২০ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

দশ বছরের সংসার ভেঙ্গে গেল ফাতেমার


স্টাফ রিপোর্টার, বরিশাল ॥ স্বামীর পরকীয়ায় বাঁধা দেয়া এবং এক লাখ টাকা যৌতুকের দাবিতে অমানুষিক নির্যাতনের একপর্যায়ে ১০ বছরের সংসার জীবনের পরিসমাপ্তি ঘটেছে জেলার আগৈলঝাড়া উপজেলার বাগধা গ্রামের গৃহবধূ ফাতেমা বেগমের। রবিবার সকালে লিগ্যাল এইডের মাধ্যমে সালিশ বৈঠকে ফাতেমা বেগম ও আমিনুর ফকিরের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়।

জানা গেছে ২০০৫ সালের ১৫ মে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন এই দুইজন। বর্তমানে তাদের সংসারে চার বছরের একটি কন্যা সন্তান রয়েছে। ফাতেমা বেগম অভিযোগ করেন, সম্প্রতি সময়ে তার স্বামী অন্যএক নারীর সাথে পরকীয়া প্রেমে জড়িয়ে পড়ে। বিষয়টি তিনি তার শ্বাশুড়ি রূপজান বিবিকে জানালে তার স্বামী ক্ষিপ্ত হয়। একপর্যায়ে ১ লাখ টাকা যৌতুকের দাবিতে আমিনুর ও তার পরিবারের সদস্যরা ফাতেমা বেগমকে অমানুষিক নির্যাতন করে সস্তানসহ তার (ফাতেমার) বাবার বাড়িতে তাড়িয়ে দেয়। একপর্যায়ে অসহায় ফাতেমা বেগম মাদারীপুর লিগ্যাল এইডের আগৈলঝাড়া অফিসে স্বামী ও তার পরিবারের সদস্যদের বিরুদ্ধে যৌতুকের জন্য নির্যাতনের অভিযোগ এনে লিখিত আবেদন করেন। লিগ্যাল এইডের আগৈলঝাড়া উপজেলা ম্যানেজার নাজমা আক্তার জানান, ফাতেমা বেগমের আবেদনের প্রেক্ষিতে স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের উপস্থিতিতে রবিবার সকালে এক সালিশ বৈঠকে উভয়ের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ফাতেমার খোর পোষ বাবদ ১ লাখ টাকা নগদ আদায়ের মাধ্যমে বিবাহ বিচ্ছেদ করা হয়েছে।