২১ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৩ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

স্ত্রীকে পাচারের অভিযোগে স্বামীর বিরুদ্ধে মামলা


স্টাফ রিপোর্টার, বরিশাল ॥ ৫ লাখ টাকার বিনিময়ে স্ত্রী মাকসুদা বেগমকে লেবাননে পাচারের অভিযোগে স্বামীসহ চারজনকে আসামি করে বৃহস্পতিবার দুপুরে বরিশালের একটি আদালতে মামলা দায়ের করা হয়েছে। মাকসুদার পিতা এসাহাক মল্লিক বাদি হয়ে বরিশাল নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে মামলা দায়ের করেন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, মামলাটি আমলে নিয়ে আদালতের বিচারক মো. আনোয়ারুল হক সংশ্লিষ্ট থানা পুলিশকে ভিক্টিমকে উদ্ধার পরবর্তী তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন। মামলার অভিযুক্ত আসামিরা হলো-পটুয়াখালীর দুমকি গ্রামের বাসিন্দা স্বামী রিপন হাওলাদার, তার পিতা আব্দুল কাদের হাওলাদার, চাচা খলিল হাওলাদার ও আলাউদ্দিন হাওলাদার। এজাহারে জানা গেছে, গত কয়েক বছর আগে জেলার বাকেরগঞ্জ উপজেলার গরিয়া গ্রামের এসাহাক মল্লিকের কন্যা মাকসুদা বেগমের সাথে পটুয়াখালীর দুমকি এলাকার কাদের হাওলাদারের পুত্র রিপন হাওলাদারের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই মোটা অংকের টাকা যৌতুকের জন্য রিপন ও তার পরিবারের সদস্যরা মাকসুদাকে শারিরিক নির্যাতন করে আসছিলো। এমনকি মাকসুদাকে বিদেশে যাওয়ার জন্য বিভিন্ন ধরনের চাঁপ প্রয়োগ করা হয়। সূত্রে আরও জানা গেছে, গত বছরের ১৫ ডিসেম্বর থেকে মাকসুদার সাথে তার বাবার বাড়ির লোকজনের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়। শত চেষ্ঠা করেও মেয়ের কোন খোঁজ পাননি এসাহাক মল্লিক। এরইমধ্যে গত কয়েকদিন পূর্বে মাকসুদা ফোন করে তার বাবাকে (এসাহাক মল্লিককে) জানায়, তাকে তার স্বামী রিপন হাওলাদার ও তার স্বজনেরা ৫ লাখ টাকার বিনিময়ে লেবালনে পাচার করে দিয়েছেন।