মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২২ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ৭ আশ্বিন ১৪২৪, শুক্রবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

ব্রাজিলের কোচ হতে চেয়েছিলেন গার্ডিওলা!

প্রকাশিত : ৯ জুলাই ২০১৫
  • জার্মানির কাছে বিশ্বকাপে বিধ্বস্ত হওয়ার বছরপূর্তিতে দুঙ্গা বললেন, কামব্যাক সহজ নয়

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ তাহলে গুঞ্জনটা ঠিকই ছিল! ২০১২ সালে বার্সিলোনার কোচের দায়িত্ব ছেড়ে ছুটিতে যান পেপ গার্ডিওলা। তখন বেশ জোরেশোরেই উচ্চারিত হয়েছিল ব্রাজিল জাতীয় দলের কোচ হতে যাচ্ছেন তিনি। ওই বছরের নবেম্বরে বিষয়টি নিয়ে বেশ হৈ চৈ হয়েছিল। শেষ পর্যন্ত ব্রাজিল আর বিদেশী কোচ নিয়োগ দেয়নি। কারণটা প্রায় তিন বছর পর স্পষ্ট হয়েছে। ব্রাজিলের তারকা ডিফেন্ডার দানি আলভেজ জানিয়েছেন, গার্ডিওলা আগ্রহী ছিলেন, কিন্তু সিবিএফ এটা চায়নি। ক্লাব ফুটবলে বার্সিলোনার হয়ে প্রায় সব সাফল্যই পেয়েছেন। সেখান থেকে জার্মান কোচ বেয়ার্ন মিউনিখের হয়েও পাচ্ছেন প্রত্যাশিত সাফল্য। কিন্তু জাতীয় এখন পর্যন্ত কোন দেশের কোচের দায়িত্ব পালন করতে পারেননি ৪৪ বছর বয়সী গার্ডিওলা। এ কারণেই হয়ত তিনি ব্রাজিলের কোচ হয়ে বিশ্বচ্যাম্পিয়নের স্বাদ পেতে চেয়েছিলেন। কিন্তু তার ইচ্ছা পূরণে আগ্রহ দেখায়নি ব্রাজিল ফুটবল কনফেডারেশন (সিবিএফ)। এমনটি জানিয়েছেন আলভেজ। ব্রাজিলের এই ফুলব্যাক দীর্ঘদিন বার্সিলোনায় খেলেছেন গার্ডিওলার অধীনে। ক্লাব ফুটবলে পরিবর্তন এনে দেয়া এই স্প্যানিশ কোচ সেলেসাওদের দায়িত্ব নিলে বিশ্বকাপের গল্পটা অন্যরকম হতে পারত বলে মনে করেন আলভেজ। ২০১২ সালে মানো মেনেজেসকে ছাঁটাই করে নতুন কোচ খুঁজ ছিল ব্রাজিল। গার্ডিওলা তখন বার্সা ছেড়ে ছুটিতে। এ সময় জোরেশোরে শোনা গিয়েছিল নেইমারদের কোচ হচ্ছেন তিনি। কিন্তু তা হয়নি, শেষ পর্যন্ত ব্রাজিল বেছে নেয় ২০০২ বিশ্বকাপজয়ী কোচ লুইস ফিলিপ সোলারিকে। এ প্রসঙ্গে আলভেজ বলেন, বিশ্বকাপের আগে পেপ (গার্ডিওলা) ব্রাজিল দলের দায়িত্ব নিতে চেয়েছিল। কিন্তু ওরা রাজি হয়নি। পেপ বলেছিল ও আমাদের বিশ্বসেরা দল বানাবে। ওর একটা সুনির্দিষ্ট পরিকল্পনাও ছিল। কিন্তু ওরা তাকে চায়নি। আলভেজ ওরা বলতে সিবিএফের কর্মকর্তাদের বুঝিয়েছেন। ব্রাজিল কখনই নিজ দেশের বাইরে থেকে কোচ নিয়োগ দেয়নি। আর ইউরোপের কেউ এই দলের দায়িত্ব নেবে এটা ভাবাটাও কল্পনাতীত। আলভেজের ধারণা, প্রথাগত এই ধারণা থেকে বেরিয়ে আসতে পারেনি বলেই সিবিএফ গার্ডিওলাকে কোচ বানায়নি। এ বিষয়ে ক্ষোভ জানিয়ে আলভেজ বলেন, ওরা নিশ্চিত ছিল না ব্রাজিলের সাধারণ মানুষ পেপকে কোচ হিসেবে বরণ করে নিত কি না। কিন্তু আপনি যদি বিশ্বসেরাকেই মেনে নিতে না পারেন, যে কিনা আপনার দলটাকে দারুণ একটা দলে পরিণত করার সামর্থ্য রাখে, তাহলে বলতেই হবে, আপনি ব্রাজিল দলের ভাল চান না। আলভেজ আরও বলেন, পেপ বিশ্বের সেরা কোচ। ও ফুটবলে বৈপ্লবিক পরিবর্তন এনে দিয়েছে। আর তাকে আমরা পেতে চলেছিলাম, এ জন্য সে রকম অর্থও খরচ হতো না। ও বলেছিল, জাতীয় দলকে সাফল্য এনে দিলেই কেবল অর্থ নেবে। এ রকম সুযোগ আপনি কিভাবে হাতছাড়া করেন? ২০১৪ সালের ৮ জুলাই। ব্রাজিলের ফুটবলের ইতিহাসের অন্যতম কালো দিন।

প্রকাশিত : ৯ জুলাই ২০১৫

০৯/০৭/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


শীর্ষ সংবাদ: