১৮ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

নরসিংহপুর ফেরিঘাটে চাঁদাবাজির অভিযোগ


নিজস্ব সংবাদদাতা, শরীয়তপুর, ৪ সেপ্টেম্বর ॥ ঈদ-উল-আজহা সামনে রেখে শরীয়তপুর-চাঁদপুর মহাসড়কের ভেদরগঞ্জ উপজেলার নরসিংহপুর ফেরিঘাটে বেপরোয়া চাঁদাবাজির অভিযোগ উঠেছে। জানা গেছে, প্রতিদিন প্রায় অর্ধশত মালবাহী ট্রাকসহ অন্যান্য যানবাহন এই ফেরিঘাট দিয়ে পারাপার হয়। রাতে পারাপার হয় মাছ, কাঁচামালসহ অন্য মালবাহী ট্রাক। রাতের আধারে এসব পণ্যবাহী ট্রাক থামিয়ে একটি সংঘবদ্ধ চাঁদাবাজ দল টোল আদায়ের নাম করে প্রত্যেক ট্রাক থেকে ৪ থেকে ৫ হাজার টাকা করে চাঁদা আদায় করছে বলে ভুক্তভোগীরা জানিয়েছে। স্থানীয় চরসেনসাস ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান মোঃ আনোয়ার হোসেন বালা শুক্রবার সকালে স্থানীয় সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জনগণের দোরগোড়ায় সেবা পৌঁছে দেয়ার লক্ষ্যে দেশের বিভিন্ন ফেরিঘাট ইজারামুক্ত করে বেসরকারীভাবে টোল আদায় বন্ধ করে দিয়েছেন। সে কারণে গত ২৯ আগস্ট থেকে নরসিংহপুর ফেরিঘাটের টোল আদায়ের ইজারামুক্ত হয়।

কিন্তু ঘাটের সাবেক ইজারাদার জিতু বেপারীর লোকজন রতন খালাসী, স্বপন খালাসী, মিজান খালাসী, মানিক খালাসী, আলী ব্যাপারী, জসিম দিদার, আজিজ দিদার, হাবিব দিদার গংরা রতন খালাসী ও মোক্তার দিদারের নেতৃত্বে রাতের অন্ধকারে মালবাহী ট্রাক, কাঁচামাল ও মাছের ট্রাক থামিয়ে ৪ থেকে ৫ হাজার টাকা পযর্ন্ত চাঁদা আদায় করছে। এদিকে নরসিংহপুর ফেরিঘাটের সাবেক ইজারাদার চরসেনসাস ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান জিতু ব্যাপারী উল্টো অভিযোগ করে বলেন, চরসেনসাস ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন বালার লোকজনই মালবাহী ট্রাক থামিয়ে চাঁদাবাজি করছে। শরীয়তপুরের সহকারী পুলিশ সুপার (গোসাইরহাট সার্কেল) সুমন দেব ফেরিঘাটে চাঁদাবাজির কথা স্বীকার করেন।