২১ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

সেরেনা চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় প্রস্তুত শারাপোভা


স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ তাকে দমিয়ে দেয়ার কেউ নেই, অপ্রতিরোধ্য এবং দুর্দমনীয়। কিন্তু সেটাই যদি হবে দুই সপ্তাহ আগে রজার্স কাপে ১৮ বছর বয়সী তরুণ উদীয়মান বেলিন্ডা বেনচিচের কাছে হেরে গেলেন কী করে? খেলায় জয়-পরাজয় অবশ্যই আছে এবং বর্তমান বিশ্বের এক নম্বর টেনিস তারকা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সেরেনা উইলিয়ামসও হারতে বাধ্য। ফর্ম চিরস্থায়ী নয়, যে কোন সময় খেলোয়াড়ের বাজে নৈপুণ্য দেখা যেতে পারে। তাই যারা বলছেন এবার ইউএস ওপেনে সেরেনাকে ঠেকানো অসম্ভব সেটাকে উড়িয়ে দিচ্ছেন তার অন্যতম প্রতিপক্ষ রাশিয়ান সুন্দরী মারিয়া শারাপোভা। তিনি মনে করেন সেরেনাকে হারিয়ে দেয়াটা অসম্ভব কিছু নয়। যতই দুর্দান্ত ফর্মে থাকুন সেরেনা এবং বিশ্বের বাকি টেনিস খেলোয়াড়ের জন্য হুমকি হয়ে উঠুন সে চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় প্রস্তুত আছে মাশা। আজ থেকে শুরু হতে যাওয়া বছরের শেষ গ্র্যান্ডসøাম আসর ইউএস ওপেনে নামার আগে এমন ঘোষণাই দিলেন বিশ্বের তিন নম্বর শারাপোভা।

৩৩ বছর বয়সী সেরেনা ক্যারিয়ারের সবচেয়ে সুবর্ণ সময়ে আছেন। ২০০২-০৩ মৌসুমে অবশ্য এমনটাই ছিলেন। ১৩ বছর পর সেই সময়ের চেয়েও দাপুটে মনে হচ্ছে তাকে। ইতোমধ্যেই এ বছরের তিন গ্র্যান্ডসøাম অস্ট্রেলিয়ান ওপেন, ফ্রেঞ্চ ওপেন ও উইম্বল্ডন জিতেছেন। অপেক্ষায় আছেন এ বছরের শেষ ইউএস ওপেন জিতে ‘ক্যালেন্ডার সøাম’ গড়ার। সাবেক জার্মান কিংবদন্তি স্টেফি গ্রাফের মতোই ২২ গ্র্যান্ডসøাম জয়ের দারুণ সুযোগ এখন পর্যন্ত ২১ গ্র্যান্ডসøাম জয়ী সেরেনার জন্য। তাকে ঠেকাবেন কে? চরম প্রতিপক্ষ আছেন অনেকেই। তবে যে কোন গ্র্যান্ডসøামের আগেই সেরেনোর সঙ্গে শারাপোভার একটি মৌখিক লড়াই শুরু হয়ে যায়। কোর্টের ভেতরে এবং বাইরেও যেন নিজেদের চরম শত্রু তারা! তবে গত ১১ বছরে সেরেনার সঙ্গে পেরেই ওঠেননি মাশা। ২০ বার মুখোমুখি হয়েছেন তিনি সেরেনার। কিন্তু দুটি জয়ের বিপরীতে হেরেছেন ১৮ বার! সর্বশেষ এ বছর উইম্বল্ডনের সেমিফাইনালে হেরেছেন সেরেনার কাছে। এরপর হাঁটুর ইনজুরির কারণে আর কোন টুর্নামেন্টেই অংশ নেননি মাশা।