মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ৯ আশ্বিন ১৪২৪, রবিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

জীবন থেকে নেয়া, তথ্যনির্ভর নাটক নির্মাণের চেষ্টা করি ॥ আবু রায়হান জুয়েল

প্রকাশিত : ১১ জুলাই ২০১৫

আবু রায়হান জুয়েল। নন্দিত নাট্য ও বিজ্ঞাপন নির্মাতা। তরুণ ও মেধাবী এ নির্মাতার অধিকাংশ নাটকই জনিপ্রিয় এবং প্রশংসিত হয়েছে। আগামী ঈদে তার নির্মিত দুটি নাটক প্রচার হবে। এই নির্মাতা দীর্ঘদিন ধরে কাজ করলেও অনেকটাই প্রচারের আলোয় আসেননি। তবে তিনি মনে করেন, পরবর্তী প্রজন্মের জন্য হলেও ভাল কাজের প্রচারটা জরুরী। নন্দিত এই নির্মাতার সাম্প্রতিক ব্যস্ততা নিয়ে তার সঙ্গে কথা হয়।

এবারে ঈদে আপনার পরিচালিত কয়টি নাটক প্রচার হবে?

জুয়েল : আমি এবারের ঈদে আশরাফুল চঞ্চলের রচনায় ‘তেল’ ও ‘বিলম্বিত বিরহ’ নামে দুটি নাটক নির্মাণ করেছি। এর মধ্যে ‘তেল’ নাটকটি মাছরাঙা টেলিভিশনে ঈদের দিন রাত সাড়ে ১০টায় প্রচার হবে। আর ‘বিলম্বিত বিরহে’ নাটকটি দেশ টিভিতে ঈদের তৃতীয় দিন ৭-৪৫ মিনিটে প্রচার হবে।

প্রশ্ন : আপনার নাট্য নির্মাণের শুরুটা জানতে চাই?

জুয়েল : ২০০৩ সালে বিজ্ঞাপন নির্মাতা গোলাম হায়দার কিসলু ভাইয়ের হাত ধরে মিডিয়াতে পথচলা শুরু। এরপর অমিতাভ রেজা, আবিদ মল্লিক, মাহফুজ আহমেদ, আপন হাসান, সামির আহমেদ ও ফাগুন ভাইসহ অনেকের সঙ্গে কাজ করেছি। আমার সৌভাগ্য শুরুটা ভাল হয়েছে বলে ভাল কিছু কাজ করতে পারছি। তবে আমার শুরুটা হয়েছিল মূলত বিঙ্গাপন দিয়ে। ২০০৭ সালের দিকে এ্যাডভান্সড ডেভেলপমেন্ট লিমিটেডের এঞ্জেল সিটি বিজ্ঞাপন নির্মাণের মধ্য দিয়ে শুরু হয় আমার সলো নির্মাণ। এরপর সান চিপস্, নবরতœ তেল, বিজয় রাকিন সিটিসহ আরও কিছু বিজ্ঞাপন নির্মাণ করি।

প্রশ্ন : বিজ্ঞাপন থেকে নাটকে কিভাবে এলেন?

জুয়েল : ২০১২ সালে ড. মুহাম্মদ জাফর ইকবাল স্যারের ‘সবুজ ভেলভেট’ গল্পটি আমার খুব ভাল লাগে। পড়ার পর আমার মনে হয়েছে কাজটি খুব চ্যালেঞ্জিং। তাই কজেটি করতে উদ্বুদ্ধ হই। ‘সবুজ ভেলভেট’ নাটক দিয়েই আমার নাটকের যাত্রা। যা স্যাটেলাইট চ্যানেল এনটিভিতে ঈদের বিশেষ নাটক হিসেবে প্রচার হয়েছিল। এরপর আমার পরিচালনায় ‘পাহাড়ের ছায়া পাতাদের গান’, ‘গল্পটি অন্য রকম হতেই পারতো’, ‘ফানুস’, ‘এক্সক্লুসিভ ইন্টারভিউ’ ৫টি নাটক এনটিভিতে প্রচার হয়। তাছাড়া ’পুতুল পুতুল খেলা’ ও নারী দিবসের বিশেষ টেলিফিল্ম ’নষ্ট-কষ্ট’ নামে ২টি নাটক এটিএন বাংলায় সম্প্রতি প্রচার হয়েছে।

সাম্প্রতিক ব্যস্ততা কি নিয়ে?

জুয়েল : বর্তমানে এনটিভিতে রান্নাবিষয়ক অনুষ্ঠান ‘ফুড ক্যারাভেন’ এর নির্মাণ নিয়ে ব্যস্ত আছি। অনুষ্ঠানটি প্রতি বুধবার রাত ৮-২০ মিনিটে প্রচারিত হচ্ছে।

কাজের স্বীকৃতির অভিজ্ঞতা কেমন?

জুয়েল : অভিজ্ঞতা অবশ্যই ভাল। বিভিন্ন নাটক প্রচার হওয়ার পর অনেকেই প্রশংসা করেন। ফোন করেন। খুব ভাল লাগে। বিশেষ করে আমার প্রথম নির্মিত নাটক ‘সবুজ ভেলভেট’ ২০১২ সালে মেরিল প্রথম আলো পুরস্কারে ৪টি বিভাগে মনোনয়ন পায়। তার মধ্যে চিত্রনাট্যের জন্য আজাদ আবুল কালাম ও শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী হিসেবে তারিন জাহান জুড়িবোর্ডে পুরস্কৃত হয়। এটি আমার জন্য অন্য রকম ভাল লাগার একটি বিষয়।

প্রশ্ন : আপনি কি ধরনের গল্প নিয়ে কাজ করতে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করেন?

জুয়েল : আমি আসলে জীবন থেকে নেয়া, তথ্যনির্ভর ও গল্পনির্ভর অনেকটা অফ ট্র্যাকের নাটক নিয়ে কাজ করতে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করি। দর্শকরা যাতে অনুষ্ঠান দেখে আনন্দের পাশাপাশি ম্যাসেজ পান সে ধরনেনর কাজ করার চেষ্টা করি

প্রশ্ন : আপনার আগামীর পরিকল্পনা কী?

জুয়েল : আগামী কোরবানির ঈদের বেশ কয়েকটা নাটক-টেলিফিল্ম নির্মাণের জন্য ইতোমধ্যে কাজ শুরু করে দিয়েছি। সবকিছু ঠিক থাকলে রোজার ঈদের পর পর শূটিং শুরু করব।

-সাজু আহমেদ

প্রকাশিত : ১১ জুলাই ২০১৫

১১/০৭/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


শীর্ষ সংবাদ: