মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১০ আশ্বিন ১৪২৪, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ

মিশ্র দ্বৈতে চ্যাম্পিয়ন লিয়েন্ডার-হিঙ্গিস

প্রকাশিত : ১৪ জুলাই ২০১৫

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ আরও একটা গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্ট জয়ের স্বাদ পেলেন লিয়েন্ডার পেজ। রবিবার টেনিসের জীবন্ত কিংবদন্তি মার্টিনা হিঙ্গিসকে সঙ্গে নিয়ে উইম্বল্ডনের মিশ্র দ্বৈতে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করলেন তিনি। প্রকৃতপক্ষে বয়স বাড়ছে না কমছে তাকে দেখে বোঝার উপায় নেই। টেনিস কোর্টে যেন প্রতিদিনই তরুণ হচ্ছেন ৪২ বছর বয়সী লিয়েন্ডার পেজ। চলতি বছরের শুরুতেই হিঙ্গিসকে সঙ্গী করে অস্ট্রেলিয়ান ওপেন জিতেছিলেন তিনি। ছয় মাস কাটতে না কাটতেই আবারও গ্র্যান্ডসøাম ট্রফি জিতলেন তিনি। বিয়াল্লিশ বছর বয়সে জোড়া গ্র্যান্ডসøাম জয়ের অনন্য কৃতিত্ব অর্জন করলেন লিয়েন্ডার পেজ।

ক্রীড়াজগতে বয়স যে কোন বাধা হয়ে দাঁড়াতে পারে না তা আরও একবার প্রমাণ করলেন লিয়েন্ডার। কঠোর পরিশ্রম ও একাগ্রতাÑ এই মন্ত্রে এখনও টেনিস কোর্ট দাবড়ে বেড়াচ্ছেন তিনি। এবারের আসরে মিশ্র দ্বৈতের ফাইনালেও ফেবারিটের তকমাটা গায়ে মাখানো ছিল তার। শেষ পর্যন্ত জয়ের তৃপ্তি নিয়েই অল ইংল্যান্ড ক্লাব ছাড়লেন তারা। শিরোপা জয়ের লড়াইয়ে মার্টিনা হিঙ্গিস এবং লিয়েন্ডার পেজ জুটি ৬-১ এবং ৬-১ গেমে আলেক্সন্ডার পিয়া এবং টিমিয়া বাবোসুকে রীতিমতো উড়িয়েই দেন তারা। উইম্বল্ডনের মতো বিশাল মঞ্চে নিজেদের মেলে ধরতে পেরে দারুণ উচ্ছ্বসিত তারা।

বিশেষ করে মার্টিনা হিঙ্গিস তো রীতিমতো উড়ছেনই। কেননা লিয়েন্ডার পেজের সঙ্গে মিশ্র দ্বৈতে শিরোপা জয়ের আগে টুর্নামেন্টের ডাবলসেও চ্যাম্পিয়ন হন তিনি। সুইজারল্যান্ডের এই টেনিস তারকার সঙ্গে সেখানেও ছিলেন এক ভারতীয় সেনসেশন। আর তিনি হলেন সানিয়া মির্জা। একই টুর্নামেন্টে দুই শিরোপা- যেন অবিশ্বাস্যই মার্টিনা হিঙ্গিসের কাছে। তবে জুটি হিসেবে লিয়েন্ডারকে দারুণ মানিয়ে নিয়েছেন তিনি। এ বিষয়ে সুইস সুন্দরী লিয়েন্ডার পেজ বলেন, ‘লিয়েন্ডারের সঙ্গে গত দুই বছর ধরেই দলীয় টেনিস খেলছি আমরা। এরপর থেকেই আমি দারুণ উপভোগ করছি। প্রকৃতপক্ষে এখন আমি নিজে চার ভাগের তিন ভাগই ভারতীয় হয়ে গেছি।’ হিঙ্গিসের বর্তমান বয়স ৩৪। কিন্তু এই বয়সেও দুর্দান্তভাবে লড়াই করে যাচ্ছেন তিনি। বিশেষ করে ভারতীয় টেনিস তারকা সানিয়া মির্জার সঙ্গে জুটি বাধার পর থেকেই যেন উড়তে শুরু করছেন এই সুইস তারকা। প্রমাণ করলেন বয়সের ফ্রেমে নিজেকে বেঁধে রাখতে চান না। উইম্বল্ডনের আগেই তারা তিন ডব্লিউটিএ শিরোপা নিজেদের করে নিয়েছেন। ইন্ডিয়ান ওয়েলস, মিয়ামি এবং চার্লেসটন জেতা এই জুটি মৌসুমের তৃতীয় মেজর টুর্নামেন্টেও ফেবারিট হিসেবে কোর্টে নেমে শিরোপা জিতে নিজেদের সেরা হিসেবে প্রমাণ করলেন। মার্টিনা হিঙ্গিস। ৩২ বছর বয়সেই টেনিসের ‘হল অব ফেম’ এ নিজের নাম লিখিয়ে ছিলেন। এখনও লড়াই করে যাচ্ছেন দুর্দো-প্রতাপে।

আগামী বছরেই ব্রাজিলে অনুষ্ঠিত হবে ক্রীড়াজগতের মহাযজ্ঞ অলিম্পিকের আসর। আর বর্তমানে যে গতিতে লিয়েন্ডার এগোচ্ছেন তাতে ভারতীয় এই টেনিস তারকার কাছ থেকে আরও একটা অলিম্পিক পদক আশা করছেন ভক্ত-অনুরাগীরা। টেনিস কোর্টের অভিজ্ঞ এই তারকা খেলোয়াড় কোথায় গিয়ে থামবেন সেটাও জানা নেই লিয়েন্ডার পেজের।

প্রকাশিত : ১৪ জুলাই ২০১৫

১৪/০৭/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

খেলার খবর



শীর্ষ সংবাদ: