২০ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

যশোরে চাঁদা না পেয়ে ইউনিলিভারের ৮ কর্মচারীকে অপহরণ ॥ পিটিয়ে জখম


স্টাফ রিপোর্টার, যশোর অফিস ॥ যশোরে চাঁদা না পেয়ে ইউনিলিভার কোম্পানির মহিলাসহ আট কর্মচারীকে অস্ত্রের মুখে অপহরণের পর পিটিয়ে জখম করেছে সন্ত্রাসীরা। এদের কাছ থেকে টাকা ও মোবাইল ফোন নিয়ে নেয় তারা। আহত ৫ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বুধবার রাতে এ ঘটনা ঘটে।

যশোর ২৫০ শয্যা হাসপাতালে আহতরা হলেন- ফরিদপুরের মধুখালীর কামারখালী গ্রামের আব্দুস সামাদের পুত্র রাজু আহমেদ (২১), গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ার গোলাম কিবরিয়ার পুত্র আরিফ হোসেন মুন্নু (২১), নরসিংদীর বানিয়াচল গ্রামের ফারুক মিয়ার পুত্র কামরুজ্জামান জুয়েল (২৩), গাড়িচালক কিশোরগঞ্জের বাজিতপুরের উজানচরের আবুবক্কারের পুত্র আল-আমিন (২৫) ও লক্ষ্মীপুর চরম-লের রবিউল ইসলামের পুত্র শাহিন হোসেন (২৫)। অপর ৩ যুবতী লোক লজ্জার ভয়ে হাসপাতালে ভর্তি হননি।

আহতরা জানান, স্কুলের শিক্ষার্থীদের পেপসোডেন্ট ও দাঁত সম্পর্কে সচেতন করার জন্য তারা কোম্পানির পক্ষে গত ১৫ আগস্ট যশোরে আসেন। যশোর শহরের ঘোপ নওয়াপাড়া রোডের হযরত আলীর বাসা ভাড়া নেন। বুধবার রাত ১০টার দিকে ৮-১০ সন্ত্রাসী তাদের বাসায় হামলা চালায় এবং অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ফেলে। পরে তদের কাছে এ লাখ ২০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করে। চাঁদা দিতে না পারার কারণে সন্ত্রাসীরা ওই কর্মচারীদের কাছ থেকে মোবাইল ফোন, নগদ ২৬ হাজার টাকা লুট করে নেয়। এরপর অপহরণ করে একটি ঘরে আটকে বেদম প্রহার করে। পরে স্থানীয় যুবকরা আহত অবস্থায় তাদের উদ্ধার করেন এবং কোতোয়ালি থানা পুলিশকে খবর দেন। পুলিশ তাদের ৫ জনকে যশোর ২৫০ শয্যা হাসপাতালে মধ্যরাতে ভর্তি করেন।