২১ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

চলচ্চিত্র নির্মাণে কোন কার্পণ্য করিনি ॥ তন্ময় তানসেন


জনপ্রিয় ব্যান্ড ভাইকিংস দলের ভোকাল তন্ময় তানসেন। আবির্ভূত হলেন চিত্র পরিচালক হয়ে। গতানুগতিক ধারার বাইরে নিজস্ব স্টাইলে প্রথমবারের মতো নির্মাণ করলেন চলচ্চিত্র ‘পদ্ম পাতার জল’। সেন্সর বোর্ড থেকে বিনা কর্তনে ছাড়পত্র লাভ করা এ চলচ্চিত্রটি মুক্তি পাচ্ছে এবার ঈদুল ফিতরে। চলচ্চিত্রটি সম্পর্কে কথা হয় তরুণ এ নির্মাতার সঙ্গে।

আপনার প্রথম চলচ্চিত্র মুক্তি পেতে যাচ্ছে কেমন লাগছে?

তন্ময়: এক বিশেষ অনুভূতি কাজ করছে। বলে বোঝানো মুশকিল। আমার লালিত স্বপ্ন বাস্তবে রূপ নিতে যাচ্ছে। মুসলমানদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব ঈদ। এ সময় সবাই চায় পরিবার-পরিজন নিয়ে সিনেমা হলে ছবি দেখতে, আনন্দ করতে। এমনই এক সময়ে আমার ছবিটি মুক্তি পাচ্ছে। সত্যিই খুব ভাল লাগছে।

‘পদ্ম পাতার জল’ চলচ্চিত্রটি কেমন?

তন্ময়: সম্পূর্ণ প্রেমের একটি গল্প। মূলত একজন বাইজির সঙ্গে এক কবির প্রেমের কাহিনী এর উপজীব্য। নির্মিত হয়েছে ট্রাইপড স্টুডিওর ব্যানারে। সিনেমাটির কাহিনী, চিত্রনাট্য ও সংলাপ লিখেছেন লতিফুল ইসলাম শিবলী। চলচ্চিত্রটির অন্যতম প্রযোজক শেখ আসিফুর রহমান, রাজীব রায়হান ও রাজু আহমেদ এবং কার্যনির্বাহী প্রযোজক গাজী মাহবুব। প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন- ইমন ও বিদ্যা সিন্হা সাহা মিম। এছাড়ও অভিনয় করেছেন তারিক আনাম খান, নিমা রহমান, অমিত হাসানসহ অনেকে। এতে মোট গান রয়েছে ৬টি। গানগুলোর সুর করেছেন আহমেদ ইমতিয়াজ বুলবুল। গানগুলোতে কণ্ঠ দিয়েছেন অর্ণব, কনা, আসিফ আকবর, ন্যানসি, অদিত, পড়শী, অন্বেষা দত্ত, এলিটা করিম, শোয়েব ও শিরোনামহীনের তুহিন।

চলচ্চিত্রটি কি গতানুগতিক ধারার বাইরে নির্মিত?

তন্ময় : আমি সবসময় এন্টারটেইনমেন্টে বিশ্বাসী। দর্শক পুরোপুরি এক আনন্দ অনুভব করবে এতে। পরিবার নিয়ে হলে বসে থেকে দেখার মতো একটি চলচ্চিত্র। আমার বিশ্বাস, দর্শক এক ভাল বোধ নিয়ে আড়াই ঘণ্টা বসে থেকে সিনেমাটি দেখবে।

চলচ্চিত্রটির মুক্তি কবে?

তন্ময় : আমরা এখনও মুক্তির তারিখ ঠিক করিনি। চলচ্চিত্রটি এই মুহূর্তে বম্বে রয়েছে। সাউন্ড ডিজাইন ও কালার গ্রেডিংয়ের কাজ চলছে। আমি সেখানে গিয়ে সব চেক করে খুব শীঘ্রই নিয়ে আসব।

কতগুলো হলে মুক্তি দেয়ার ইচ্ছা আছে?

তন্ময় : এই মুহূর্তে পুরোপুরি বলতে পারছি না। এ ব্যাপারে কাজ চলছে। আশা করছি ত্রিশ থেকে পঁয়ত্রিশটি হলে মুক্তি দেয়া হবে। হলের সংখ্যা বাড়তেও পারে।

চলচ্চিত্রটি নিয়ে কেমন আশাবাদী?

তন্ময় : চলচ্চিত্রটি নির্মাণে কোন অংশে কার্পণ্য করিনি। চেষ্টা করেছি দর্শককে আকর্ষণ করতে। যদি তাদের ভালো লাগাতে পারি, বুঝব পজেটিভ, আর যদি তা না পারি বুঝব নেগেটিভ। তবে আমি সব সময় আশাবাদী।

বাংলাদেশের চলচ্চিত্রের বর্তমান প্রেক্ষাপট সম্পর্কে আপনার বক্তব্য কি?

তন্ময়: ‘পদ্ম পাতার জল’ আমার প্রথম ছবি। সে হিসেবে এ অঙ্গনে আমি এক নতুন মানুষ। চলচ্চিত্র নিয়ে জ্ঞানগর্ব কিছু বলার যোগ্যতা আমার এখনও হয়নি। আর আমার মতো মানুষের এটা বলাও ঠিক নয়। আগে আমার ছবি মানুষ দেখুক, তাদের গ্রহণযোগ্যতার ওপর নির্ভর করছে আমার পরবর্তী পদক্ষেপ। তখন না হয় এ সম্পর্কে কিছু বলা যাবে।

আপনার সাম্প্রতিক ব্যস্ততা কেমন?

তন্ময়: ঈদের কাজ নিয়ে খুবই ব্যস্ত সময় যাচ্ছে। বিভিন্ন টিভি চ্যানেলে আমাদের ব্যান্ড ভাইকিংসের প্রোগ্রাম রয়েছে এবার ঈদ উপলক্ষে। সেগুলোর রেকর্ডিংসহ রিহার্সালের কাজ নিয়ে ব্যস্ত থাকতে হচ্ছে। এছাড়া এবার ঈদের পরপরই ‘রান আউট’ চলচ্চিত্রের কাজ সম্পন্ন করব।

Ñগৌতম পা-ে