২২ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৮ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

বেড়া পৌর মেয়রসহ ১৫ জনের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা


নিজস্ব সংবাদদাতা,পাবনা॥ ক্ষমতার অপব্যবহার ও সরকারি অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে বেড়া পৌর মেয়র ও বেড়া উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আলহাজ আব্দুল বাতেনসহ ১৫ জনের বিরুদ্ধে আরেকটি মামলা দায়ের করেছে দূর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। সোমবার রাত ৮টার দিকে দুদক পাবনা অফিসের উপ-সহকারী পরিচালক জালাল উদ্দিন বাদী হয়ে বেড়া থানায় মামলাটি দায়ের করেন। মামলা নং ২৩।

মামলায় অভিযুক্তরা হলেন, বেড়া পৌর মেয়র আলহাজ আব্দুল বাতেন, বেড়া পৌরসভার প্রকৌশলী খন্দকার ফিরোজুল আলম, সাবেক সচিব বর্তমান পঞ্চগড় পৌরসভার সচিব মো: রাশিদুর রহমান, কাউন্সিলর হাবিবুর রহমান হবি, আবু দাউদ শেখ, জয়নাল আবেদিন, শামসুল হক খান, এনামুল হক শামিম, আব্দুর রাজ্জাক সরদার, ইসলাম উদ্দিন, আব্দুস সামাদ মহলদার, শহিদ আলী, নার্গিস আক্তার, জাকিয়া খাতুন এবং হাটের ইজারাদার মাহবুব হোসেন বাবলু।

মামলা এজাহারের বরাত দিয়ে দুদক পাবনা অফিসের উপ-সহকারী পরিচালক জালাল উদ্দিন জানিয়েছেন, ক্ষমতার অপব্যবহারের মাধ্যমে সরকারী অর্থ আত্মসাত, অনিয়ম ও দূর্নীতির অভিযোগে জেলার বেড়া পৌর মেয়র আব্দুল বাতেনসহ বেড়া সিএন্ডবি করমজা নতুনহাটের ৬ লাখ ৭৮ হাজার ৩১৭ টাকা সরকারী কোষাগারে জমা না দিয়ে তিনিসহ আসামিরা দূর্নীতির আশ্রয় নিয়েছেন। এছাড়া বেড়া পৌর মেয়র আব্দুল বাতেনসহ উল্লেখিত অভিযুক্তরা নিয়মনীতি উপেক্ষা করে ক্ষমতার অপব্যবহারের মাধ্যমে সরকারি হাটকে বেসরকারি ব্যাক্তি মালিকানাধীন দেখিয়ে ১ বছরের স্থলে এক নাগারে ১৩ বছর অবৈধভাবে ভোগদখল করে সরকারের বিপুল রাজস্বের ক্ষতি করে ব্যাক্তিগত লাভবান হয়েছেন। বিধি মোতাবেক সরকারি কোষাগারে টাকা জমা দেননি তারা। দীর্ঘদিন অনুসন্ধানের পর অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় সোমবার রাতে এই মামলাটি দায়ের করা হয়।

বেড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শিকদার মশিউর রহমান মামলা দায়েরের সত্যতা স্বীকার করে বলেন, মামলাটি বিষয়ে দুদক কর্মকর্তারাই তদন্ত সহ পরবর্তী পদক্ষেপ নেবেন।

তবে মামলার আরেক অভিযুক্ত করমজা হাটের ইজারাদার মাহবুব হোসেন জানান, পৌর মেয়রের সঙ্গে চুক্তি অনুযায়ী সরকারে কোষাগারে যে টাকা জমা দেওয়ার কথা ছিল তা যথা সময়ে পৌর মেয়রের কাছে জমা দেওয়া হয়েছে। এ নিয়ে মেয়রের বিরুদ্ধে দুদকের দায়ের করা মামলার সংখ্যা দাঁড়ালো তিন। এর আগে গত ২৭ আগষ্ট বেড়া থানায় সাড়ে ৭৬ লাখ টাকা এবং ২ লাখ ৩ হাজার সরকারী টাকা আতœসাতের অভিযোগে বেড়া পৌর মেয়র আব্দুল বাতেনসহ ১৪ জনের নামে পৃথক দু’টি মামলা করে দুদক।

সম্পর্কিত: