২২ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

আফগান সুপ্রিম কোর্টে প্রথম নারী বিচারক নিয়োগ


অনলাইন ডেস্ক ॥ আফগান প্রেসিডেন্ট আশরাফ ঘানি মঙ্গলবার দেশের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো সুপ্রিম কোর্টে একজন নারী বিচারক নিয়োগ দিয়েছেন। নজিরবিহীন এই ঘটনায় দেশটির ইসলামপন্থী রক্ষণশীল মহলে ক্ষোভের সঞ্চার হয়েছে।

আফগান নারী বিচারক সমিতির প্রধান ও দেশটির কিশোর আদালতের সাবেক বিচারক আনিসা রসুলি দেশটির সুপ্রিম কোর্টের নয় সদস্যবিশিষ্ট বেঞ্চে প্রথমবারের মতো একমাত্র নারী সদস্য হিসেবে মনোনীত হলেন।

এ মাসের প্রথম দিকে কিছু রক্ষণশীল ইসলামপন্থীর বিরোধিতার কারণে তার নিয়োগের ঘোষণা বিলম্বিত হয়।

বেশকিছু কূটনীতিক ও নারী অধিকার কর্মী এক সমাবেশে প্রেসিডেন্ট আশরাফ ঘানি বলেন, গর্বের সঙ্গে ঘোষণা করছি যে, আমি প্রথমবারের মতা সুপ্রিম কোর্টে একজন নারীকে মনোনীত করেছি।’

তিনি বলেন, ‘সুপ্রিম কোর্টে একজন নারী বিচারক নিয়োগ করা হলে তা দেশের বিচার ব্যবস্থা পাল্টে দেয় না। এ কাজে আমাদের পক্ষে আলেম সমাজের পূর্ণ সমর্থন রয়েছে।’

তবে এ নিয়োগে পার্লামেন্টের অনুমোদন লাগবে।

প্রেসিডেন্ট আশরাফ ঘানি ও তার প্রধান নির্বাহী আব্দুল্লাহ আব্দুল্লাহ গত সেপ্টেম্বরে দায়িত্ব গ্রহণের পর থেকে উচ্চপদে অধিকসংখ্যক নারী নিয়োগের প্রচেষ্টা চালাচ্ছেন। এ উদ্যোগ সেই প্রচেষ্টারই অংশ।

আফগান সংবিধান অনুযায়ী সুপ্রিম কোর্টের বিচারকদের মেয়াদ নির্ধারিত দশ বছর।

গত এপ্রিলে পার্লামেন্ট সদস্যরা চার নারীসহ বেশকিছু কেবিনেট পদের জন্য ঘানির মনোনীতদের অনুমোদন দিয়েছেন।

ঘানি ইতোমধ্যে দু’জন নারী গভর্নর নিয়োগ দিয়েছেন। তার এই উদ্যোগ নারী অধিকার কর্মীদের প্রশংসা কুড়িয়েছে।

মঙ্গলবার তিনি বলেছেন, তিনি সকল পূর্ণমন্ত্রীর নারী সহকারি নিয়োগ দিতে চান। সূত্র- বাসস।