২৪ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ২ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

ইউএস ওপেন ॥ শুরুতেই ছিটকে গেলেন ইভানোভিচ


স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ গত তিন আসরের চ্যাম্পিয়ন সেরেনা উইলিয়ামস এবারও অন্যতম ফেবারিট। দারুণ কিছু ইতিহাস গড়ার মিশন এবার মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের এ কৃষ্ণসুন্দরীর। সেই মিশনের শুরুটা দাপটের সঙ্গেই শুরু করেছেন তিনি। প্রথম রাউন্ড পেরিয়েছেন দারুণ প্রতিপক্ষকে নাজেহাল করেই। পুরুষ এককে ফেবারিট বিশ্বসেরা সার্বিয়ার নোভাক জোকোভিচও দারুণ এক জয় তুলে নিয়েছেন। সরাসরি সেটে তিনি ব্রাজিলের জোয়াও সুজাকে হারিয়ে দেন। তবে বছরের শেষ গ্র্যান্ডসøামের শুরুর দিনটাই অনেক টেনিস ভক্তের জন্য বিষাদেরও ছিল। কারণ প্রথম রাউন্ড থেকেই বিদায় নিয়েছেন সার্বিয়ান গ্ল্যামার গার্ল আনা ইভানোভিচ। আরেক সুন্দরী রাশিয়ার মারিয়া শারাপোভা আগেই ইনজুরির কারণে নাম প্রত্যাহার করে নেয়াতে ইউএস ওপেনের আকর্ষণ অনেকটাই ম্লান হয়ে গেল। ইভানোভিচ হেরে গেছেন সেøাভাকিয়ার ডোমিনিকা সিবুলকোভার কাছে। এছাড়াও বড় অঘটন ছিল পুরুষ এককে বিশ্বের ৪ নম্বর তারকা জাপানের কেই নিশিকোরির বিদায়। এভাবেই মিশ্র অভিজ্ঞতা নিয়ে টেনিস অনুরাগীরা বছরের শেষ গ্র্যান্ডসøামের প্রথম দিনের শেষ দেখেছে।

চলতি বছর তিন গ্র্যান্ডসøামই উঠেছে সেরেনার হাতে। গত বছর ইউএস ওপেন জেতার কারণে সøাম জয়ের একটা চতুষ্টয় রচনা করে ফেলেছেন। যার কারণে ক্যারিয়ারের দ্বিতীয়বারের মতো ‘সেরেনা সøাম’ উপহার দিয়েছেন ভক্তদের। কিন্তু এক বছরের সব গ্র্যান্ডসøাম আগে কখনও জেতেননি। এবার সেটাও করার সুযোগ এবং ২১ গ্র্যান্ডসøাম জয়ের পর এবার জিতলেই ছুঁয়ে ফেলবেন সাবেক জার্মান কিংবদন্তি স্টেফি গ্রাফকে। ২২ গ্র্যান্ডসøাম জয়ের রেকর্ড আছে স্টেফির। সে জন্য শুরু থেকেই দাপট দেখানো শুরু করেছেন তিনি। ফর্মের তুঙ্গে থাকা সেরেনা প্রথম রাউন্ডে প্রতিপক্ষ হিসেবে পেয়েছিলেন বিশ্বের ৮৬ নম্বর রাশিয়ার ভিটালিয়া ডায়াটচেঙ্কোকে। কোন প্রতিরোধই গড়তে পারেননি এ উদীয়মান তরুণী। মাত্র ৩০ মিনিটে সেরেনার গতির তোপে বিপর্যস্ত ডায়াটচেঙ্কো ৬-০, ২-০ ব্যবধানে পিছিয়ে থাকার পর ইনজুরিতে পড়েন। বাঁ পায়ের ইনজুরির কারণে আর খেলতে পারেননি তিনি। জয়ের পর সেরেনা বলেন, ‘আমি যদি উৎফুল্ল থাকতে পারি, সঠিক অবস্থানে থাকতে পারি, শান্ত ও আনন্দিত থাকতে পারি তাহলে আমার হারানোর কিছুই থাকবে না।’ ১৯৮৮ সালে সর্বশেষ ‘ক্যালেন্ডার সøাম’ করেছিলেন স্টেফি। ২৭ বছর পর একই ঘটনার পুনরাবৃত্তির মিশনে শুরুটা দারুণই হলো সেরেনার।