১৯ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

কলাপাড়া হাসপাতালে ভিজিট নিয়ে রোগী দেখা হচ্ছে


নিজস্ব সংবাদদাতা, কলাপাড়া, ৩০ আগস্ট ॥ স্ত্রী খাদিজ বেগমের কানের স্বর্ণালঙ্কার বন্ধক রেখে টাকা সংগ্রহ করে দুই মাস আট দিন বয়সী শিশু লাবনীকে চিকিৎসার জন্য কলাপাড়া হাসপাতালে আসেন কৃষক নুরুজ্জামান গাজী। হাসপাতালের এক দালাল তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য প্রশাসক (ভারপ্রাপ্ত) ডাঃ লোকমান হাকিমের কক্ষে নিয়ে যায়। তিন শ’ টাকা ভিজিট চাওয়া হয়। দরদাম করে দুই শ’ টাকায় রফা। একটি ব্যবস্থাপত্র ধরিয়ে দেয়া হয়। রবিবার বেলা সাড়ে ১১টার ঘটনা। একজন সচেতন ব্যক্তির নজরে আসে বিষয়টি। তিনি প্রতিবাদ করলে টাকা দুই শ’ ফেরত দিয়ে ব্যবস্থাপত্রটি রেখে দেন লোকমান হাকিম। পরে অপর এক চিকিৎসককে দেখিয়ে বাড়ি ফেরেন এ দম্পতি। বালিয়াতলী ইউনিয়নের মাঝেরপাড়া গ্রামে বাড়ি তাদের। কলাপাড়া হাসপাতালের নিত্যদিনের চিত্র এটি।

খোদ স্বাস্থ্য প্রশাসক অফিস চলাকালে এমন বাণিজ্য করলে অপর চিকিৎসকগণ কী করবেন। প্রতিদিন গড়ে হাসপাতালটিতে দেড় শ’ রোগী বহির্বিভাগে চিকিৎসা নিতে আসেন। হাসপাতালের কর্মচারীসহ বাইরের কিছু নিয়োজিত দালালদের মাধ্যমে এভাবে অফিস চলাকালে রোগীদের গুনতে হয় ভিজিট। এমনকি অফিস সময় ছাড়াও হাসপাতালের চেম্বারে বসে ভিজিটের মাধ্যমে রোগী দেখার বাণিজ্য চলে আসছে। বহুবার উপজেলা স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনা কমিটির সভায় এসব বিষয় নিয়ে আলোচনা ও সিদ্ধান্ত হয়েছে। কাগজে-কলমে সিদ্ধান্ত থাকলেও বাস্তবতা ভিন্ন। ফলে সরকারের স্বাস্থ্যসেবা থেকে কলাপাড়ার মানুষ বঞ্চিত হচ্ছে। যেখানে এখানকার স্বাস্থ্য বিভাগের সর্বোচ্চ কর্তাব্যক্তি ভিজিটে রোগী দেখেন, সেখানে মানুষ কোথায় যাবেন। এ ব্যাপারে ডাঃ লোকমান হাকিম জানান, আমি একটি মিটিং এ যাচ্ছি। এ ধরনের রোগী দেখছি কী না তা বলতে পারছি না। এসে বলতে পারব।