মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২১ আগস্ট ২০১৭, ৬ ভাদ্র ১৪২৪, সোমবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

কর্মস্থলে যে কোন মূল্যে ডাক্তারদের উপস্থিতি নিশ্চিত করার নির্দেশ স্বাস্থ্যম

প্রকাশিত : ৮ জুলাই ২০১৫, ০১:৩৮ এ. এম.

স্টাফ রিপোর্টার ॥ কর্মস্থলে চিকিৎসকদের উপস্থিতি যে কোন মূল্যে নিশ্চিত করতে সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। তিনি বলেন, চিকিৎসকদের উপস্থিতি নিশ্চিত করতে প্রয়োজনে মনিটরিং ব্যবস্থা আরও জোরদার করতে হবে। অধিকাংশ ক্ষেত্রে গ্রামীণ পর্যায়ে চিকিৎসকদের উপস্থিতি নিশ্চিত করা গেলেও বেশ কিছু স্থানে কর্তব্যের অবহেলার বিষয়টি কোনভাবেই কাম্য নয়। পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন পুঙ্খানুুপুঙ্খভাবে পর্যালোচনা করে অনুপস্থিত চিকিৎসকদের বিরুদ্ধে সুপারিশ অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

মঙ্গলবার মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে হাসপাতাল পরিদর্শন সংক্রান্ত বিগত ছয় মাসের প্রতিবেদন পর্যালোচনা সভায় সভাপতির বক্তৃতাকালে স্বাস্থ্যমন্ত্রী এই নির্দেশ প্রদান করেন। বৈঠকে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ সচিব সৈয়দ মন্জুুরুল ইসলাম, স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডাঃ দীন মোঃ নূরুল হক, পরিবার পরিকল্পনা অধিদফতরের মহাপরিচালক নূর হোসেন তালুকদারসহ মন্ত্রণালয় ও অধিদফতরের উর্ধতন কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। দেশে প্রথমবারের মতো হাসপাতাল পরিদর্শন প্রতিবেদন নিয়ে এ ধরনের উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক অনুষ্ঠিত হলো। সভার গত ছয় মাসের ১৮ জন কর্মকর্তার ২৩টি প্রতিবেদন নিয়ে পর্যালোচনা করা হয়।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, হাসপাতাল ব্যবস্থাপনার সার্বিক মান এখনও আশানুরূপ পর্যায়ে আনতে না পারা দুঃখজনক। এজন্য চিকিৎসকদের উপস্থিতি, হাসপাতাল স্থাপনা সংস্কার, যন্ত্রপাতির যথাযথ রক্ষণাবেক্ষণসহ সকল বিষয়ের প্রতি সর্বোচ্চ নজরদারি বাড়াতে হবে। সকল প্রতিবেদনের সুপারিশ অনুযায়ী ভবন সংস্কার, হাসপাতালের শয্যা ও পরিবেশ উন্নয়ন এবং যন্ত্রপাতি রক্ষণাবেক্ষণে শীঘ্রই প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়ার আশ্বাস দেন মন্ত্রী। উপজেলা পর্যায়ে চিকিৎসকদের থাকার জন্য প্রয়োজনীয় পরিবেশ নিশ্চিত করারও পদক্ষেপ নেয়া হবে বলে জানান তিনি। এ সময় স্বাস্থ্যমন্ত্রী সারাদেশে সকল হাসপাতালের চিকিৎসক উপস্থিতিসহ সামগ্রিক ব্যবস্থাপনা নিয়ে নিয়মিত বৈঠক করার জন্য স্বাস্থ্যপ্রতিমন্ত্রীর ওপর দায়িত্ব প্রদান করেন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, মন্ত্রণালয় এবং বিভাগ ও জেলা পর্যায়ের যেসব কর্মকর্তা পরিদর্শনে গাফিলতি করবেন তাঁদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়া হবে। ভবিষ্যতে পরিদর্শনের জন্য উপযুক্ত দক্ষ ব্যক্তিকে নিয়োগ দেয়া হবে। সভায় হাসপাতালের সেবার মান বাড়ানোর লক্ষ্যে আগামীতে সকল বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক এবং জেলার সিভিল সার্জনসহ উর্র্ধতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করার সিদ্ধান্ত হয়।

বর্তমানে মন্ত্রণালয়ের সকল কর্মকর্তাকে নির্দিষ্ট স্বাস্থ্যসেবা প্রতিষ্ঠান সরেজমিনে পরিদর্শন করে প্রতি দুই মাসে একবার প্রতিবেদন দাখিলের জন্য দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। এছাড়াও ‘হ্যালো ডক্টরস’ কর্মসূচীর আওতায় তাঁদের ওই সকল হাসপাতালে ফোন করে চিকিৎসকদের উপস্থিত মনিটরিং করে প্রতি মাসে দুইবার প্রতিবেদন জমা দেয়ার জন্য আদেশ জারি করা হয়েছে। হাসপাতালের যন্ত্রপাতির সুষ্ঠু রক্ষণাবেক্ষণের জন্যও মন্ত্রণালয় ও অধিদফতরের পৃথক পরিদর্শন দল বর্তমানে দেশব্যাপী কাজ করছে।

স্বাস্থ্যসেবায় চিকিৎসকদের আরও ভূমিকা রাখতে হবে

স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, দরিদ্রদের স্বাস্থ্যসেবায় চিকিৎসকদের আরও তৎপর থাকতে হবে। দেশের অর্থনীতির উত্তরোত্তর উন্নতি হচ্ছে। পাশাপাশি স্বাস্থ্য খাতের অর্জনও আজ আন্তর্জাতিকভাবে প্রশংসিত। সম্মিলিতভাবে কাজ করে উন্নয়নের এই ধারা অব্যাহত রাখতে হবে।

মঙ্গলবার রাজধানীর অফিসার্স ক্লাবে ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজের প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের দোয়া মাহফিল ও ইফতার পার্টিতে প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্বাস্থ্যমন্ত্রী এসব কথা বলেন। বঙ্গবন্ধু মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডাঃ কামরুল হাসান খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত ইফতার পার্টিতে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক বদিউজ্জামান ভূইয়া ডাবলু, স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক ডাঃ দীন মোঃ নুরুল হক, বাংলাদেশ মেডিক্যাল এ্যাসোসিয়েশনের মহাসচিব অধ্যাপক ডাঃ ইকবাল আর্সলান, সোহরাওয়ার্দী মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালের পরিচালক অধ্যাপক ডাঃ উত্তম কুমার বড়ুয়া।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, জাতিসংঘের সদস্যভুক্ত দেশগুলোর মধ্যে স্বাস্থ্য খাতে সবচেয়ে সাফল্য দেখিয়েছে বাংলাদেশ। এজন্য জাতিসংঘের বিশেষ সম্মাননা পান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর আগে মাতৃ ও শিশুমৃত্যু রোধে অবদান রাখায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ‘সাউথ সাউথ’ এ্যাওয়ার্ড লাভ করেন বলে জানান স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম।

প্রকাশিত : ৮ জুলাই ২০১৫, ০১:৩৮ এ. এম.

০৮/০৭/২০১৫ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


শীর্ষ সংবাদ: