১৯ অক্টোবর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট এই মাত্র  
Login   Register        
ADS

যশোরে ইজিবাইক রিক্সাচালক ॥ ব্যাপক সংঘর্ষ, ভাংচুর


স্টাফ রিপোর্টার, যশোর অফিস ॥ যশোরে ইজিবাইক ও ইঞ্জিন রিক্সাচালকদের মধ্যে সংঘর্ষে ব্যাপক ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে। রবিবার দুপুরে শহরের বিভিন্নস্থানে উভয়পক্ষের পাল্টাপাল্টি হামলায় শতাধিক ইজিবাইক ও রিক্সা ভাংচুর করা হয়েছে। এতে অন্তত ১০ চালক আহত হয়েছেন। আহতদের মধ্যে ৫ জনকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বাকিরা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন। আর মধ্য দুপুরে এ তাণ্ডবকালে গোটা শহর বাহনশূন্য হয়ে পড়ে। এতে দুর্ভোগে পড়তে হয় শত শত মানুষকে।

ইজিবাইক চালকরা জানান, গত ১ জুন থেকে যশোরের ইঞ্জিন (মোটর) চালিত রিক্সা চলাচল বন্ধ করেছে প্রশাসন। এরপর থেকে ইঞ্জিন রিক্সাচালকরা ইজিবাইক বন্ধের দাবি করে আসছিল। রবিবার বেলা সাড়ে ১২টার দিকে রিক্সা চালকরা জেলা প্রশাসকের কাছে স্মারকলিপি দিয়ে শহরে মিছিল করে। এক পর্যায়ে মিছিল থেকে শহরের বিভিন্নস্থানে হামলা চালিয়ে অর্ধশতাধিক ইজিবাইকে ব্যাপক ভাংচুর করা হয়। এ সময় লিটন, আমিরুল, আজিজুল, শাহাদাত, ফারুক, রাকিব, রবিউল, জয়নাল ও আজিজুল নামের অন্তত ১০ জন ইজিবাইক চালক আহত হন। তাদের যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পাঁচজন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। বাকিরা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন। এ ঘটনার পরে ইজিবাইক চালকরা সংগঠিত হয়ে শহরের মোড়ে মোড়ে রিক্সা ভাংচুর করে। এক পর্যায়ে শহরে ইজিবাইক ও রিক্সা শূন্য হয়ে যায়। রিক্সা ও ইজিবাইক চলাচল বন্ধ থাকায় সাধারণ মানুষ চরম দুর্ভোগের শিকার হয়।

পুলিশ জানায়, উভয়পক্ষের সঙ্গে আলোচনা করে ইজিবাইক ও রিক্সা চলাচল স্বাভাবিক করা হয়েছে। তবে ইঞ্জিনচালিত রিক্সা চলাচলে অনুমতি দেয়া হচ্ছে না।