২২ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

কয়লা বিদ্যুতকেন্দ্র নির্মাণে জমির ন্যায্যমূল্য দাবিতে মানববন্ধন


স্টাফ রিপোর্টার, কক্সবাজার ॥ মহেশখালীর হোয়ানক ও কালারমারছড়ায় ৯ হাজার মেগাওয়াট কয়লা ও এলএনজি ভিত্তিক বিদ্যুত কেন্দ্র নির্মাণের জন্য জমি অধিগ্রহণ (প্রক্রিয়াধীন জমির) ন্যায্য ক্ষতিপূরণের দাবিতে জমির মালিকরা কক্সবাজার জেলা প্রশাসন কার্যালয়ের সামনে মানববন্ধন ও সমাবেশ করেছে। কর্মসূচী শেষে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান করেন জমির মালিকরা। এতে জানানো হয়, ওই জমি অধিগ্রহণ করা হলে প্রাকৃতিক সম্পদে ভরপুর, মহেশখালীর মিষ্টিপান, চিংড়ি, শুঁটকি ও ধান উৎপাদন চরমভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে। বেকার হয়ে পড়বে প্রায় ৩ লাখ মানুষ। এর পরও জাতীয় স্বার্থে এই বৃহৎ প্রকল্পের জন্য জমি দিতে আমাদের কোন আপত্তি নেই। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওপর আমাদের পূর্ণ আস্থা রয়েছে।

কিন্তু জমির ক্ষতিপূরণের জন্য যে মূল্য নির্ধারণ হচ্ছে, তা কোনভাবেই মেনে নেয়া যায় না। পার্শ্ববর্তী মাতারবাড়িতে ক্ষতিপূরণের জন্য যে মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে, তার চেয়ে কালারমারছড়া ও হোয়ানকের জমির ক্ষতিপূরণের জন্য নির্ধারিত মূল্য অনেক কম। তাই জমির ক্ষতিপূরণের মূল্য বাড়ানো না হলে জমির মালিকরা চরমভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে। এ সময় জমির মালিকদের দাবির প্রতি পূর্ণ সমর্থন জানিয়ে বক্তব্য রাখেন স্থানীয় সাংসদ আশেক উল্লাহ রফিক, জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এ্যাডভোকেট আহমদ হোসেন, সাধারণ সম্পাদক সালাহ উদ্দিন আহমদ সিআইপি, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সিরাজুল মোস্তফা, কৃষকলীগের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সম্পাদক রেজাউল করিম, মির কাসেম, মোহাম্মদ জাকরিয়া, মোহাম্মদ শরীফ মাতবর, জাফর আলম জফুর, মির কাসেম ও ওয়াজেদ আলী মুরাদ।

সম্পর্কিত: