মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
১৮ আগস্ট ২০১৭, ৩ ভাদ্র ১৪২৪, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

সোয়ানসির কাছে হ্যাটট্রিক হার ম্যানইউর

প্রকাশিত : ১ সেপ্টেম্বর ২০১৫
সোয়ানসির কাছে হ্যাটট্রিক হার ম্যানইউর

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ সোয়ানসি সিটির মুখোমুখি হলেই কেমন যেন খেই হারিয়ে ফেলে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। এই প্রমাণ আরও একবার মিলেছে। ইংলিশ প্রিমিয়ার লীগের নতুন মৌসুমে এই সোয়ানসির কাছেই প্রথম হারের স্বাদ পেয়েছে রেড ডেভিলসরা। রবিবার রাতে অনুষ্ঠিত ম্যাচে ম্যানউকে ২-১ গোলে পরাজিত করে সোয়ানসি। লিবার্টি স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচে স্বাগতিকদের হয়ে গোল করেন আন্দ্রে আইয়ু ও বাফেটিম্বি গোমিস। অতিথি ম্যানইউর হয়ে একমাত্র গোলটি করেন জুয়ান মাতা।

এই হারের ফলে পয়েন্ট তালিকার দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসার সুযোগ হারিয়েছে ম্যানইউ। বর্তমানে ৪ ম্যাচে ৭ পয়েন্ট নিয়ে পাঁচ নম্বরে ওয়েন রুনির দল। সমান ম্যাচে তৃতীয় ও চতুর্থ স্থানে থাকা লিচেস্টার সিটি ও সোয়ানসি সিটির ঘরে জমা হয়েছে ৮ পয়েন্ট করে। ৯ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আছে ক্রিস্টাল প্যালেস। আর প্রথম চার ম্যাচের সব জিতে ১২ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে ম্যানচেস্টার সিটি। ছয় ও সাত নম্বর অবস্থান করছে আর্সেনাল ও লিভারপুল। আর গতবারের শিরোপাজয়ী চেলসি আছে ১৩তম অবস্থানে। এটি ছিল ম্যানইউর কোচ হিসেবে লুইস ভ্যান গালের ৫০তম ম্যাচ। হাফসেঞ্চুরির ম্যাচটি হার দিয়েই বরণ করেছেন হল্যান্ডের এই কোচ। মজার বিষয় হচ্ছে, গত মৌসুমে এই সোয়ানসির বিপক্ষেই ভ্যান গালের অভিষেক হয়েছিল হার দিয়ে। ব্যবধানও ছিল এবারের মতোই ২-১। অবাক করা বিষয়, শুধু এই দুটি ম্যাচই নয় ম্যানইউর বিপক্ষে সর্বশেষ খেলা পাঁচ ম্যাচের চারটিতেই ২-১ গোলের ব্যবধানে জিতেছে সোয়ানসি। এবারের লীগে নিজেদের প্রথম দুই ম্যাচেই ১-০ গোলে জেতার পর গত সপ্তাহে নিউক্যাসল ইউনাইটেডের সঙ্গে গোলশূন্য ড্র করে ম্যানইউ। এরপর উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লীগের প্লে অফে ক্লাব ব্রুগে দুই লেগে যথাক্রমে ৩-১ ও ৪-০ গোলে হারায় তারা। দ্বিতীয় লেগের ম্যাচে দুর্দান্ত হ্যাটট্রিক করেছিলেন অধিনায়ক ওয়েন রুনি। কিন্তু লীগে এখনও খোলস ছেড়ে বেরিয়ে আসতে পারেননি। এই প্রমাণ পরশু রাতের ম্যাচেও মিলেছে। লীগের চতুর্থ পর্বে শনিবার হারের মুখ দেখেছে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন চেলসি ও লিভারপুল। একদিন পরে একই পথে হেঁটেছে ইংল্যান্ডের সফলতম দল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। সোয়ানসির মাঠ লিবার্টি স্টেডিয়ামে অবশ্য শুরুতে এগিয়ে গিয়েছিল ম্যানইউ। প্রথমার্ধ গোলশূন্য থাকার পর দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে ৪৮ মিনিটে দলকে এগিয়ে নেন স্প্যানিশ মিডফিল্ডার জুয়ান মাতা। কিন্তু ৬১ থেকে ৬৬ এই ছয় মিনিটের মধ্যে ম্যানইউর জালে দুইবার বল জড়ায় সোয়ানসি। ৬১ মিনিটে ম্যাচের সমতাসূচক গোল করেছিলেন অ্যান্দ্র আইয়ু। ৬৬ মিনিটে সোয়ানসির পক্ষে জয়সূচক গোল করেন বাফেটিম্বি গোমিস। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের কোচ হিসেবে নিজের ৫০তম ম্যাচটা স্মরণীয় করতে ব্যর্থ হয়েছেন ভ্যান গাল। সোয়ানসির কাছে হারাটাকে যেন অভ্যাসই বানিয়ে ফেলেছেন তিনি। গত মৌসুমে এই সোয়ানসির বিপক্ষে ম্যাচ দিয়েই ইউনাইটেডের কোচ হিসেবে অভিষেক ভ্যান গালের। ঘরের মাঠের ম্যাচটা ২-১ গোলে হেরেছিল রেড ডেভিলসরা। ফিরতি ম্যাচে লিবার্টি স্টেডিয়ামেও একই ব্যবধানে হার। এরপর পরশুর হার, সোয়ানসির কাছে হারের হ্যাটট্রিকই করে ফেলল ইউনাইটেড। শুধু তাই নয়, লীগে ম্যানইউর বিপক্ষে মাত্র ষষ্ঠ ক্লাব হিসেবে টানা তিন ম্যাচ জয়ের কৃতিত্ব দেখিয়েছে ওয়েলসের ক্লাবটি। ৫০তম ম্যাচের আগে ভ্যান গাল বলেছিলেন, আমি সোয়ানসি সিটির বিপক্ষেই প্রথম ডাগআউটে ছিলাম। সেই ম্যাচে হেরেছিলাম। এবার ম্যানইউর হয়ে ৫০তম ম্যাচে ডাগআউটে দাঁড়াব। আমি মনে করি গত মৌসুমের শুরুর প্রথম ম্যাচে আমরা তেমন প্রস্তুত ছিলাম না। তাই এবার আমাদের পারফর্মেন্সের উন্নতি প্রদর্শন করার সুযোগ পাচ্ছি। গত বছর এই সোয়ানসির কাছেই দুইবার হার মানি। বিশেষ করে দ্বিতীয় ম্যাচটি ছিল দুর্ভাগ্যজনক। তবে দল হিসেবে তারাও যে খুব ভাল দল তা অস্বীকার করার কোন উপায় নেই। তারা এটা প্রমাণ করেছে। এই প্রমাণ আরও একবার দিয়েছে সোয়ানসি।

প্রকাশিত : ১ সেপ্টেম্বর ২০১৫

০১/০৯/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



শীর্ষ সংবাদ: