২১ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৫ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

ভেজাল খাদ্যের বিরুদ্ধে যুদ্ধ তরুণদের হাতে


সারাদেশে ভেজাল খাদ্য নিয়ে আতঙ্কিত মানুষ। কোন কিছু ক্রয়ের পূর্বেই মনে সন্দেহ হয়, পণ্যটি ক্ষতিকর নাকি মানসম্মত। এ সমস্যা সমাধানে সারাদেশে ভ্রাম্যমাণ আদালতের দৌড়-ঝাঁপের শেষ নেই। ম্যাজিস্ট্রেটের উপস্থিতিতে ভেজাল খাদ্য নষ্ট ও ধ্বংস করা, নগদ অর্থ জরিমানা করা, এমনকি কোন কোন প্রতিষ্ঠানকে সিলগালা করে বন্ধ করে দেয়া। ভেজাল বন্ধে এত আয়োজন। কিন্তু কোন আয়োজনেও কাজ হচ্ছে না। বরং প্রতিনিয়ত ভেজাল খাদ্য পাওয়া যাচ্ছেই। তবে জনসাধারণের ইচ্ছা ও মানসিকতার মাধ্যমেই এ অবস্থা থেকে পরিত্রাণ পাওয়া সম্ভব। ভেজালযুক্ত খাদ্য পরিহার করে ভেজালমুক্ত খাদ্য গ্রহণ করতে হবে। ভেজালের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গরে তুলতে হবে। এজন্য দেশের মানুষকে এগিয়ে আসতে হবে বলে জানান ফুড কার্ট ‘ঢাকাইয়া টুইস্ট’ এর অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয় হতে বিবিএ অধ্যয়নকারী রবিন। তিনি জানান, “সারাদেশে ভেজাল খাদ্যের বিরুদ্ধে অভিযানেও অবস্থার কোন পরিবর্তন হচ্ছে না। তাই আমরা তিন যুবক মিলে সিদ্ধান্ত নেই, পবিত্র রমজান মাসে স্বাস্থ্যসম্মত ইফতার পরিবেশনের মাধ্যমে ভেজাল খাদ্যের বিরুদ্ধে যুদ্ধ শুরু করব। পরিকল্পনা অনুসারেই প্রথম রোজা থেকেই পুরান ঢাকার চকবাজারে ‘ঢাকাইয়া টুইস্ট’ নামে ফুড কার্টের মাধ্যমে পরিচ্ছন্ন খাদ্য পরিবেশন শুরু করি।” পুরান ঢাকার খাবারের প্রতি ভোজন রসিকদের আকৃষ্ট করা ও স্বাস্থ্যসম্মত ভেজাল মুক্ত খাবার পরিবেশন করার উদ্দেশ্য নিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে এ ফুড কার্টটি। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিবিএ, এমবিএ শেষ করে এই ব্যবসায় পদার্পণের কারণ জানতে চাইলে ঢাকাইয়া টুইস্টের আরেক উদ্যোক্তা ইকরাম আল মুবাশশির বলেন, “আসলে প্রতিটি কাজই ভাল, তবে সেই কাজে থাকতে হবে সৎ উদ্দেশ্য। তাই আমরা দেশের মানুষের স্বাস্থ্যের কথা মাথায় রেখেই এ ব্যবসায় নেমেছি। এটি শুধু ব্যবসাই নয়, ভেজালমুক্ত স্বাস্থ্যসম্মত খাদ্য পরিবেশন করা সমাজ সেবাও বটে।” পুরান ঢাকার সেই আমল থেকে এখন অবদি একই খাবার পরিবেশন করায় ক্রেতারা কিছুটা হলেও মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছে। তাই খাবারের তালিকায় কিছুটা নতুনত্ব ও নির্ভেজাল খাবার পরিবেশন করে আগের ক্রেতাদের সঙ্গে আরও নতুন ক্রেতা তৈরি করাই ফুড কার্ট ঢাকাইয়া টুইস্টের লক্ষ্য। প্রতিষ্ঠানটির ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা সম্পর্কে আরেক উদ্যোগতা মোঃ সিজান বলেন, “আমরা সারাদেশেই ঢাকাইয়া টুইস্টের মাধ্যমে ভেজাল মুক্ত খাদ্য পরিবেশন করতে চাই। পুরান ঢাকার রাজকীয় স্বাদের সঙ্গে নতুন ঢাকার আধুনিকতার সংমিশ্রণ করে ভোজন রসিকদের তৃপ্তি মেটাবো।” ফুড কার্টের চীফ সেফ নাবিব মির্জার বেশ কিছু মজাদার মানসম্পন্ন খাদ্যের আইটেম ক্রেতাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে। তার মধ্যে চিকেন রোল, ঢাকাইয়া চিজ ফান, চিকেন বল, ঢাকাইয়া ডোনাট, কিমা চপ, ঢাকাইয়া সাব-স্যান্ডউইচ অন্যতম। এসকল মজাদার ইফতার সামগ্রী পুরান ঢাকার চকবাজার এসে সংগ্রহ করা যাবে। অবশ্য ঢাকার বিভিন্ন প্রান্তের ক্রেতাদের সুবিধার্থে ফুড কার্ট ‘ঢাকাইয়া টুইস্ট’ হোম ডেলিভারি সুবিধা প্রদান করছে। প্রয়োজনে যোগাযোগ করতে হবে-০১৭০৭৪৮৪৮৪৮ এই নম্বরে। পুরান ঢাকার খাবারের স্বাদ সমগ্র দেশে ছড়িয়ে দিতে চান এ ফুড কার্টের তিন যুবক।

যাপিত ডেস্ক