মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১১ আশ্বিন ১৪২৪, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

‘জিপি মিউজিক প্লাটফর্ম’-এর যাত্রা শুরু সঙ্গীতাঙ্গনে বইছে সুবাতাস

প্রকাশিত : ১১ জুলাই ২০১৫

গৌতম পাণ্ডে ॥ ঘরে বসে নিবিড় চিত্তে সিডির গান শোনার দিন বদলাচ্ছে। সিডি কিনে গান শোনার মতো সময় শ্রোতাদের কমে গেছে। অডিও ইন্ডাস্ট্রিও এখন নতুন করে শ্রোতাদের গান শোনার ব্যবস্থা করতে বদ্ধ পরিকর। সিডিতে গান শোনার পরিবর্তে মোবাইল ফোনে গান শোনানোার এক বিশেষ প্রচেষ্টা চলছে। শিল্পীরাও সরবে নতুন নতুন গান নিয়ে শ্রোতাদের মাঝে হাজির হচ্ছেন। কোন কোন গান মিউজিক ভিডিও করে ইউটিউবে দিয়ে আয়ের পথ খুঁজচ্ছেন শিল্পীরা। মোবাইল ফোন কোম্পানিগুলোও গান মুক্তি দিচ্ছে। এছাড়া ওয়েলকাম টিউন থেকেও শিল্পীরা প্রাপ্ত অর্থ থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন না। সব মিলিয়ে দেশের সঙ্গীতাঙ্গনে বইছে সুবাতাস। ‘জিপি মিউজিক প্লাটফর্ম’ নামে সম্প্রতি গান মুক্তির আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দিয়েছে গ্রামীণফোন। সঙ্গীত শিল্পকে এগিয়ে নিতে গ্রামীণ ফোন রাজধানীর এক অভিজাত হোটেলে দেশের স্বনামধন্য সঙ্গীতশিল্পীদের নিয়ে এ মিউজিক প্লাটফর্মের আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু করে। এবার ঈদ উপলক্ষে জিপি মিউজিক ১৪টি এ্যালবাম মুক্তি দেয়। এরমধ্যে রয়েছে কনক চাঁপার ‘পদ্মপুকুর’, আইয়ুব বাচ্চুর ‘জীবনের গল্প’, মিলার ‘আনসেন্সরড’, মাইলসের ‘প্রতিচ্ছবি’, ফিডব্যাকের ‘এখন’, তপুর ‘দেখা হবে বলে’, মেহরিনের ‘সেভেন’, এনামুল কবির নির্ঝরের কথায় ‘এক নির্ঝরের গান’, আসিফ ইকবালের কথায় মিশ্র এ্যালবাম ‘চলো অন্তহীন’ ও ‘আমি ছুঁয়ে দিলেই’ এবং তৌসিফের ‘আয়োজন’। এছাড়া পুরনো জনপ্রিয় গান নিয়ে প্রকাশ করা হয়েছে কয়েকটি এ্যালবাম। এগুলো হচ্ছে শুভ্র দেবের গোল্ডেন কালেকশনস, আজম খানের গোল্ডেন কালেকশনস ও আলাউদ্দিন আলীর গোল্ডেন কালেকশনস। গ্রামীণ ফোনের গ্রাহক সঁংরপ মৎধসববহ ঢ়যড়হব.পড়স সাইট থেকে তাদের পছন্দের শিল্পীদের গান ডাউনলোড করতে পারবেন। দেশের অডিওর দোকানগুলো একের পর এক বন্ধ হতে চলেছে, তবুও থেমে নেই নতুন গান তৈরি। বর্তমানে শ্রোতারা অডিওর চেয়ে ভিডিওসহ গানের প্রতি বেশি আকৃষ্ট। এবার ঈদে কণ্ঠশিল্পী হাবিব ওয়াহিদ ‘মন ঘুমায়রে’ নামের একটি গানের ভিডিও নিয়ে আসছেন। গানটির ট্রেলার দেখা গেলেও পরে এর ভিডিও পাওয়া যাবে। এ্যালবামের শিরোনামের গানটি লিখেছেন জাহিদ আহমেদ। ঈদের জন্য ‘কিছু কথা আকাশে পাঠাও’ নামে আরফিন রুমির তিনটি গানের একটি ভিডিও এ্যালবাম প্রকাশ করেছে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান সঙ্গীতা। এর গান তিনটি হলোÑ কিছু কথা আকাশে পাঠাও, নিয়ে চলো ও পরান কান্দে। এবার ঈদে আসছে ইমরানের তৃতীয় একক এ্যালবাম ‘চলতে চলতে বলতে বলতে’। দীর্ঘ পাঁচ বছর পর এবার ঈদে আসছে কাজী শুভর ‘মন পাঁজর টু’। ‘মন পাঁজর’ গানের সফলতার পর এর সিক্যুয়াল করলেন তিনি। লেজার ভিশন থেকে এবার প্রকাশিত হয়েছে বেলাল খানের দ্বিতীয় একক এ্যালবাম ‘আর একটি বার’। এর ৮টি গানের দুটি দ্বৈত গেয়েছেন সাবা ও উপমা। এ্যালবামটির পাশাপাশি নতুন তিনটি গানের মিউজিক ভিডিও দেখতে পাবেন দর্শক। এগুলো হলোÑ নিশি করি ভোর, দোজখ ও একটি বিকেল। ঈদে সুরঞ্জলি থেকে প্রকাশিত হচ্ছে কণ্ঠশিল্পী ইলিয়াসের একক এ্যালবাম ‘না বলা কথা’ ও ‘নীল নয়না’। এবার ঈদে আসছে সামিনা চৌধুরী ও কলকাতার রাঘবের দ্বৈত এ্যালবাম ‘একটা বন্ধু চাই’। কণ্ঠশিল্পী তাহসান একটিমাত্র দ্বৈত গানের ভিডিও ‘অনুভবে তুমি’ নিয়ে আসছেন এবার ঈদে। শিল্পীর সঙ্গে কণ্ঠ দিয়েছেন পূজা। শিল্পী কনক চাঁপার ‘পদ্মপুকুর’ এ্যালবামটি বাজারে আনছে লেজার ভিশন। প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান জি সিরিজ থেকে এবার ঈদ উপলক্ষে প্রকাশ হচ্ছে এক শ’ টি গানের এ্যালবাম। ভেঙ্গে পড়া অডিও বাজারে এটা একটি আশাব্যঞ্জক ঘটনা। এরমধ্যে রয়েছে মিলার একক ‘আনসেন্সরড’। বেশিরভাগ গানের কথা ও সুর করেছেন মিলা নিজেই। ঈদে আসছে প্রিন্স মাহমুদের মিশ্র এ্যালবাম ‘খেয়াল পোকা’। এতে কণ্ঠ দিয়েছেন তরুণ প্রজন্মের শিল্পীরা। এবার ঈদে প্রকাশিত হচ্ছে অবসকিউর ব্যান্ডের এ্যালবাম ‘মাঝরাতে চাঁদ ২’, এফএ সুমনের একক ‘জানরে তুই’, কিশোর পলাশের ‘দয়াল’ ও লিজার একক ‘পাগলী সুরাইয়া’। লিজার এ্যালবামটিতে দ্বৈত কণ্ঠ দিয়েছেন আরফিন রুমি ও বেলাল খান। দীর্ঘ ১৫ বছর পর এবার ঈদে আসছে পলাশ ও রিজিয়া পারভীন জুটির এ্যালবাম ‘বলব তোকে ভালবাসি’। এ্যালবামটি প্রকাশ করছে সাউন্ড টেক। তিশমার ভিডিও এ্যালবাম আসছে এবার ঈদে। প্রকাশের অপেক্ষায় আছে সারোয়ারের একক ‘ফাগুনের আগুনে’। তানভীর তারেক প্রকাশ করেছেন মিউজিক ভিডিও ‘ঝুম বরষায়’। এতে মডেল হয়েছেন পিয়া। সম্প্রতি প্রকাশিত হয়েছে বেলাল খানের নতুন গানের মিউজিক ভিডিও ‘নিশি করি ভোর’। আরফিন রুমির কথা ও সুরে এবার ঈদে আসছে কর্ণিয়ার নতুন গানের ভিডিও ‘হিরো’। এছাড়াও এবার ঈদের জন্য প্রকাশিত হচ্ছে খন্দকার বাপ্পির মিউজিক ভিডিও ‘মার খেয়েছি রিটার্নস’, খালেদ মুন্নার একক এ্যালবাম, জুয়েল মোর্শেদের ‘কী উপায়’, হৃদয় খানের ‘আজও একই’সহ বেশ কিছু এ্যালবাম। অনেকের মনে নানা প্রশ্ন জাগে। এখন গানের এ্যালবামের সময় খুব মন্দা। শিল্পী, সুরকার, গীতিকার ও প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান খুব দুঃসময়ের মধ্যে কাটাচ্ছে। তবুও সাহস নিয়ে বাংলা সঙ্গীতের প্রতি শ্রোতাদের মনোযোগ আকর্ষণের বিভিন্ন প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন সংশ্লিষ্টরা। বাংলা সঙ্গীতের সোনালি সূর্য আবারও উদিত হবে মনে করছেন সবাই।

প্রকাশিত : ১১ জুলাই ২০১৫

১১/০৭/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


শীর্ষ সংবাদ: