২২ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

আমতলীতে গৃহবধুর আত্মহত্যা


নিজস্ব সংবাদদাতা, আমতলী (বরগুনা) ॥ বরগুনার আমতলী পৌরসভার বকুলনেছা মহিলা কলেজ সড়কের বাসায় শনিবার রাতে আমতলী ভুমি অফিসের সার্ভেয়ার আবুল কালাম আজাদের স্ত্রী এক সন্তানের জননী ঝুমুর আখতার (৩০) ফ্যানের সাথে ওড়না পেচিয়ে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, আমতলী ভুমি অফিসের সার্ভেয়ার আবুল কালাম আজাদের স্ত্রী ঝুমুর আখতার শনিবার রাতে পারিবারিক বিষয় নিয়ে কথা কাটাকাটি হয়। কথা কাটাকাটি শেষে উভয়ই বেড রুমে ঘুমিয়ে পরে। ভোর রাতে সেহরী খাওয়ার সময় স্বামী আবুল কালাম আজাদ ঘুম থেকে জেগে স্ত্রীকে না পেয়ে খুঁজতে থাকে। পরে ঘরের ড্রইং রুমের ফ্যানের সাথে ওড়না পেচিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখে পুলিশে খরব দেয়। রবিবার সকালে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে বরগুনা মর্গে পাঠিয়েছে। ঝুমুরের সাফিন নামের দু’ বছরের এক পুত্র সন্তান রয়েছে। আবুল কালাম আজাদের বাড়ী পটুয়াখালী জেলার বাউফল উপজেলার রাজনগর গ্রামে।

স্বামী আবুল কালাম জানান পারিবারিক বিষয় নিয়ে ওই রাতে আমার সাথে সামান্য কথা কাটাকাটি হয়। পরে উভয়ই একাত্রে ঘুমিয়ে পরি। সেহরী খাওয়ার সময় ঘুম থেকে উঠে দেখি ঝুমুর ড্রইং রুমের ফ্যানের সাথে ঝুলছে।

প্রতিবেশীরা জানান ঝুমুর এ বাড়ীতে আসার পর থেকে একা থাকতে পচন্দ করতো। কারো সাথে কথা বলতো না। আমতলী থানার এস আই শহীদুল ইসলাম জানান ঝুমুরের শরীরে কোন আঘাতের চিহৃ নেই। তার ধারনা ঝুমুর আত্মহত্যা করেছে।

আমতলী থানার ভারপ্রাপ্ত পুলিশ কর্মকর্তা সুকুমার রায় জানান লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য বরগুনা মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়না তদন্ত রিপোর্ট আসার পরে বলা যাবে ঝুমুর আতœহত্যা করেছে না তাকে হত্যা করা হয়েছে।