এখনও নানামুখী ষড়যন্ত্র চলছে। স্বাধীনতাবিরোধীরা আবার ক্ষমতায় গেলে আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের হত্যা করবে। কিন্তু আমরা ঐক্যবদ্ধ থাকলে জনগণ তাদের সেই সুযোগ আর দেবে না। বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়া ব্যর্থ হয়ে আন্দোলন থেকে অবসর নিয়েছেন, একদিন রাজনীতি থেকেও অবসর নেবেন।

শনিবার রাজধানীতে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে পৃথক অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগ নেতারা এসব কথা বলেন। জাতীয় প্রেসক্লাবে কৃষক লীগ ঢাকা মহানগর আয়োজিত জাতীয় শোক দিবসের আলোচনায় আওয়ামী লীগের কৃষি ও সমবায় বিষয়ক সম্পাদক সাবেক মন্ত্রী ড. আবদুর রাজ্জাক বলেন, সবাইকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। সকল সন্ত্রাস, নাশকতাকে আমরা নির্বাসনে দেব। আর এ শক্তিবলে শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করব। কেননা স্বাধীনতাবিরোধীরা আবার ক্ষমতায় গেলে আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের হত্যা করবে।

প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের নাম উল্লেখ না করে তিনি বলেন, কাউকে কাউকে স্বাধীনতার ঘোষক বানানোর অপচেষ্টা করা হচ্ছে। অথচ জীবিত থাকতে যিনি নিজেকে ঘোষক বলেননি, মৃত্যুর পর তাকে ঘোষক বলা হচ্ছে। তিনি বলেন, বাংলাদেশের স্বাধীনতা বঙ্গবন্ধুর অর্জন। এ কারণেই ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট শুধু বঙ্গবন্ধুকেই হত্যা করেনি, তারা বাংলাদেশটাকেই হত্যা করতে চেয়েছিল।

সাবেক এই খাদ্যমন্ত্রী আরও নেতাকর্মীদের সজাগ ও সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়ে বলেন, এখনও নানা ষড়যন্ত্র হচ্ছে। ওই যুদ্ধাপরাধী জামায়াত একাত্তরে যে অপরাধ করেছে তার জন্য আজ পর্যন্ত জাতির কাছে ক্ষমা চায়নি। শেখ হাসিনা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে যুদ্ধাপরাধীদের বিচার করছেন। তিনি কৃষক লীগকে আরও শক্তিশালী সংগঠনে পরিণত করার জন্য নেতাদের প্রতি আহ্বান জানান।

সংগঠনের সভাপতি মাকসুদুল ইসলামের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন আয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি মোতাহার হোসেন মোল্লা, সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট শামসুল হক রেজা প্রমুখ।

রাজনীতি থেকেও অবসর নেবেন খালেদা জিয়া- রেলমন্ত্রী ॥ রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক বলেছেন, বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া আন্দোলনে ব্যর্থ হয়েছেন। দীর্ঘ আন্দোলন করে উনি এখন টায়ার্ড, তাই আন্দোলন থেকে অবসর নিয়েছেন। একদিন তিনি রাজনীতি থেকেও অবসর নেবেন।

শনিবার জাতীয় প্রেসক্লাবে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে বঙ্গমাতা পরিষদ সোনালী ব্যাংক শাখা আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি আরও বলেন, নির্বাচনে অংশগ্রহণ না করে খালেদা জিয়া হরতাল অবরোধ দিয়ে সরকারের কোটি কোটি টাকা নষ্ট করেছেন। পেট্রোলবোমা মেরে মানুষ হত্যা করেছেন। সরকারী সম্পদ লুণ্ঠন করেছেন।

খালেদা জিয়া স্বাধীনতাবিরোধীদের নিয়ে রাজনীতি করছেন উল্লেখ করে রেলমন্ত্রী বলেন, মহান মুক্তিযুদ্ধে যারা সরাসরি পাকিস্তানের পক্ষে ছিল তাদের নিয়ে রাজনীতি করছেন খালেদা জিয়া। এতে জাতির সংশয় হয় খালেদা জিয়া কতটুকু স্বাধীনতায় বিশ্বাসী।

সংগঠনের সভাপতি আবদুল খালেকের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন খাদ্য প্রতিমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ, শ্রমিক লীগ নেতা আমিনুল হক ফারুক, এম এ করিম, আনিসুর রহমান প্রমুখ।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: