১৯ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

শেষ ম্যাচেও মুস্তাফিজ আতঙ্কে ভারত


স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বিস্ময়কর অভিষেক। ভারতের বিপক্ষে ৫ উইকেট নিয়ে শুরু করেছিলেন ১৯ বছর বয়সী তরুণ বাঁহাতি পেসার মুস্তাফিজুর রহমান। এরপর তাকে নিয়ে চুলচেরা গবেষণা ও বিশ্লেষণ করেছে ভারতীয় দল। কিন্তু কাজে আসেনি সে সব। ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় ম্যাচে আরও ভয়ঙ্কর এক বিভীষিকা হিসেবে অবতীর্ণ হন মুস্তাফিজ। দ্বিতীয় ওয়ানডেতে নিয়েছেন ৬ উইকেট। এবার ভারতের সামনে লজ্জা এড়ানোর লড়াই। সেই লজ্জা বাংলাওয়াশ এড়ানোর লজ্জা। কিন্তু বিস্ময়কর যে কাটারে বার বার ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের বিমূঢ় করেছেন সেটা নিয়ে এখন আতঙ্কে আছে সফরকারী দল। তাই আজ তৃতীয় ও শেষ ম্যাচেও মুস্তাফিজ আতঙ্ক থাকছে ভারত শিবিরে।

মুস্তাফিজ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ধূমকেতুর মতো উদয় হলেও তার সঙ্গে বেশ আগে থেকেই পরিচিত বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা। তিনি যখন নেটে বোলিং করেছেন দেশসেরা ব্যাটসম্যানরাও দারুণ সমস্যায় পড়েছেন তাকে মোকাবেলা করতে। সেটা আরেকবার স্মরণ করিয়ে দিলেন বাংলাদেশী অলরাউন্ডার নাসির হোসেন। তিনি বলেন, ‘আমাদেরও অনেক সমস্যা হয় ওর বল খেলতে। তাই সবাই ব্যাটিংয়ে নামার আগে বলি- ‘দেখ ভাই আমাকে অন্তত কাটার দিস না।’ সে তো নিজেই বুঝতে পারছে না ও কি করেছে। অনেক কম কথা বলে, জানি না তার মধ্যে আসলে কি আছে।’ এতদিন সেটা ছিল বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের মধ্যে। এবার আন্তর্জাতিক পরিম-লে গবেষণার অন্যতম ব্যক্তিতে পরিণত হয়েছেন মুস্তাফিজ। কারণ অভিষেকে ৫০ রানে ৫ এবং পরের ম্যাচেই ৪৩ রানে ৬ উইকেট নিয়ে ত্রাসোদ্দীপক বোলারে পরিণত হয়েছেন মুস্তাফিজ। অথচ তার ভয়ঙ্কর কাটার ও সেøায়ার মোকাবেলার জন্য প্রথম ওয়ানডের পর থেকেই কঠোর পরিশ্রম করেছে ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা। তাই তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডেতে মুস্তাফিজকে সমীহ করে বুঝেশুনে খেলা ছাড়া কোন পথ নেই। এ বিষয়ে ভারতের স্পিন স্তম্ভ রবিচন্দ্রন অশ্বিন বললেন, ‘কি করা প্রয়োজন সেটা বিবেচনার জন্য সবাই পেশাদার। সেক্ষেত্রে এখানে মোকাবেলার কোন বিষয় নেই। মানে বলতে চাচ্ছি আমরা কী করব? তাকে অপহরণ করব? না, আমাদের নামতে হবে, ভাল এবং নিখুঁত ক্রিকেট খেলতে হবে। সেই সঙ্গে চেষ্টা করে নিশ্চিত করতে হবে যে আমরা তাকে অকার্যকর করতে পারব। তিনি দারুণ কিছু কাটার করতে পারেন। এটার দিকেই আমাদের তীক্ষè নজর দিতে হবে। তাকে যথেষ্ট সমীহও করতে হবে আমাদের। সম্মান এমন একটি বিষয় যা আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে খুব গুরুত্বপূর্ণ।’ অশ্বিনের কথাতেই স্পষ্ট ভারতীয় দল এখন পুরোটা সময় ব্যয় করছে মুস্তাফিজ বিস্ময় কোনভাবে এড়িয়ে যাওয়ার জন্য। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নতুন পদার্পণ বলেই হয় তো আরও সমস্যার মধ্যে পড়েছে ভারতীয় দল। এ বিষয়ে অবশ্য অশ্বিন বললেন, ‘আমি এর জবাবটা কোন রকম করে দিতে পারতাম, কিন্তু সেটা আমি করব না।

সম্পর্কিত:
পাতা থেকে: