২১ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৫ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

স্ট্রবেরি জেলো পুডিং


যা লাগবে : দুধ ১ কেজি, চিনি ১-১/২ কাপ, ডিম ৫টা, স্ট্রবেরি জেলো ১ প্যাকেট (প্যাকেটের গায়ে বানানোর নিয়ম দেয়া থাকে)

যেভাবে করবেন : দুধ জাল দিয়ে শুকিয়ে অর্ধেক করে ঠা া হলে চিনি ও ডিম তাতে দিয়ে কাঁটাচামচ দিয়ে ফেটে ভালভাবে মিশিয়ে একটি পাত্রে অল্প ঘি মেখে মিশ্রণটি ঢেলে প্রিহিটেড ইলেক্ট্রিক ওভেনে ১৮০ ডিগ্রী তাপমাত্রায় ৩৫ মিনিট বেক করতে হবে। হয়ে গেলে বের করে ঠা া করে ২ ঘণ্টা ফ্রিজে রেখে দিতে হবে। তারপর বের করে প্যাকেটের স্ট্রবেরি জেলো বানিয়ে ফ্রিজে রেখে দিতে হবে ১৫ মিনিট। এখন পুডিংটা একটা প্লেটে সাবধানে উল্টো রাখতে হবে। তারপর বানানো জেলো পুডিংয়ের উপর ঢেলে আবার ফ্রিজে রেখে সেট করতে হবে ১ ঘণ্টা। এবার বের করে পরিবেশন করতে পারেন মজাদার স্ট্রবেরি জেলো পুডিং।

কাচ্চি বিরিয়ানী

যা লাগবে : খাসির মাংস-২ কেজি, বাসমতি চাল-১ কেজি, ঘি-দেড় কাপ, আলু ভাজা-আধা কেজি, পেয়াজ (বেরেস্তার জন্য)-২৫০ গ্রাম, আদা বাটা-২ টেবিল চামচ, রসুন বাটা-২ চা চামচ, দারুচিনি গুঁড়ো-আদা চা চামচ, এলাচ গুঁড়ো-৬টি, লকদ গুঁড়ো-৪টি, জায়ফল গুঁড়ো-১টি, জয়ত্রী-গুঁড়ো ১ চিমটি, জিরা গুঁড়ো-১ টেবিল চামচ, শুকনো মরিচ গুঁড়ো-৬টি, টক দই-সোয়া কাপ, আলু বোখারা-৫টি, লবণ-পরিমাণ মতো।

যেভাবে করবেন : মাংস ধুয়ে লবণ মেখে ৩০ মিনিট রেখে আবার ধুয়ে পানি ঝরিয়ে রাখুন। পেয়াজ ঘিয়ে ভেজে তুলে ঠা-া করে মোটা গুঁড়ো করে রাখুন। আদা রসুন বাটার রস, পেয়াজ, গুঁড়ো মসলা মাংসের সঙ্গে মিশিয়ে যে পাত্রে বিরিয়ানি রান্না করবেন সে পাত্রে রাখুন। এবার মাংসের সঙ্গে দই ভালভাবে মেশান। আলু একটু ভেজে মাংসের ওপর ছড়িয়ে তার ওপর ঘি ও আলু বোখারা দিন। চাল ধুয়ে পানি ঝরিয়ে রাখুন। একটি পাত্রে ৩ কাপ ফুটান লবণ পানিতে চাল সিদ্ধ করুন। চাল আধা সিদ্ধ হলে পানি একটি পাত্রে ঝরিয়ে রাখুন। চালের ফুটানো পানি থেকে ১ কাপ পানি ও বাকি ঘি মিশিয়ে মাংসে দিয়ে আধা ঘণ্টা ঢেকে রাখুন। এরপর মাংসের ওপর চাল ছড়িয়ে ফুটানো পানি দিন। পানি যেন চালের সমান হয়। চালের ওপরে যেন না উঠে। ঢাকনা দিয়ে চুলায় মাঝারি আঁচে রাখুন। চাল সিদ্ধ হলে তাওয়ার পর পাত্র বসিয়ে দমে রাখুন। কাচ্চি বিরিয়ানি আভেনে ৩৫০ক্ক ফা: তাপে ৩ ঘণ্টা বেক করতে পারেন।

ক্রিমি পাস্তা

যা লাগবে : পাস্তা ১ প্যাকেট, সিদ্ধ ডিম ২টি, ক্যাপসিকাম কুচি ১টি, গ্রেড করা গাজর ও কাঁচাপেঁপে কুচি ১ কাপ, কাঁচামরিচ কুচি ৪টা পেঁয়াজ কিউব করা ১-২ কাপ, আদা-রসুনবাটা ১ চা-চামচ, তেল ও ঘি পরিমাণমতো, পাপড়িকা ১ চা-চামচ, অরিগেনো ১ চা-চামচ, গোলমরিচের গুঁড়া ১ চা-চামচ

সাদা ক্রিম তৈরি : চুলায় প্যান দিয়ে তাতে ১/২ কাপ পাতলা দুধ, ১ টেবিল-চামচ ময়দা, লবণ, ১ চা-চামচ চিনি, ২ টেবিল-চামচ ডানো ক্রিম, ১/২ চা-চামচ গোলমরিচের গুঁড়া ও ১ চা-চামচ মাখন দিয়ে সব একসঙ্গে কিছুক্ষণ রান্না করলেই ঘন সাদা ক্রিম তৈরি হয়ে যাবে।

যেভাবে করবেন : প্রথমে পাস্তা সিদ্ধ করে পানি ঝরিয়ে অল্প ঘি দিয়ে ভেজে রাখতে হবে। এবার প্যানে তেল গরম করে পেঁয়াজ ভেজে আদা-রসুন পানি ও লবণ দিয়ে কষিয়ে সবজি দিয়ে কিছুক্ষণ নেড়ে পাস্তা ও কাঁচামরিচ দিয়ে নেড়ে মিশাতে হবে। এখন পাপড়িকা, অরিগেনো ও গোলমরিচের গুঁড়া ছড়িয়ে ভালমতো মিশিয়ে সিদ্ধ ডিম গোল গোল করে কেটে মিশিয়ে একটি প্লেটে ঢালুন। এখন উপরে বানিয়ে রাখা সাদা ক্রিম ছড়িয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন মজাদার ক্রিমি পাস্তা।

তেহারি

যা লাগবে : পোলাওর চাল ১ কেজি, গরুর মাংস ১.১/২ কেজি, কাঁচা মরিচ ত্রিশটা, আদা ২ টে. চামচ, রসুন ১ টে. চামচ, পেঁয়াজ বাটা ১/২ কাপ, টক দই ১/২ কাপ, জয়ত্রি+জয়ফল বাটা ১ চা চামচ, শাহ্জিরা ১ চা চামচ, তেজপাতা গুঁড়া ১ চা চামচ, তেল ১ কাপ, এলাচ ৪টা, দারুচিনি ৪ টুকরা, কেওড়া পানি ১ টে. চামচ, ঘি ২ টে. চামচ।

যেভাবে করবেন : প্রথমে কড়াইতে তেল দিয়ে কাঁচা মরিচ, এলাচ, দারুচিনি, শাহ্জিরা, তেজপাতা দিয়ে ফোড়ন দিয়ে সব বাটা মসলা দিয়ে কষিয়ে গরুর মাংস দিতে হবে এবং দই দিয়ে কষাতে হবে। এখন পানি দিয়ে মাংস সিদ্ধ করতে হবে। মাংস সিদ্ধ হয়ে ঝোল শুকিয়ে এলে ১ কাপ পেঁয়াজ বেরেস্তা করে দিতে হবে। এখন মাংসের মধ্যে চালের দ্বিগুণ পানি দিয়ে দিতে হবে। লবণ দিতে হবে। পানি ফুটে উঠলে চাল ধুয়ে ঝরিয়ে দিয়ে দিতে হবে। এখন চালের পানি শুকিয়ে সমান হলে তাওয়ার ওপর হাঁড়ি বসাতে হবে এবং ১/২ ঘণ্টা দমে রাখবে। এখন কেওড়া পানি ও অল্প ঘি দিয়ে আরও ১০ মিনিট দমে রাখবে। হয়ে গেলে সালাতের সঙ্গে পরিবেশন করুন।

মেক্সিকান চিকেন ইন টেকো শেল

যা লাগবে : পানি আধা কাপ, ডিম ফোঁটানো ১টি, ময়দা ২০০ গ্রাম, কর্ন ফ্লাওয়ার ২০০ গ্রাম, লবণ আধা চা চামচ, তেল ২ টেবিল চামচ, ভাজার জন্য তেল পরিমাণমতো, চিলি সস ৩ টেবিল চামচ, মুরগির মাংসের কিমা ৪০০ গ্রাম, মাশরুম সøাইস ১০০ গ্রাম, সুইট কর্ন ৫০ গ্রাম, কাঁচা পেঁপের কিমা ১০০ গ্রাম, রসুন বাটা ১০০ গ্রাম, লালমরিচ বাটা ১ চা চামচ, কর্ন স্পাইস পাউডার ১ চা চামচ, ক্রিম ১ টেবিল চামচ।

যেভাবে করবেন : শুরুতেই পানি দিয়ে ফেটানো ডিম, ময়দা, কর্ন ফাওয়ার, লবণ, তেল ভালভাবে মিশিয়ে নিন। চুলোর ওপর কড়াই চাপিয়ে তেল ঢেলে দিন। তেল ফুটতে শুরু করলে মিশিয়ে রাখা ডিম, ও কর্ন ফাওয়ারের লেই একটি বড় চামচে নিয়ে টগবগে তেলে ছেড়ে দিন। এপিঠ ওপিঠ ভালো করে ভেজে টেকো তৈরি করে নিন। এবার তা চুলো থেকে নামিয়ে সøাইস করে কেটে রাখুন। এবার মুরগির মাংসের কিমাতে ভাল করে কর্ন সøাইস ও মরিচ বাটা মেখে ১৫ মিনিট রেখে দিন। চুলোতে একটি ফ্রাইপ্যান বসিয়ে চড়া তাপে ২ টেবিল চামচ তেলে কিমাটুকু ছেড়ে ৫ মিনিট অপেক্ষা করুন। এরপর এত চিলি সস, মাশরুম সøাইস, সুইট কর্ন, কাঁচা পেঁপে বাটা, রসুন বাটা ছেড়ে ভাল করে নাড়াচাড়া করে দু’মিনিট পর চুলো থেকে নামিয়ে প্লেটে সøাইস করে কাটা টেকোর ওপর ঢেলে দিন। এবার চামচ দিয়ে সøাইসের ভেতর কিমা দিয়ে ভরাট করে দিন। ক্রিম ছিটিয়ে তারপর পরিবেশন করুন।

চপ কোরমা

যা লাগবে : চপের মাংস ১ কেজি, দই আধা কাপ, হলুদ সামান্য, জিরা বাটা আধা চা চামচ, রসুন মিহি কুচি আধা চা চামচ, লবণ স্বাদমতো, তেল আধা কাপ, পেঁয়াজ কুচি ২ টেবিল চামচ, রসুন ১টি, আদা বাটা ১ টেবিল চামচ, এলাচ ৪টি, দারচিনি ৩ টুকরো, লবঙ্গ ২টি, মরিচ বাটা ২ চা চামচ, ধনে বাটা ১ টেবিল চামচ, লেবু ১টি।

যেভাবে করবেন : দই ১ চা চামচ, হলুদ আধা চা চামচ, জিরা মিহি কুচি রসুন ও লবণ মাংসে মেখে আন্দাজমতো পানি দিয়ে মৃদু আঁচে মাংস সিদ্ধ করুন। মাংস সিদ্ধ হলে ও পানি শুকালে নামিয়ে নিন।

কড়াইয়ে তেল গরম করে পেঁয়াজ কুচি ও গরম মসলা দিয়ে বাদামি করে ভেজে নিন। পেঁয়াজ বাদামি রঙ ধরলে বাটা মসলা (আদা-রসুন বাটাসহ) দিয়ে মৃদু আঁচে কিছুক্ষণ ভেজে মাংস দিয়ে কষান। মাঝে মাঝে নেড়ে দিন। ২ চা চামচ চিনি দিয়ে কিছুক্ষণ কষিয়ে লেবুর রস দিন। তেলের ওপর উঠলে নামিয়ে নিন।

মোরগ মোসাল্লাম

যা লাগবে : মোরগ-১টি, রসুন বাটা-১চা চামচ, আদা বাটা ১ টেবিল চামচ, ধনেবাটা-১ চা চামচ, পোস্তদানা বাটা-২ চা চামচ, চিনি-স্বাদমতো, টক দই-১ কাপ, ঘি-আধা কাপ, দারুচিনি-২ টুকরো, এলাচ-৪টি, পেঁয়াজ কাটা-২ টেবিল চামচ, মাওয়া-২ টেবিল চামচ, পেস্তা-৮টি, বাদাম-৮টি, কিশমিশ-১ টেবিল চামচ, লবণ-আন্দাজ মতো।

যেভাবে করবেন: মোরগ পরিষ্কার করুন। (আস্ত থাকবে)। গলার হাড় কেটে রাখুন। কাটা চামচ দিয়ে মোরগ ভালভাবে কেচে নিন। দু পা এক সঙ্গে সুতা দিয়ে বেঁধে নিন। বাটা মসলা, লবণ, দই, চিনি এবং ঘি দিয়ে মাংস ১ ঘণ্টা ভিজিয়ে রাখুন। এবার দারুচিনি এলাচ মাংসে দিয়ে ঢেকে মৃদু আঁচে রান্না করুন। মোরগ সিদ্ধ হলে পেঁয়াজ বেরেস্তা মাংসে দিন। বেকিং ট্রেতে মোরগ রেখে ওপরে মাওয়া পেস্তা বাদাম কুচি, কিশমিশ ছড়িয়ে আভেনে ১৫ মিনিট বেক করুন।

মাংসের কোর্মা (খাসি)

যা লাগবে : মাংস-২ কেজি, ঘি-দেড় কাপ, টক দই-১০০ গ্রাম, পেঁয়াজ বাটা-১ কাপ, রসুন বাটা-১০ কোয়া, মরিচ গুঁড়ো-১ চা চামচ, আদা-৫০ গ্রাম (বাটা), গরম মসলা-পরিমাণ মতো, চিনি-সামান্য, লবণ-স্বাদমতো, লেবুর রস-১ টেবিল চামচ।

যেভাবে করবেন : শির মাংস হলে ভাল হয়। মাংস বড় টুকরো করে কেটে ধুয়ে এতে টক দই, রসুন বাটা, আদা বাটা, পেঁয়াজ বাটা, মরিচ বাটা ও গরম মসলা, চিনি ও লেবুর রস মিশিয়ে ঘণ্টাখানেক রাখুন। কড়াইতে অর্ধেক ঘি গরম করে মাংস দিয়ে নেড়েচেড়ে ঢেকে দিন। মাংসে পানি দিতে হবে না। মাংস থেকে যে পানি বের হবে তাতেই মাংস সিদ্ধ হয়ে যাবে। কিছুক্ষণ পর পর ঢাকনা খুলে মাংস নেড়ে দিন। পানি শুকিয়ে এলে বাকি ঘি দিয়ে একটু কষিয়ে নামিয়ে নিন।

দিলশাহী কাবাব

যা লাগবে : গরুর মাংসের কিমা ১-২ কেজি আদা-রসুনবাটা ২ চা-চামচ, কাবাব চিনি সিকি চা-চামচ, গোলমরিচের গুঁড়া ১ চা-চামচ, টালা শুকনামরিচ গুঁড়া ১-২ চা-চামচ জয়ফল জয়ত্রি, এলাচ দারচিনি গুঁড়া ১ চা-চামচ, কাজু বাদাম আধভাংগা ১ টেবিল-চামচ, পেঁয়াজ বেরেস্তা ৩ টেবিল চামচ, লেবুর রস ১ চা-চামচ, চিনি ১-২ চা-চামচ, সুজি ২ টেবিল চামচ, ডিম ২টা তেল পরিমাণমতো টোস্টবিস্কিটের গুঁড়া ১ টেবিল-চামচ।

যেভাবে করবেন : তেল বাদে সব উপকরণ ভালকরে মেখে ২ ঘণ্টা রেখে দিন। এবার পরিমাণমতো মিশ্রণ নিয়ে হার্ট আকৃতি করে কাবাব বানিয়ে প্যানে তেল গরম করে ডুবোতেলে বাদামি করে ভেজে তুলে নিন। পোলাও কিংবা ভাতের সঙ্গে পরিবেশন করুন মজাদার দিলশাহী কাবাব।

খাসির ঝাল রেজালা

যা লাগব : মাংস-৫ কেজি, দই-আধা কেজি, ঘি-আধা কেজি, পেয়াজ-পৌনে এক কেজি, এলাচ-৪টি, দারুচিনি-৫ টুকরো, লবঙ্গ-৪টি, আদা বাটা ১ টেবিল চামচ, রসুন বাটা-১চা চামচ, চিনি স্বাদমতো, পোস্তদানা-১ টেবিল চামচ, কিশমিশ-১ টেবিল চামচ, কাঁচামরিচ-১২৫ গ্রাম, দুধ-আধা লিটার, আলু বোখারা-৫টি, জাফরান-আধা চা চামচ (ইচ্ছা)।

যেভাবে করবেন : মাংস ধুয়ে পানি ঝরিয়ে দই দিয়ে মেখে আধা ঘণ্টা রাখুন। পেঁয়াজ টুকরো করে ঘিয়ে অল্প ভেজে গরম মসলা, আদা, রসুন দিয়ে ভেজে মাংস ঢেলে ঢাকনা দিয়ে অল্প আঁচে রান্না করুন। মাংস সিদ্ধ হয়ে ঘি ওপরে উঠলে-পোস্তদানা বাটা কিশমিশ, দুধ দিয়ে আধা ঘণ্টা দমে রাখুন। আলু বোখারা দিন।